গাছায় সড়কে নারী পোশাক শ্রমিকের মৃত্যু
jugantor
গাছায় সড়কে নারী পোশাক শ্রমিকের মৃত্যু

  গাছা (গাজীপুর) প্রতিনিধি  

০৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৮:৩৫:১০  |  অনলাইন সংস্করণ

গাজীপুর মহানগরীর গাছা মেট্রো থানাধীন ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের বড়বাড়ী এলাকায় একটি কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় লাবনী আক্তার (২৪) নামে এক নারী পোশাক শ্রমিক নিহত হয়েছেন। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শুক্রবার দুপুরে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

নিহত লাবনী আক্তার ময়মনসিংহ জেলার তারাকান্দা থানার শিমুলিয়া গ্রামের নুর আকবরের মেয়ে। তিনি নগরীর দক্ষিণ খাইলকুর এলাকায় ভাড়া বাসায় থেকে বিভিন্ন তৈরি পোশাক কারখানায় সাব-কন্ট্রাক্টে কাজ করতেন।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, লাবনী প্রতিদিনের মতো গার্মেন্টসের কাজ শেষে বৃহস্পতিবার রাত সোয়া ৯টার দিকে টঙ্গীবাজার সেনা কল্যাণের সামনে থেকে ভাড়ায় একটি মোটরসাইকেলের আরোহী হয়ে বাসায় ফিরছিলেন। মোটরসাইকেলটি গাছা রোডের সামনে এসে পৌঁছলে পেছন থেকে গাজীপুরগামী দ্রুতগতির একটি কাভার্ডভ্যান মোটরসাইকেলটি ধাক্কা দেয়। এতে লাবনী মোটরসাইকেল থেকে ছিটকে পড়ে গুরুতর আহত হন।

এলাকার লোকজন আহত লাবনীকে স্থানীয় তায়রুননেছা মেমোরিয়াল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ততক্ষণে কাভার্ডভ্যানটি পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ রাত সাড়ে ১১টায় নিহতের লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

সুরতহাল প্রতিবেদন প্রস্তুতকারী গাছা থানার এসআই রাজীব হাসান বলেন, লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতের ভাই মো. সাদ্দাম হোসেন থানায় এসে তার বোন লাবনীর লাশ শনাক্ত করেছেন এবং অভিযোগও দিয়েছেন। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

গাছায় সড়কে নারী পোশাক শ্রমিকের মৃত্যু

 গাছা (গাজীপুর) প্রতিনিধি 
০৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৬:৩৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

গাজীপুর মহানগরীর গাছা মেট্রো থানাধীন ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের বড়বাড়ী এলাকায় একটি কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় লাবনী আক্তার (২৪) নামে এক নারী পোশাক শ্রমিক নিহত হয়েছেন। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শুক্রবার দুপুরে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

নিহত লাবনী আক্তার ময়মনসিংহ জেলার তারাকান্দা থানার শিমুলিয়া গ্রামের নুর আকবরের মেয়ে। তিনি নগরীর দক্ষিণ খাইলকুর এলাকায় ভাড়া বাসায় থেকে বিভিন্ন তৈরি পোশাক কারখানায় সাব-কন্ট্রাক্টে কাজ করতেন।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, লাবনী প্রতিদিনের মতো গার্মেন্টসের কাজ শেষে বৃহস্পতিবার রাত সোয়া ৯টার দিকে টঙ্গীবাজার সেনা কল্যাণের সামনে থেকে ভাড়ায় একটি মোটরসাইকেলের আরোহী হয়ে বাসায় ফিরছিলেন। মোটরসাইকেলটি গাছা রোডের সামনে এসে পৌঁছলে পেছন থেকে গাজীপুরগামী দ্রুতগতির একটি কাভার্ডভ্যান মোটরসাইকেলটি ধাক্কা দেয়। এতে লাবনী মোটরসাইকেল থেকে ছিটকে পড়ে গুরুতর আহত হন।

এলাকার লোকজন আহত লাবনীকে স্থানীয় তায়রুননেছা মেমোরিয়াল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে  কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ততক্ষণে কাভার্ডভ্যানটি পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ রাত সাড়ে ১১টায় নিহতের লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

সুরতহাল প্রতিবেদন প্রস্তুতকারী গাছা থানার এসআই রাজীব হাসান বলেন, লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতের ভাই মো. সাদ্দাম হোসেন থানায় এসে তার বোন লাবনীর লাশ শনাক্ত করেছেন এবং অভিযোগও দিয়েছেন। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন