তুমব্রু সীমান্তে ফের সেনা বাড়িয়েছে মিয়ানমার, রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ

  বান্দরবান প্রতিনিধি ১৯ মে ২০১৮, ১৫:২৫ | অনলাইন সংস্করণ

তুমব্রু
ছবি: যুগান্তর

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির তুমব্রু সীমান্তে আবারও সেনা-বিজিপির সংখ্যা বৃদ্ধি করেছে মিয়ানমার। কাটাতারের বেড়া ঘেষে সীমান্তের কোনাপাড়া শূন্যরেখায় আশ্রয় নেয়া প্রায় সাড়ে ৪ হাজার রোহিঙ্গাদের সরে যেতে মাইকিং করছে মিয়ানমারের সেনারা।

এছাড়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ছুড়ে মারা হচ্ছে ইট-পাটকেল এবং খালি মদের বোতল।

শনিবার সকালে এ ঘটনা ঘটে।

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ-বিজিবি ও রোহিঙ্গারা জানায়, দুই মাসের ব্যবধানে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের তুমব্রু সীমান্তে হঠাৎ করে এ ধরনের সেনা বৃদ্ধি করেছে মিয়ানমার।

শনিবার ভোর থেকে সকাল সাড়ে এগারোটা পর্যন্ত তুমব্রু পয়েন্টে নতুন করে সাতটি পিকআপ ভ্যানে করে সেনা-বিজিপির সদস্যরা জড়ো হয়েছে। অস্ত্র নিয়ে কাঁটাতারের বেড়ার কাছেই অবস্থান নিয়েছে তারা। আর কাঁটাতারের বেড়ার ওপাশে পাহাড়ের চূড়ায় ৩০ গজ পরপর দূরত্বে স্থাপন করা বাংকার থেকে মাইকিং করা হচ্ছে শূন্যরেখায় আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের অন্যত্র চলে যেতে।

শূন্যরেখার রোহিঙ্গা ক্যাম্পের দলনেতা দিল মোহাম্মদ নুর হোসেন বলেন, বর্ষায় শূন্যরেখার আশ্রয় ক্যাম্পটি খালের পানিতে তলিয়ে যায়। জীবন রক্ষায় ঢাকার ব্যবসায়ীদের আর্থিক সহযোগিতায় শূন্যরেখায় পাঁচ ফুট উচু মাচাং ঘর তৈরি করা হচ্ছে। এ খবর পেয়ে আবারও পাগল হয়ে গেছে মিয়ানমারের সেনা-বিজিপি সদস্যরা।

নুর হোসেন বলেন, শূন্যরেখা থেকে রোহিঙ্গাদের চলে যেতে তারা কিছুক্ষণ পর পর মাইকিং করছে। ইট এবং মদের খালি বোতল ছুড়ে মারছে ক্যাম্পের ঝুপড়ি ঘরে।

এর আগে মার্চ মাসের শুরুর দিকে সীমান্তে সেনা-বিজিপি বাড়িয়েছিল মিয়ানমার।

ঘটনাপ্রবাহ : রোহিঙ্গা বর্বরতা

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×