নিজের গায়ের চাদর পেঁচিয়ে অটোরিকশা খালে, স্কুলছাত্র নিহত
jugantor
নিজের গায়ের চাদর পেঁচিয়ে অটোরিকশা খালে, স্কুলছাত্র নিহত

  বুড়িচং (কুমিল্লা) প্রতিনিধি  

০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ১২:৪৬:৫৪  |  অনলাইন সংস্করণ

সড়ক ‍দুর্ঘটনা

সকালে হালকা শীত হওয়ায় স্কুলছাত্র ফাহিম ভূঁইয়া গায়ে চাদর জড়িয়ে অটোরিকশা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। এর পর ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার চাকায় তার চাদর পেঁচিয়ে গেলে গাড়িটি ছিটকে খালে পড়ে ঘটনাস্থলে ফাহিম ভূঁইয়ার মৃত্যু হয়।

বুধবার বুড়িচং-রাজাপুর সড়কের কুমিল্লার হরিপুর এলাকার কালা ব্রিজ নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এর পর পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে।

এ সময় নিহত ফাহিম ভূঁইয়ার বাবা কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, সকালে হালকা শীত হওয়ায় ফাহিম গায়ে চাদর জড়িয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। এর পর ফেরে লাশ হয়ে।

নিহত ফাহিম জেলার বুড়িচং উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের চড়ানল গ্রামের কালাম ভূঁইয়ার ছেলে। সে পাঁচোড়া স্কুলের নবম শ্রেণির ছাত্র।

জানা যায়, সকালে অটোরিকশাচালক ফাহিম এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের নিয়ে বুড়িচং সদরে পরীক্ষা কেন্দ্রে দিতে যায়। এর পর বাড়িতে ফেরার পথে হরিপুর কালা ব্রিজ নামক স্থানে চাদর পেঁচিয়ে অটোরিকশাসহ সে খালে পড়ে যায়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা ফাহিমকে উদ্ধার করে বুড়িচং সরকারি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতের বাবা কালাম ভূঁইয়া যুগান্তরকে জানান, অভাবের সংসারে ফাহিম ভূঁইয়া লেখাপড়ার পাশাপাশি অটোরিকশা চালিয়ে সংসারে সহযোগিতা করত। সে তার লেখাপড়ার খরচও চালাতো। বুধবার প্রতিদিনের ন্যায় পরীক্ষার্থীদের নিয়ে পরীক্ষাকেন্দ্রে দিয়ে বাড়িতে ফেরার পথে এ দুর্ঘটনার শিকার হয় ফাহিম।

বুড়িচং থানার ওসি (তদন্ত) মাকসুদ আলম বলেন, চাকার সঙ্গে গায়ের চাদরটি পেঁচিয়ে যাওয়ায় রাস্তার পাশে খালে ছিটকে পড়ে মাথায় আঘাত পেয়ে মারা যান।

নিজের গায়ের চাদর পেঁচিয়ে অটোরিকশা খালে, স্কুলছাত্র নিহত

 বুড়িচং (কুমিল্লা) প্রতিনিধি 
০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ১২:৪৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
সড়ক ‍দুর্ঘটনা
ছবি: যুগান্তর

সকালে হালকা শীত হওয়ায় স্কুলছাত্র ফাহিম ভূঁইয়া গায়ে চাদর জড়িয়ে অটোরিকশা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। এর পর ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার চাকায় তার চাদর পেঁচিয়ে গেলে গাড়িটি ছিটকে খালে পড়ে ঘটনাস্থলে ফাহিম ভূঁইয়ার মৃত্যু হয়।

বুধবার বুড়িচং-রাজাপুর সড়কের কুমিল্লার হরিপুর এলাকার কালা ব্রিজ নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এর পর পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে।

এ সময় নিহত ফাহিম ভূঁইয়ার বাবা কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, সকালে হালকা শীত হওয়ায় ফাহিম গায়ে চাদর জড়িয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। এর পর ফেরে লাশ হয়ে।

নিহত ফাহিম জেলার বুড়িচং উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের চড়ানল গ্রামের কালাম ভূঁইয়ার ছেলে। সে পাঁচোড়া স্কুলের নবম শ্রেণির ছাত্র।

জানা যায়, সকালে অটোরিকশাচালক ফাহিম এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের নিয়ে বুড়িচং সদরে পরীক্ষা কেন্দ্রে দিতে যায়। এর পর বাড়িতে ফেরার পথে হরিপুর কালা ব্রিজ নামক স্থানে চাদর পেঁচিয়ে অটোরিকশাসহ সে খালে পড়ে যায়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা ফাহিমকে উদ্ধার করে বুড়িচং সরকারি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতের বাবা কালাম ভূঁইয়া যুগান্তরকে জানান, অভাবের সংসারে ফাহিম ভূঁইয়া লেখাপড়ার পাশাপাশি অটোরিকশা চালিয়ে সংসারে সহযোগিতা করত। সে তার লেখাপড়ার খরচও চালাতো। বুধবার প্রতিদিনের ন্যায় পরীক্ষার্থীদের নিয়ে পরীক্ষাকেন্দ্রে দিয়ে বাড়িতে ফেরার পথে এ দুর্ঘটনার শিকার হয় ফাহিম।

বুড়িচং থানার ওসি (তদন্ত) মাকসুদ আলম বলেন, চাকার সঙ্গে গায়ের চাদরটি পেঁচিয়ে যাওয়ায় রাস্তার পাশে খালে ছিটকে পড়ে মাথায় আঘাত পেয়ে মারা যান।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন