ময়মনসিংহে যুবলীগ নেতাকে গুলি-কুপিয়ে হত্যা

  ময়মনসিংহ ব্যুরো ৩১ জুলাই ২০১৮, ১৮:১৮ | অনলাইন সংস্করণ

নিহত আজাদ শেখ

ময়মনসিংহ শহরের আকুয়া এলাকায় যুবলীগের আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মহানগর যুবলীগের সদস্য সাজ্জাদ আলম শেখ আজাদ ওরফে আজাদ শেখকে (৪০) গুলি ও কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষরা।

মঙ্গলবার বিকাল ৩টার দিকে শহরের আকুয়া হাবুন বেপারির মোড়সংলগ্ন এলাকায় এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

এর আগে বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া, ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও গুলিবিনিময় শুরু হয়। এ ঘটনায় চারজনকে আটক করা হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, ময়মনসিংহ শহরের আকুয়া এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মহানগর যুবলীগের সদস্য সাজ্জাদ আলম শেখ আজাদ ও যুবলীগ সদস্য শেখ ফরিদের সমর্থকদের মধ্যে প্রায় দুই মাস ধরে সংঘর্ষ, গুলিবিনিময়, ককটেল বিস্ফোরণ ও ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটছে। মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে আকুয়া হাবুন বেপারি মোড়সংলগ্ন আজাদ শেখের বাড়ির এলাকায় আজাদ বাহিনীর সঙ্গে যুবলীগের সদস্য শেখ ফরিদের সমর্থকদের সংঘর্ষ শুরু হয়।

দুপক্ষের ৩০-৪০ জন সমর্থক দেশীয় ও আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে পরস্পরের বিরুদ্ধে সশস্ত্র সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। এ সময় দুপক্ষের মধ্যে গুলিবর্ষণ, ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনায় গোটা এলাকা প্রকম্পিত হয়ে উঠে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে অবস্থান নিলেও পুলিশের সামনেই দুপক্ষ গোলাগুলি করতে থাকে।

বিকাল ৩টার দিকে প্রতিপক্ষরা আজাদ শেখকে বাসার কাছে গুলি ও কুপিয়ে আহত করে। পরিবারের সদস্যরা গুরুতর জখম অবস্থায় আজাদ শেখকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এদিকে ঘটনার পর আকুয়া ফিরোজ লাইব্রেরি মোড় এলাকায় বাসার সামনে রাখা প্রথম আলোর সাংবাদিক কামরান পারভেজের মোটরসাইকেল ভাঙচুর করে দুর্বৃত্তরা।

বিকাল ৫টার দিকে আজাদ শেখের সমর্থকরা আকুয়ার বিভিন্ন এলাকায় মহড়া দেয় এবং আকুয়া হাবুন বেপারির মোড়সংলগ্ন শেখ ফরিদের আত্মীয়ের এক বেকারিতে অগ্নিসংযোগ করে। একই সময়ে চরপাড়ায় হাসপাতালের সামনে রাস্তায় যুবলীগ কর্মীরা বিক্ষোভ প্রদর্শনকালে দুটি বাসে অগ্নিসংযোগ ও কয়েকটি ইজিবাইক ভাঙচুর করে।

ময়মনসিংহের পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। পরে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, কিছুদিন ধরে প্রায় প্রতিদিনই দুপক্ষের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটছে। বিভিন্ন সময়ে প্রতিপক্ষের হামলায় কয়েকজন আহত হয়। আজাদ শেখ হত্যার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে চারজনকে আটক করা হয়েছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter