নিখোঁজের চার দিন পর সেপটিক ট্যাংকে মিলল মা-ছেলের লাশ
jugantor
নিখোঁজের চার দিন পর সেপটিক ট্যাংকে মিলল মা-ছেলের লাশ

  শেরপুর প্রতিনিধি  

০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২০:১৯:২১  |  অনলাইন সংস্করণ

শেরপুরে নিখোঁজের চার দিন পর মা ও ছেলের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরে শহরের সিংপাড়া ভাড়া বাসার সেপটিক ট্যাংকের ভিতর থেকে তাদের গলিত লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহতরা হলেন- রোকসানা বেগম (৩৫) ও ছেলে রাফিদ মিয়া (১১)। নিহত গৃহবধূর বাবার বাড়ি শহরের খরমপুর টিক্কাপাড়া।

এ ঘটনায় নিহত গৃহবধূর স্বামী মাশরেক মিয়াকে (৩৫) আটক করেছে পুলিশ। মাশরেক শেরপুর সদর উপজেলার ভাতশালা গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে।

এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সদর থানার ওসি বশির আহমেদ বাদল জানান, কিছু দিন ধরে মাশরেক স্ত্রী ও সন্তানকে নিয়ে শেরপুর শহরের সিংপাড়া ভাড়া বাসায় থাকত। এরপর থেকেই তাদের স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহ চলছিল। গত চার দিন আগে রহস্যজনকভাবে নিখোঁজ হয় তার স্ত্রী রোকসানা বেগম ও তার ছেলে রাফিদ মিয়া। পরে গত ৪ ডিসেম্বর এ ব্যাপারে থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন নিহতের পরিবার। বৃহস্পতিবার দুপুরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে সিংপাড়া ভাড়া বাসার সেপটিক ট্যাংকের ভিতর থেকে গলিত মা ও ছেলের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

ওসি আরও বলেন, লাশ উদ্ধারের পরে সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করে শেরপুর জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

নিখোঁজের চার দিন পর সেপটিক ট্যাংকে মিলল মা-ছেলের লাশ

 শেরপুর প্রতিনিধি 
০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ০৮:১৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

শেরপুরে নিখোঁজের চার দিন পর মা ও ছেলের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরে শহরের সিংপাড়া ভাড়া বাসার সেপটিক ট্যাংকের ভিতর থেকে তাদের গলিত লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহতরা হলেন- রোকসানা বেগম (৩৫) ও ছেলে রাফিদ মিয়া (১১)।  নিহত গৃহবধূর বাবার বাড়ি শহরের খরমপুর টিক্কাপাড়া।

এ ঘটনায় নিহত গৃহবধূর স্বামী মাশরেক মিয়াকে (৩৫)  আটক করেছে পুলিশ। মাশরেক শেরপুর সদর উপজেলার ভাতশালা গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে।

এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সদর থানার ওসি বশির আহমেদ বাদল জানান, কিছু দিন ধরে মাশরেক স্ত্রী ও সন্তানকে নিয়ে শেরপুর শহরের সিংপাড়া ভাড়া বাসায় থাকত। এরপর থেকেই তাদের স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহ চলছিল। গত চার দিন আগে রহস্যজনকভাবে নিখোঁজ হয় তার স্ত্রী রোকসানা বেগম ও তার ছেলে রাফিদ মিয়া। পরে গত ৪ ডিসেম্বর এ ব্যাপারে থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন নিহতের পরিবার। বৃহস্পতিবার দুপুরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে সিংপাড়া ভাড়া বাসার সেপটিক ট্যাংকের ভিতর থেকে গলিত মা ও ছেলের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

ওসি আরও বলেন, লাশ উদ্ধারের পরে সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করে শেরপুর জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন