নিউইয়র্কে দুর্বৃত্তের ধাক্কায় ট্রেনে কাটা পড়ল বাংলাদেশি কলেজছাত্রী
jugantor
নিউইয়র্কে দুর্বৃত্তের ধাক্কায় ট্রেনে কাটা পড়ল বাংলাদেশি কলেজছাত্রী

  দাউদকান্দি (কুমিল্লা) প্রতিনিধি  

১৪ মে ২০২২, ০০:২২:৪০  |  অনলাইন সংস্করণ

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে হান্টার কলেজের বাংলাদেশি ছাত্রী জিনাত হোসেন (২৪) সাবওয়ে ট্রেন লাইনে ধাক্কা মেরে ফেলে দেয় দুর্বৃত্তরা। ট্রেনের চাকায় কাটা পড়ে হয়ে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয় বলে খবর পাওয়া গেছে।

কলেজ থেকে বাসায় ফেরার পথে স্থানীয় সময় বুধবার রাত ৯টার দিকে নিউইয়র্কের ব্রুকলিনে ইউটিকা সাবওয়ে ট্রেন স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত নিউইয়র্ক পুলিশের সঙ্গে বাংলাদেশি কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের লাশ হস্তান্তরের বৈঠক চলছে।

নিহত কলেজ ছাত্রী নিউইয়র্কে বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সভাপতি ডা. এনামুল হকের শ্যালিকার মেয়ে বলে জানা গেছে। নিহত জিনাত বাবামাসহ নিউইয়র্কের ব্রুকলিনে বসবাস করতেন। তার বাড়ি কুমিল্লার সাবেক দাউদকান্দি বর্তমান তিতাস উপজেলার জগতপুর গ্রামে। তার বাবার নাম আমির হোসেন। তারা প্রায় ২০ বছর ধরে ঢাকায় বসবাস করতো।

নিহত জিনাত হোসেনের খালু যুক্তরাষ্ট্রে বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সভাপতি ডা. এনামুল হক জানান, নিহত জিনাত ২০১৫ সালে বাবা মায়ের সঙ্গে নিউইয়র্কে আসে। তার বাবা আমির হোসেন ঢাকার ঠাটারি বাজারে ওষুধ ব্যবসা করতেন। আমির হোসেনের এক ছেলে ও এক মেয়ে। ছেলে ঢাকা বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে পোস্ট গ্রাজুয়েশন করছে। একমাত্র মেয়েকে হারিয়ে শোকে মুহ্যমান জিনাতের বাবা আমির হোসেন ও মা জেসমিন হোসেন হিরা।

নিউইয়র্ক পুলিশ বলছে, ট্রেন স্টেশনে ছিনতাইকারীরা তার ব্যাগ ছিনিয়ে নেয়ার সময় ছিটকে পড়ে ট্রেনে লাইনে কাটা পড়ে মৃত্যু হয়। তদন্ত চলছে। তদন্ত শেষে লাশ হস্তান্তর ও বিস্তারিত জানা যাবে।

ডা. এনামুল হক বলেন, পুলিশ বলছে ব্রুকলিনে ইউটিকা স্টেশন থেকে জিনাতের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

নিউইয়র্কে দুর্বৃত্তের ধাক্কায় ট্রেনে কাটা পড়ল বাংলাদেশি কলেজছাত্রী

 দাউদকান্দি (কুমিল্লা) প্রতিনিধি 
১৪ মে ২০২২, ১২:২২ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে হান্টার কলেজের বাংলাদেশি ছাত্রী জিনাত হোসেন (২৪) সাবওয়ে ট্রেন লাইনে ধাক্কা মেরে ফেলে দেয় দুর্বৃত্তরা। ট্রেনের চাকায় কাটা পড়ে হয়ে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয় বলে খবর পাওয়া গেছে।

কলেজ থেকে বাসায় ফেরার পথে স্থানীয় সময় বুধবার রাত ৯টার দিকে নিউইয়র্কের ব্রুকলিনে ইউটিকা সাবওয়ে ট্রেন স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত নিউইয়র্ক পুলিশের সঙ্গে বাংলাদেশি কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের লাশ হস্তান্তরের বৈঠক চলছে।

নিহত কলেজ ছাত্রী নিউইয়র্কে বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সভাপতি ডা. এনামুল হকের শ্যালিকার মেয়ে বলে জানা গেছে। নিহত জিনাত বাবামাসহ নিউইয়র্কের ব্রুকলিনে বসবাস করতেন। তার বাড়ি কুমিল্লার সাবেক দাউদকান্দি বর্তমান তিতাস উপজেলার জগতপুর গ্রামে। তার বাবার নাম আমির হোসেন। তারা প্রায় ২০ বছর ধরে ঢাকায় বসবাস করতো।

নিহত জিনাত হোসেনের খালু যুক্তরাষ্ট্রে বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সভাপতি ডা. এনামুল হক জানান, নিহত জিনাত ২০১৫ সালে বাবা মায়ের সঙ্গে নিউইয়র্কে আসে। তার বাবা আমির হোসেন ঢাকার ঠাটারি বাজারে ওষুধ ব্যবসা করতেন। আমির হোসেনের এক ছেলে ও এক মেয়ে। ছেলে ঢাকা বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে পোস্ট গ্রাজুয়েশন করছে। একমাত্র মেয়েকে হারিয়ে শোকে মুহ্যমান জিনাতের বাবা আমির হোসেন ও মা জেসমিন হোসেন হিরা।

নিউইয়র্ক পুলিশ বলছে, ট্রেন স্টেশনে ছিনতাইকারীরা তার ব্যাগ ছিনিয়ে নেয়ার সময় ছিটকে পড়ে ট্রেনে লাইনে কাটা পড়ে মৃত্যু হয়। তদন্ত চলছে। তদন্ত শেষে লাশ হস্তান্তর ও বিস্তারিত জানা যাবে।

ডা. এনামুল হক বলেন, পুলিশ বলছে ব্রুকলিনে ইউটিকা স্টেশন থেকে জিনাতের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর
 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন