নেত্রকোনায় নৌকার ভরাডুবি
jugantor
নেত্রকোনায় নৌকার ভরাডুবি

  নেত্রকোনা প্রতিনিধি  

২৯ নভেম্বর ২০২১, ২০:৩৫:২৯  |  অনলাইন সংস্করণ

তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে (ইউপি) নেত্রকোনায় নৌকার ভরাডুবি হয়েছে। রোববার জেলার কলমাকান্দা, দুর্গাপুর ও পূর্বধলার ২৫টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

এর মধ্যে আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা মাত্র ৮টি ইউনিয়নে জয়লাভ করেছেন। অন্য ১৭টির মধ্যে ৪টি স্বতন্ত্র (বিএনপি) ও ১৩টিতের আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীরা জয় লাভ করেছেন।

বেসরকারিভাবে কলমাকান্দার ৮টি ইউনিয়নে যারা বিজয়ী হলেন তারা হলেন- কলমাকান্দা সদর ইউনিয়নে মো. আবদুল আলী বিশ্বাস (বিদ্রোহী), রংছাতিতে উপজেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. আনিছুর রহমান পাঠান, নাজিরপুরে আবদুল আলী (নৌকা), কৈলাটিতে মো. জয়নাল আবেদিন (নৌকা), পোগলায় মো. মোজাম্মেল হক (নৌকা), লেঙ্গুরায় জেলা যুবদলের সাবেক যুগ্মসাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান চেয়ারম্যান মো. সাইদুর রহমান ভূঁইয়া, বড়খাপনে মো. শফিকুল ইসলাম (বিদ্রোহী), খারনৈ ইউনিয়নের ফলাফল স্থগিত করা হয়েছে।

দুর্গাপুর উপজেলার ৭টি ইউপিতে বেসরকারিভাবে বিজয়ীরা হলেন কুল্লাগড়া ইউনিয়নে উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবদুল আওয়াল, দুর্গাপুর ইউনিয়নে সাদেকুল ইসলাম (বিদ্রোহী), চণ্ডীগড়ে এমদাদুল হক আলম সরকার (বিদ্রোহী), বিরিশিরিতে মো. রফিকুল ইসলাম (নৌকা), বাকলজোড়ায় মো. ইয়াকুব তালুকদার (বিদ্রোহী), কাকৈরগড়ায় শিব্বির আহাম্মেদ তালুকদার (নৌকা), গাঁওকান্দিয়ায় মো. আবদুর রাজ্জাক সরকার (নৌকা)।

পূর্বধলার ১০টি ইউনিয়নের মধ্যে গোহালাকান্দায় মো. আনোয়ার হোসেন (বিদ্রোহী), হোগলায় মো. সিরাজুল ইসলাম আকন্দ (বিদ্রোহী), ঘাগরায় একেএম মাজাহারুল ইসলাম (বিদ্রোহী), বিশকাকুনিতে আল আমিন (বিদ্রোহী), বৈরাটিতে মুহাম্মদ অনিছুজ্জামান তালুকদার (বিদ্রোহী), আগিয়ায় মো. সানোয়ার হোসেন চৌধুরী (বিদ্রোহী), জারিয়ায় মো. আমিনুল ইসলাম মণ্ডল (বিদ্রোহী),পূর্বধলা সদরে মো. সিদ্দিকুর রহমান (বিদ্রোহী), খলিশাউড়ায় কমল কৃষ্ণ সরকার (নৌকা) ও নারান্দিয়া মো. আবদুল কুদ্দুস (নৌকা)।

নেত্রকোনায় নৌকার ভরাডুবি

 নেত্রকোনা প্রতিনিধি 
২৯ নভেম্বর ২০২১, ০৮:৩৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে (ইউপি) নেত্রকোনায় নৌকার ভরাডুবি হয়েছে। রোববার জেলার কলমাকান্দা, দুর্গাপুর ও পূর্বধলার ২৫টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

এর মধ্যে আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা মাত্র ৮টি ইউনিয়নে জয়লাভ করেছেন। অন্য ১৭টির মধ্যে ৪টি স্বতন্ত্র (বিএনপি) ও ১৩টিতের আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীরা জয় লাভ করেছেন।

বেসরকারিভাবে কলমাকান্দার ৮টি ইউনিয়নে যারা বিজয়ী হলেন তারা হলেন- কলমাকান্দা সদর ইউনিয়নে মো. আবদুল আলী বিশ্বাস (বিদ্রোহী), রংছাতিতে উপজেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. আনিছুর রহমান পাঠান, নাজিরপুরে আবদুল আলী (নৌকা), কৈলাটিতে মো. জয়নাল আবেদিন (নৌকা), পোগলায় মো. মোজাম্মেল হক (নৌকা), লেঙ্গুরায় জেলা যুবদলের সাবেক যুগ্মসাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান চেয়ারম্যান মো. সাইদুর রহমান ভূঁইয়া, বড়খাপনে মো. শফিকুল ইসলাম (বিদ্রোহী), খারনৈ ইউনিয়নের ফলাফল স্থগিত করা হয়েছে।

দুর্গাপুর উপজেলার ৭টি ইউপিতে বেসরকারিভাবে বিজয়ীরা হলেন কুল্লাগড়া ইউনিয়নে উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবদুল আওয়াল, দুর্গাপুর ইউনিয়নে সাদেকুল ইসলাম (বিদ্রোহী), চণ্ডীগড়ে এমদাদুল হক আলম সরকার (বিদ্রোহী), বিরিশিরিতে মো. রফিকুল ইসলাম (নৌকা), বাকলজোড়ায় মো. ইয়াকুব তালুকদার (বিদ্রোহী), কাকৈরগড়ায় শিব্বির আহাম্মেদ তালুকদার (নৌকা), গাঁওকান্দিয়ায় মো. আবদুর রাজ্জাক সরকার (নৌকা)।

পূর্বধলার ১০টি ইউনিয়নের মধ্যে গোহালাকান্দায় মো. আনোয়ার হোসেন (বিদ্রোহী), হোগলায় মো. সিরাজুল ইসলাম আকন্দ (বিদ্রোহী), ঘাগরায় একেএম মাজাহারুল ইসলাম (বিদ্রোহী), বিশকাকুনিতে আল আমিন (বিদ্রোহী), বৈরাটিতে মুহাম্মদ অনিছুজ্জামান তালুকদার (বিদ্রোহী), আগিয়ায় মো. সানোয়ার হোসেন চৌধুরী (বিদ্রোহী), জারিয়ায় মো. আমিনুল ইসলাম মণ্ডল (বিদ্রোহী),পূর্বধলা সদরে মো. সিদ্দিকুর রহমান (বিদ্রোহী), খলিশাউড়ায় কমল কৃষ্ণ সরকার (নৌকা) ও নারান্দিয়া মো. আবদুল কুদ্দুস (নৌকা)।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন