ফুফু পরিচয়ে ৫ মাসের শিশুকে নিয়ে চম্পট, গ্রেফতার ১
jugantor
ফুফু পরিচয়ে ৫ মাসের শিশুকে নিয়ে চম্পট, গ্রেফতার ১

  টঙ্গী পূর্ব (গাজীপুর) প্রতিনিধি  

০২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৫:৫৭:৩৯  |  অনলাইন সংস্করণ

ফুফু পরিচয়ে ৫ মাসের শিশুকে নিয়ে চম্পট, গ্রেফতার ১

গাজীপুরের টঙ্গীতে ফুফু পরিচয় দিয়ে পাঁচ মাসের শিশুকে নিয়ে চম্পট দিলেন এক অপহরণকারী। এ খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত জ্যোৎস্না আক্তারকে (৩২) ফরিদপুর থেকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তাকে বৃহস্পতিবার জেলহাজতে প্রেরণ করেছে টঙ্গী পূর্ব থানা পুলিশ।

টঙ্গী পূর্ব থানার এসআই লিটন শরীফ জানান, গত ১৯ নভেম্বর জ্যোৎস্না আক্তার নামে এক মহিলা পূর্ব আরিচপুরে জনৈক পান্নার বাসায় ননদ পরিচয়ে বেড়াতে আসেন। এর দুদিন পর গত ২১ নভেম্বর বিকালে পান্না তার মেয়েকে ননদ পরিচয়ে আসা সেই নারীর কাছে রেখে পাশের বাসায় কাজে যান।

পরে সন্ধ্যা ৭টার দিকে বাসায় এসে তার মেয়ে ও জ্যোৎস্নাকে বাসায় না পেয়ে চারদিকে খোঁজাখুঁজি শুরু করেন। মেয়েকে না পেয়ে তিনি গত ২৪ নভেম্বর পূর্ব থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। এর সূত্র ধরে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের অপরাধ (দক্ষিণ) বিভাগের উপপুলিশ কমিশনার মো. ইলতুৎমিশের নির্দেশে পূর্ব থানা পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার ও আসামিকে গ্রেফতারের জন্য গুরুত্বসহকারে কাজ শুরু করে। একপর্যায়ে ফরিদপুরের ভাঙ্গা থানার মালিগ্রামে অপহরণকারীর অবস্থান শনাক্ত করে অভিযান পরিচালনা করা হয়। পরে ওই এলাকা থেকে অপহৃত শিশু ও অপহরণকারীকে গ্রেফতার করে বৃহস্পতিবার সকালে থানায় নিয়ে আসে। গ্রেফতারকৃতের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা শেষে গাজীপুর জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিষয়টির বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরেন থানার পুলিশ কর্মকর্তারা।

এতে উপস্থিত ছিলেন গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার হাসিবুল আলম, সহকারী পুলিশ কমিশনার পীযূষ কুমার দে, টঙ্গী পূর্ব থানার অফিসার ইনচার্জ মো. জাবেদ মাসুদ, ইন্সপেক্টর (তদন্ত) দেলোয়ার হোসেন চৌধুরী, ইন্সপেক্টর (অপারেশন) রবিউল আজম প্রমুখ।

ফুফু পরিচয়ে ৫ মাসের শিশুকে নিয়ে চম্পট, গ্রেফতার ১

 টঙ্গী পূর্ব (গাজীপুর) প্রতিনিধি 
০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৩:৫৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ফুফু পরিচয়ে ৫ মাসের শিশুকে নিয়ে চম্পট, গ্রেফতার ১
ছবি: যুগান্তর

গাজীপুরের টঙ্গীতে ফুফু পরিচয় দিয়ে পাঁচ মাসের শিশুকে নিয়ে চম্পট দিলেন এক অপহরণকারী। এ খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত জ্যোৎস্না আক্তারকে (৩২) ফরিদপুর থেকে গ্রেফতার করা হয়।  পরে তাকে বৃহস্পতিবার জেলহাজতে প্রেরণ করেছে টঙ্গী পূর্ব থানা পুলিশ।

টঙ্গী পূর্ব থানার এসআই লিটন শরীফ জানান, গত ১৯ নভেম্বর জ্যোৎস্না আক্তার নামে এক মহিলা পূর্ব আরিচপুরে জনৈক পান্নার বাসায় ননদ পরিচয়ে বেড়াতে আসেন। এর দুদিন পর গত ২১ নভেম্বর বিকালে পান্না তার মেয়েকে ননদ পরিচয়ে আসা সেই নারীর কাছে রেখে পাশের বাসায় কাজে যান।

পরে সন্ধ্যা ৭টার দিকে বাসায় এসে তার মেয়ে ও জ্যোৎস্নাকে বাসায় না পেয়ে চারদিকে খোঁজাখুঁজি শুরু করেন। মেয়েকে না পেয়ে তিনি গত ২৪ নভেম্বর পূর্ব থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। এর সূত্র ধরে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের অপরাধ (দক্ষিণ) বিভাগের উপপুলিশ কমিশনার মো. ইলতুৎমিশের নির্দেশে পূর্ব থানা পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার ও আসামিকে গ্রেফতারের জন্য গুরুত্বসহকারে কাজ শুরু করে। একপর্যায়ে ফরিদপুরের ভাঙ্গা থানার মালিগ্রামে অপহরণকারীর অবস্থান শনাক্ত করে অভিযান পরিচালনা করা হয়। পরে ওই এলাকা থেকে অপহৃত শিশু ও অপহরণকারীকে গ্রেফতার করে বৃহস্পতিবার সকালে থানায় নিয়ে আসে। গ্রেফতারকৃতের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা শেষে গাজীপুর জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিষয়টির বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরেন থানার পুলিশ কর্মকর্তারা।

এতে উপস্থিত ছিলেন গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার হাসিবুল আলম, সহকারী পুলিশ কমিশনার পীযূষ কুমার দে, টঙ্গী পূর্ব থানার অফিসার ইনচার্জ মো. জাবেদ মাসুদ, ইন্সপেক্টর (তদন্ত) দেলোয়ার হোসেন চৌধুরী, ইন্সপেক্টর (অপারেশন) রবিউল আজম প্রমুখ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন