চোরাচালানের কয়লা আটক করায় আনসার সদস্যদের ‘হুমকি’
jugantor
চোরাচালানের কয়লা আটক করায় আনসার সদস্যদের ‘হুমকি’

  যুগান্তর প্রতিবেদন, তাহিরপুর  

১১ আগস্ট ২০২২, ০৩:৫৩:৪৫  |  অনলাইন সংস্করণ

কয়লা

আওয়ামী লীগ নেতার ছেলের চোরাই পথে আসা কয়লার চালান আটকের পর উল্টো বিপাকে পড়েছেন সুনামগঞ্জের তাহিরপুরের টাঙ্গুয়ার হাওড়ের নিরাপত্তার কাজে নিয়োজিত আনসার সদস্যরা।

উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবুল হোসেন খানের ছেলে আবুল বাশার খান নয়ন কয়লাসহ নৌকাটি ছাড়িয়ে নিতে আনসার এপিসিকে মোবাইল ফোনে হুমকি দিয়েছেন বলেও অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বুধবার ভোর সাড়ে ৫টায় বিনা শুল্কে ভারত থেকে চোরাচালানের মাধ্যমে নিয়ে আসা একটি কয়লার চালান নৌকাসহ আটক করে রামসিংহপুর আনসার ক্যাম্পের একটি টহল দল।

টাঙ্গুয়ার হাওড়ের রামসিংহপুর আনসার ক্যাম্পের এপিসি আবু নাসির সাইফুল্লাহ জানান, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আবুল হোসেন খানের ছেলে আবুল বাশার খান নয়ন আমার মোবাইল ফোনে কল করে কয়লার চালানটি ছেড়ে দিতে চাপ সৃষ্টি করেন। এরপর আমাকে গালাগাল করাসহ মারধরের হুমকি দেন। আনসার সদস্যদের দেখে নেওয়ার হুমকি দেন তিনি। বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও তাহিরপুর থানার ওসিকে জানানো হয়েছে।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে আবুল বাশার খান নয়ন জানাযন, আমি আনসার সদস্যকে হুমকি দিইনি, আটককৃত চোরাচালানের কয়লা আমার নয়।

তাহিরপুর থানার ওসি মো. আব্দুল লতিফ তরফদার যুগান্তরকে জানান, বিনা শুল্কে চোরাচালানের মাধ্যমে ভারত থেকে আনা ২ হাজার ৮৪০ কেজি (৮২ বস্তা) কয়লা ও একটি নৌকা জব্দ করা হয়েছে। এ ঘটনায় আবুল বাশার খান নয়নসহ তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

চোরাচালানের কয়লা আটক করায় আনসার সদস্যদের ‘হুমকি’

 যুগান্তর প্রতিবেদন, তাহিরপুর 
১১ আগস্ট ২০২২, ০৩:৫৩ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
কয়লা
ছবি-যুগান্তর

আওয়ামী লীগ নেতার ছেলের চোরাই পথে আসা কয়লার চালান আটকের পর উল্টো বিপাকে পড়েছেন সুনামগঞ্জের তাহিরপুরের টাঙ্গুয়ার হাওড়ের নিরাপত্তার কাজে নিয়োজিত আনসার সদস্যরা।

উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবুল হোসেন খানের ছেলে আবুল বাশার খান নয়ন কয়লাসহ নৌকাটি ছাড়িয়ে নিতে আনসার এপিসিকে মোবাইল ফোনে হুমকি দিয়েছেন বলেও অভিযোগ পাওয়া গেছে। 

বুধবার ভোর সাড়ে ৫টায় বিনা শুল্কে ভারত থেকে চোরাচালানের মাধ্যমে নিয়ে আসা একটি কয়লার চালান নৌকাসহ আটক করে রামসিংহপুর আনসার ক্যাম্পের একটি টহল দল।

টাঙ্গুয়ার হাওড়ের রামসিংহপুর আনসার ক্যাম্পের এপিসি আবু নাসির সাইফুল্লাহ জানান, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আবুল হোসেন খানের ছেলে আবুল বাশার খান নয়ন আমার মোবাইল ফোনে কল করে কয়লার চালানটি ছেড়ে দিতে চাপ সৃষ্টি করেন। এরপর আমাকে গালাগাল করাসহ মারধরের হুমকি দেন। আনসার সদস্যদের দেখে নেওয়ার হুমকি দেন তিনি। বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও তাহিরপুর থানার ওসিকে জানানো হয়েছে।
 
অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে আবুল বাশার খান নয়ন জানাযন, আমি আনসার সদস্যকে হুমকি দিইনি, আটককৃত চোরাচালানের কয়লা আমার নয়। 

তাহিরপুর থানার ওসি মো. আব্দুল লতিফ তরফদার যুগান্তরকে জানান, বিনা শুল্কে চোরাচালানের মাধ্যমে ভারত থেকে আনা ২ হাজার ৮৪০ কেজি (৮২ বস্তা) কয়লা ও একটি নৌকা জব্দ করা হয়েছে। এ ঘটনায় আবুল বাশার খান নয়নসহ তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন