চাঁদপুরে নুরু কন্ট্রাক্টর হত্যা: খুনিরা গ্রেফতার না হওয়ায় আতঙ্কে স্বজনরা

  চাঁদপুর প্রতিনিধি ১৭ জুলাই ২০১৮, ১৬:০২ | অনলাইন সংস্করণ

নুরু কন্ট্রাক্টর
ছবি: সংগৃহীত

চাঁদপুরের হাইমচরের ঠিকাদার নুরুল ইসলাম গাজী ওরফে নুরু কন্ট্রাক্টরকে হত্যার ঘটনায় এক মাস পেরিয়ে গেলেও অভিযুক্তরা গ্রেফতার হননি।

এ কারণে তার স্বজনরা আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। তবে পুলিশ জানিয়েছে, হত্যা মামলার আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

গত ৬ জুন তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট পারিবারিক কলহে প্রতিপক্ষরা দল বেধে কুপিয়ে জখম করে নুরু কন্ট্রাক্টরকে।

এর চারদিন পর ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাইমচরের প্রথম শ্রেণির এ ঠিকাদার মারা যান।

জানা গেছে, ৬ জুন বেলা ১১টায় উপজেলার আলগী উত্তর ইউনিয়নের মহজমপুর গ্রামে নূরুল ইসলাম গাজীর (নূরু কন্ট্রাক্টর) বাড়িতে একই বংশের ফারুক গাজী পরিবারের সঙ্গে তাল গাছের তালের শাস বিক্রিকে কেন্দ্র করে উভয় পরিবারের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়।

একপর্যায়ে ফারুক গাজী, সোহাগ গাজী, সুমন গাজী, মানিক গাজী, সিরাজ গাজী ও আবুল বাশার গাজী দা ছুরি ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে নুরুল ইসলাম গাজীর ঘরে হামলা করে।

ওই সময় তাকে উপর্যুপরি কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করা হয়। পরে নুরুর ছেলে সুজন গাজী তাকে উদ্ধার করে প্রথমে হাইমচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান।

সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাকে জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। পরে ওইদিনই আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। চারদিন পর সেখানে তিনি মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।

নুরু কন্ট্রাক্টরকে হত্যার ঘটনায় সুজন গাজী বাদী হয়ে হাইমচর থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

মামলায় ফারুক গাজী, সোহাগ গাজী, সুমন গাজী, মানিক গাজী, আবুল বাশার, আমেনা বেগম, পারভীন আক্তার ও সিরাজ গাজীকে আসামি করা হয়েছে।

গত এক মাসেও এসব আসামির কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। এ কারণে নুরু কন্ট্রাক্টরের স্বজনরা আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন।

মামলার বাদী সুজন গাজী অভিযোগ করে বলেন, দীর্ঘ এক মাসেরও বেশি সময় পার হয়ে গেলেও আমার বাবার খুনিরা গ্রেফতার হননি। এ কারণে আমাদের পুরো পরিবার আতঙ্কে রয়েছে।

এ বিষয়ে হাইমচর থানার ওসি রঞ্জিত রায় বলেন, আসামিদের গ্রেফতারে আমাদের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×