ব্যাডমিন্টন খেলা নিয়ে যুবককে ছুরিকাঘাত
jugantor
ব্যাডমিন্টন খেলা নিয়ে যুবককে ছুরিকাঘাত

  সরাইল (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি  

২৩ জানুয়ারি ২০২২, ২০:৩৬:৪৭  |  অনলাইন সংস্করণ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে ব্যাডমিন্টন খেলাকে কেন্দ্র করে চন্দ্রনাথ রায় ওরফে জয়রায় (২৪) নামে এক যুবক ছুরিকাঘাতে আহত হয়েছেন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে উভয়পক্ষের ৬ জন আহত হয়েছেন।

শনিবার রাত ১১টায় উপজেলার অরুয়াইল ইউনিয়নের শ্রী মোহনলাল জিউ মন্দির প্রাঙ্গণে ঘটনাটি ঘটে।

ছুরিকাহত জয়রায় উপজেলার বাদে অরুয়াইল গ্রামের মৃত নিতিশ রায়ের ছেলে।

অন্য আহতরা হলেন- বাদে অরুয়াইলের প্রীতম রায় (২৩), পরিমল দেব (৩৫), জুটন দেব (২৩), বাবুল সূত্রধর (২৬), রমেশ দাস (৫৭), রবিদাস (৪৫)। মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত আহত রমেশ দাসকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে তার স্বজনরা জানান।

মোহনলাল জিউর মন্দিরের সভাপতি ও প্রত্যক্ষদর্শী বেণীমাধব রায় জানান, রাত ১০টায় মন্দির কমিটি একটা জরুরি বিষয় নিয়ে মিটিংয়ে বসে। কিছুক্ষণ পর মারামারির আওয়াজ শুনে বের হয়ে দেখেন ব্যাডমিন্টন খেলা নিয়ে অরুয়াইল দাসপাড়ার ছেলেরা রায়পাড়ার ছেলেদের সঙ্গে মারামারি করছে। পরে মন্দির কমিটির নেতারা উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি সামাল দেন। তারা মন্দির প্রাঙ্গণে রাতে ব্যাডমিন্টন খেলা নিষেধ করে দেন।

সরাইল থানার ওসি মো. আসলাম হোসেন বলেন, এ ঘটনায় জয়রায়ের বড়ভাই লোকনাথ রায় (২৯) বাদী হয়ে ৯ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন। আমরা তদন্ত করে আসামি ধরার চেষ্টা করছি।

ব্যাডমিন্টন খেলা নিয়ে যুবককে ছুরিকাঘাত

 সরাইল (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি 
২৩ জানুয়ারি ২০২২, ০৮:৩৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে ব্যাডমিন্টন খেলাকে কেন্দ্র করে চন্দ্রনাথ রায় ওরফে জয়রায় (২৪) নামে এক যুবক ছুরিকাঘাতে আহত হয়েছেন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে উভয়পক্ষের ৬ জন আহত হয়েছেন।

শনিবার রাত ১১টায় উপজেলার অরুয়াইল ইউনিয়নের শ্রী মোহনলাল জিউ মন্দির প্রাঙ্গণে ঘটনাটি ঘটে।

ছুরিকাহত জয়রায় উপজেলার বাদে অরুয়াইল গ্রামের মৃত নিতিশ রায়ের ছেলে। 

অন্য আহতরা হলেন- বাদে অরুয়াইলের প্রীতম রায় (২৩), পরিমল দেব (৩৫), জুটন দেব (২৩), বাবুল সূত্রধর (২৬), রমেশ দাস (৫৭), রবিদাস (৪৫)। মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত আহত রমেশ দাসকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে তার স্বজনরা জানান।

মোহনলাল জিউর মন্দিরের সভাপতি ও প্রত্যক্ষদর্শী বেণীমাধব রায় জানান, রাত ১০টায় মন্দির কমিটি একটা জরুরি বিষয় নিয়ে মিটিংয়ে বসে। কিছুক্ষণ পর মারামারির আওয়াজ শুনে বের হয়ে দেখেন ব্যাডমিন্টন খেলা নিয়ে অরুয়াইল দাসপাড়ার ছেলেরা রায়পাড়ার ছেলেদের সঙ্গে মারামারি করছে। পরে মন্দির কমিটির নেতারা উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি সামাল দেন। তারা মন্দির প্রাঙ্গণে রাতে ব্যাডমিন্টন খেলা নিষেধ করে দেন।

সরাইল থানার ওসি মো. আসলাম হোসেন বলেন, এ ঘটনায় জয়রায়ের বড়ভাই লোকনাথ রায় (২৯) বাদী হয়ে ৯ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন। আমরা তদন্ত করে আসামি ধরার চেষ্টা করছি।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন