রোহিঙ্গা শিশুদের সঙ্গে মিশে গেলেন আঁখি আলমগীর

প্রকাশ : ২৮ মে ২০১৮, ২১:১৯ | অনলাইন সংস্করণ

  উখিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি

রোহিঙ্গা শিশুদের সঙ্গে জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী আঁখি আলমগীর। ছবি: যুগান্তর

দেশের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী আঁখি আলমগীর উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পে ত্রাণ বিতরণ করেছেন। এ সময় তিনি রোহিঙ্গা শিশুদের সঙ্গে মিশে যান। তাদের কথা শোনেন।

ইকবাল ব্রস ফাউন্ডেশনের ব্যানারে সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় সোমবার বেলা ১১টার দিকে রোহিঙ্গা নারী, শিশুদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ শেষে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি পোস্ট করে তার ত্রাণ বিতরণের খবরটি জানিয়ে দেন।

সোমবার সকালে আঁখি টিমের অন্যদের সঙ্গে উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ত্রাণ বিতরণকালে স্থানীয় সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ১৩ মে ইংল্যান্ডের ম্যানচেস্টারে একটি কনসার্ট অনুষ্ঠিত হয়। ওই কনসার্টে বেশির ভাগ দর্শক ছিলেন প্রবাসী বাঙালিরা। সেখানে উপস্থিত প্রবাসীরা রোহিঙ্গাদের জন্য এক লাখ ১১ হাজার পাউন্ড অর্থ সংগ্রহ করেন।

তিনি বলেন, ইকবাল ব্রস ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত ওই কনসার্টের সব অর্থ রোহিঙ্গাদের জন্য ত্রাণসামগ্রী ক্রয় করা হয়- যা সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় বিতরণ করা হয়েছে।

আঁখি আলমগীর বলেন, রোহিঙ্গাদের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা দেখে খুবই মর্মাহত হয়েছি। এক সঙ্গে এত রোহিঙ্গার বসবাস একটি বিরল দৃষ্টান্ত।রোহিঙ্গা শিশুদের সঙ্গে জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী আঁখি আলমগীর। ছবি: যুগান্তর

তিনি সামনের বর্ষায় এসব রোহিঙ্গার নিরাপদ বসবাসের জন্য আরও উন্নত আবাসস্থল তৈরিসহ ক্যাম্পের সার্বিক বিষয়ে পরিবর্তন আনার জন্য বিশ্ববাসীর প্রতি আহ্বান জানান।

তিনি আরও দাবি জানান, এসব রোহিঙ্গার সম্পূর্ণ নাগরিকত্ব দিয়ে তারা যেন স্বদেশে ফিরে যেতে পারে, সে ব্যাপারে আন্তর্জাতিকভাবে মিয়ানমারের ওপর চাপ সৃষ্টি অব্যাহত রাখতে বিশ্ব নেতাদের এগিয়ে আসতে হবে।

এ সময় ইকবাল ব্রস ফাউন্ডেশনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ছাড়াও বিভিন্ন এনজিও সংস্থার প্রতিনিধি ও প্রশাসনের লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

পরে আঁখি আলমগীর কুতুপালং ক্যাম্পে বেশ কয়েকটি এলাকা পরিদর্শন করে রোহিঙ্গা নারী ও শিশুদের সঙ্গে কথা বলেন। জানতে চান, তারা কোনো সমস্যায় আছে কিনা?

এ সময় রোহিঙ্গারা মিয়ানমারে ফিরে যাওয়ার ব্যাপারে যেন সহযোগিতা করেন রোহিঙ্গারা শুধুমাত্র এই দাবিটুকু কামনা করেন সংগীতশিল্পীর কাছে।