বুলবুলের পুরনো ছবি দেখিয়ে প্রচারণায় আ’লীগের প্রতিবাদ

  রাজশাহী ব্যুরো ২৬ জুলাই ২০১৮, ২০:৫৮ | অনলাইন সংস্করণ

বুলবুলের পুরনো ছবি দেখিয়ে প্রচারণায় আ’লীগের প্রতিবাদ
বিএনপির মেয়রপ্রার্থী বুলবুলের পুরনো ছবি দেখিয়ে প্রচারণার প্রতিবাদে আওয়ামী লীগের সংবাদ সম্মেলন। ছবি: যুগান্তর

সরকারবিরোধী আন্দোলন করতে গিয়ে পুলিশের শর্টগানের গুলিতে আহত হয়েছিলেন আসন্ন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের মেয়রপ্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল। ২০১৩ সালের সেই ছবি এত দিন পর আবার ভেসে উঠেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে।

বৃহস্পতিবার রাজশাহীর বিভিন্ন ফেসবুক আইডিতে পোস্ট করে বলা হয়েছে, সকালে পুলিশের গুলিতে আহত হয়েছেন বিএনপির মেয়রপ্রার্থী বুলবুল। তবে এই অপপ্রচারের প্রতিবাদ জানিয়েছে আওয়ামী লীগ।

রাজশাহী সিটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য ও দলের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য এসএম কামাল হোসেন সন্ধ্যা ৬টায় সংবাদ সম্মেলন করে এর প্রতিবাদ জানান।

এসএম কামাল সংবাদ সম্মেলনে বদিউজ্জামান সাহেদ নামে এক ব্যক্তির ফেসবুক আইডি থেকে বুলবুলের ওই পোস্ট বের করে সাংবাদিকদের দেখান।

বদিউজ্জামানের ওই পোস্টে বুলবুলের ছবির সঙ্গে লেখা হয়, ‘দলীয় সরকারের অধীনে জাতীয় নির্বাচন সুষ্ঠু করার প্রহসনের প্রতিশ্রুতির নমুনা। রাজশাহী সিটি নির্বাচনে বিএনপির মেয়রপ্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল ভাইয়ের পায়ে গুলি করেছে পুলিশ।’

তবে উপস্থিত সাংবাদিকরা নিশ্চিত করেন বুলবুলের আহত অবস্থায় শুয়ে থাকার ওই ছবিটি পুরনো। ২০১৩ সালে ২৭ নভেম্বর রাজশাহী কলেজের সামনে হরতাল এবং অবরোধের সমর্থনে মিছিল বের করেন ১৮ দলের নেতাকর্মীরা।

এ সময় পুলিশ তাদের সরিয়ে দিতে চাইলে অবরোধকারীরা ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। জবাবে পুলিশ শর্টগানের গুলি ছোড়ে। এতে আহত হয়েছিলেন তৎকালীন সিটি মেয়র মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল।

বুলবুলের সেই পুরনো ছবি পোস্ট করে বিএনপি ভিন্ন কায়দায় ভোটারদের সহানুভূতি অর্জনের চেষ্টা করছে উল্লেখ করে আওয়ামী লীগ নেতা কামাল বলেন, কয়েক দিন আগেই তারা নিজেরাই নিজেদের পথসভায় বোমা হামলা করল। এভাবে তারা ভোটারের সহানুভূতি পাওয়ার চেষ্টা করেছে। কিন্তু আসল ঘটনা ফাঁস হয়ে যাওয়ায় তারা এখন মিথ্যা ছবি পোস্ট করে ভোটারদের নিজেদের পক্ষে আনার চেষ্টা করছে।

কামাল অভিযোগ করেন, সিটি নির্বাচনে ধানের শীষকে বিজয়ী করতে বিএনপি রাজশাহী শহরে ১০ কোটি টাকা এনেছে। বিভিন্ন বস্তিতে বস্তিতে সেই টাকা ছড়ানো হচ্ছে। বুধবার রাতে একটি মাইক্রোবাসে করে আরও এক কোটি টাকা এসেছে। এই টাকার খবর পেয়েছিলেন মহানগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাজিব হোসেন। তিনি ওই মাইক্রোবাসটিকে অনুসরণ করে থামানোর চেষ্টা করেছিলেন। মাইক্রোবাস তাকে আঘাত করে পালিয়েছে।

নির্বাচনে পরাজয় নিশ্চিত জেনে যত ধরনের অপচেষ্টা করা যায়, তার সবই বিএনপি করছে বলেও অভিযোগ করেন কামাল হোসেন।

মহানগর আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এতে মহানগর আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মুক্তিযোদ্ধা নওশের আলী, সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নাইমুল হুদা রানা, সাংগঠনিক সম্পাদক আসলাম সরকার, দলের কেন্দ্রীয় উপকমিটির সহসম্পাদক তাজমহল হীরক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ঘটনাপ্রবাহ : রাজশাহী-বরিশাল-সিলেট সিটি নির্বাচন ২০১৮

 

 

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter