এক রশিতে ঝুলছিলেন মা-শিশুসন্তান

 হোমনা (কুমিল্লা) প্রতিনিধি 
০৮ জুন ২০২৩, ০৭:১২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কুমিল্লার হোমনায় একই রশিতে মা ও ছেলের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার হোমনা পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ডের ফকির বাড়ি থেকে তাদের লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহতরা হলেন- ফকিরপাড়া এলাকার জজ মিয়ার ছেলে বাবুর স্ত্রী সাজিদা আক্তার (২০) ও ছেলে মো. আব্দুল্লাহ (২)।

থানা সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সকালে ফকির বাড়িতে মা ও ছেলের মরদেহ ঝুলতে দেখে পুলিশকে সংবাদ দেন স্থানীয়রা। পরে ঘটনাস্থলে গিয়ে রশি থেকে মা ও ছেলের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

হোমনা থানার এসআই প্রতুল দাস লাশের সুরতহাল রিপোর্ট করেছেন। তিনি জানান, এই মৃত্যুর কারণ জানা যায়নি। তবে তার শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। আপাতদৃষ্টিতে এটি আত্মহত্যা বলেই মনে হচ্ছে। এ ঘটনায় নিহত গৃহবধূর স্বামী বাবুকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় আনা হয়েছে। লাশগুলো ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সরেজমিন আশপাশের লোকজন জানান, তাদের প্রেমের বিয়ে। নিহত সানজিদা আক্তার হলো বাবুর বেয়াইন। তাদের মধ্যে প্রায়ই কলহ হতো। বৃহস্পতিবার সকালে বাজার করে দিয়ে বাবু দোকানে যান। বাবুর মা নাতির জন্য দুধ আনতে যান এবং বাবা কাজে যান। এই ফাঁকে সানজিদা গলায় ফাঁস দেন। পরে খবর পেয়ে ঘরের দরজা ভেঙে তাদের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।  

এদিকে নিহত সানজিদার পিতা মো. রনি মিয়া বলেন, আমার মেয়ে আত্মহত্যা করেনি। তাকে হত্যা করা হয়েছে।

হোমনা থানার ওসি মো. সাইফুল ইসলাম জানান, কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট আসার পর মৃত্যুর আসল ঘটনা জানা যাবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন