রাজশাহীর মেয়রপ্রার্থীরা কখন ও কোথায় ভোট দেবেন

  রাজশাহী ব্যুরো ২৯ জুলাই ২০১৮, ২০:৫৯ | অনলাইন সংস্করণ

রাজশাহী সিটি করপোরেশন নির্বাচন

রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক) নির্বাচনে মেয়র পদে পাঁচ প্রার্থী লড়াইয়ে রয়েছেন। মেয়র প্রার্থীদের সবাই সোমবার সকাল ৮টা থেকে সাড়ে ৮টার মধ্যে নিজ নিজ কেন্দ্রে ভোট দেয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন।

রাসিকের মেয়র প্রর্থীরা হলেন আওয়ামী লীগ মনোনীত এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন, বিএনপির মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের শফিকুল ইসলাম, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির হাবিবুর রহমান এবং গণসংহতি আন্দোলনের অ্যাডভোকেট মুরাদ মোর্শেদ।

এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন নগরীর ১৪ নম্বর ওয়ার্ডের উপশহর স্যাটেলাইট হাইস্কুল কেন্দ্রে ভোট দেবেন। তিনি যুগান্তরকে বলেন, আমি সকাল ৮টায় স্যাটেলাইট হাইস্কুল কেন্দ্রে ভোট দেব। সকালের মধ্যেই ভোট দেয়ার কাজটি শেষ করে ফেলতে চাই। আশা করছি, নির্বাচনের পরিবেশ সুষ্ঠু ও স্বাভাবিক থাকবে। ভোটাররা উৎসবমুখর পরিবেশে স্ফতঃস্ফূর্তভাবে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।

বিএনপি মনোনীত ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলও একই কেন্দ্রে ভোট দেবেন। রাজনীতিতে প্রতিদ্বন্দ্বী লিটন ও বুলবুল নগরীর উপশহরের একই মহল্লায় বসবাস করেন। এই দুই নেতার একে অপরের বাড়ির দূরত্ব মাত্র ৫০ গজ।

ভোট প্রদানের ব্যাপারে মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলের সঙ্গে মোবাইলফোনে যোগাযোগ করা হয়, কিন্তু তিনি ফোন ধরেননি।

তবে এ ব্যাপারে ধানের শীষ প্রতীকের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য সচিব এবং রাজশাহী মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট শফিকুল হক মিলন বলেন, সকাল ৮টা থেকে সাড়ে ৮টার মধ্যে বুলবুল উপশহর স্যাটেলাইট হাইস্কুল কেন্দ্রে ভোট দেবেন।

গণসংহতি আন্দোলনের মেয়রপ্রার্থী হাতি প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী অ্যাডভোকেট মুরাদ মোর্শেদ সকাল ৮টায় নগরীর ১৪ নম্বর ওয়ার্ডের তেরখাদিয়া বিভাগীয় স্টেডিয়াম কেন্দ্রে ভোট দেবেন। রোববার বিকালে এক ক্ষুদে বার্তায় (এসএমএস) তিনি বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মেয়রপ্রার্থী হাতপাথা প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী শফিকুল ইসলাম সকাল ৮টায় নগরীর ১৯ নম্বর ওয়ার্ডের ছোট বনগ্রাম প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোট দেবেন।

বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির মেয়রপ্রার্থী কাঠাল প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী হাবিবুর রহমানের কাছে এ বিষয়ে জানার জন্য বেশ কয়েকবার ফোনে যোগাযোগ করা হয়। কিন্তু তিনি ফোন রিসিভ না করায় বিষযটি সম্পর্কে জানা যায়নি।

কেন্দ্রে কেন্দ্রে পৌঁছে গেছে সামগ্রী

রাত পোহালেই রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক) নির্বাচন। এ নির্বাচনে ৩০টি ওয়ার্ডের ১৩৮ ভোটকেন্দ্রে সকাল ৮টায় শুরু হবে ভোটগ্রহণ। চলবে একটানা বিকাল ৪টা পর্যন্ত।

রোববার বেলা ১১টার পর থেকে নির্বাচন সামগ্রী বিতরণ শুরু করেছে নির্বাচন কমিশন। নগরীর গভ. ল্যাবরেটরি হাইস্কুল থেকে বিতরণ করা হয় নির্বাচন সামগ্রী। প্রত্যেক কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসারদের এসব ব্যালট, স্বচ্ছ ব্যালটবাক্স, অমোচনীয় কালিসহ প্রয়োজনীয় উপকরণ বুঝিয়ে দিয়েছেন নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা সৈয়দ আমিরুল ইসলাম।

তিনি বলেন, সন্ধ্যার মধ্যেই সব ধরনের নির্বাচন সামগ্রী কেন্দ্রে কেন্দ্রে পৌঁছে গেছে। পুলিশ ও আনসার সদস্যরাও কেন্দ্রে অবস্থান করছেন। নির্বাচনী পরিবেশ সুষ্ঠু রাখতে টহল দিচ্ছেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।

নির্বাচনের সহকারী রিটার্নিং কর্মকতা আতিয়ার রহমান জানান, নির্বাচনে ৫ মেয়র, ১৬০ কাউন্সিলর এবং ৫২ সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর প্রার্থী অংশ নিচ্ছেন। মোট ভোটার তিন লাখ ১৮ হাজার ১৩৮ জন। এদের মধ্যে এক লাখ ৬২ হাজার ৫৩ জন নারী এবং এক লাখ ৫৬ হাজার ৮৫ জন পুরুষ ভোটার।

১৩৮টি ভোট কেন্দ্রের এক হাজার ২০টি বুথে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। প্রতিটি কেন্দ্রে একজন করে প্রিজাইডিং অফিসার দায়িত্ব পালন করবেন। এছাড়া প্রতিটি বুথে একজন করে সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার এবং দুইজন করে পোলিং অফিসার দায়িত্ব পালন করবেন।

ঘটনাপ্রবাহ : রাজশাহী-বরিশাল-সিলেট সিটি নির্বাচন ২০১৮

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter