রংপুরে এক বছর পর চিকিৎসক রিয়াজ হত্যা মামলার আসামি গ্রেফতার

  রংপুর ব্যুরো ১৩ আগস্ট ২০১৮, ২১:৫৮ | অনলাইন সংস্করণ

গ্রেফতার

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার সাবেক প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. রিয়াজ উদ্দিন আহম্মেদ (৫০) হত্যা মামলার আসামি সাজু মিয়াকে (৪০) গ্রেফতার করেছে পুলিশ ইনভেস্টিগেশন অব ব্যুরো (পিবিআই)।

হত্যাকাণ্ডের পর থেকে এক বছর পালিয়ে থাকার পর তাকে সোমবার গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলা এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত সাজু মিয়া গাইবান্ধা জেলার সুন্দরগঞ্জ থানার উত্তর রাজিবপুর গ্রামের বাসিন্দা মো. রফিকুল ইসলাম নয়া মিয়ার ছেলে।

ওই দিন অজ্ঞানপার্টির সদস্য সাজু মিয়াসহ তার সহযোগীরা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. রিয়াজ উদ্দিন আহম্মেদের (৫০) শরীরে হত্যার উদ্দেশ্যে চেতনানাশক বিষ প্রয়োগ করে। পরে তার কাছে রক্ষিত ৪০ হাজার টাকা ও মোবাইল ফোন নিয়ে চলে যায়।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত বছরের ৩ নভেম্বর অফিসের প্রয়োজনীয় কাজ সেরে দুপুর ১২টার দিকে গোবিন্দগঞ্জ বাসস্ট্যান্ড হতে নিশিতা নামক রাজশাহী থেকে ছেড়ে আসা রংপুরগামী বাসে ওঠেন ডা. রিয়াজ উদ্দিন আহম্মেদ। আসামিরা তাকে অনুসরণ করে ওই বাসে ওঠে এবং বাসের মধ্যে তাকে অজ্ঞান করে। তারপর প্যান্টের পকেটে রক্ষিত প্রায় ৪০ হাজার টাকা ও ব্যবহৃত স্যামসাং মোবাইল সেট নিয়ে চলে যায়।

বাসটি মিঠাপুকুর বাসস্ট্যান্ডে এসে পৌঁছলে আসামিরা সেখানে বাস থেকে নেমে চলে যায়। পরে তারা সবাই টাকা ভাগ করে নেয়। এদিকে বাসটি দুপুর আড়াইটার দিকে রংপুর বাস টার্মিনালে পৌঁছে। এ সময় বাসের লোকজন ডা. রিয়াজ উদ্দিন আহম্মেদ অজ্ঞান অবস্থায় সিটে পড়ে থাকতে দেখলে তাকে চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ওই দিন রাত ১০টার দিকে তিনি মারা যান।

ওই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় রংপুর কোতোয়ালি থানায় প্রথমে একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়। পরবর্তীতে নিহতের স্ত্রী বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা আসামিদের বিরুদ্ধে রংপুর কোতোয়ালি থানায় এজাহার দায়ের করেন। মামলাটি থানা পুলিশ প্রথমে তদন্ত করলে কোনো কূলকিনারা করতে পারেনি।

পিবিআই রংপুর জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. শহিদুল্লাহ কাওছার জানান, পরবর্তীতে পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সের নির্দেশে পিবিআই রংপুর জেলা তদন্ত করে। তদন্তে খুনের রহস্য উদঘাটন হয়। কিছুদিন আগে ওই খুনের সঙ্গে জড়িত দুজনকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে পাঠায় পুলিশ। তার জবানবন্দির সূত্র ধরে সাজু মিয়াকে গ্রেফতার করে পিবিআই।

তিনি জানান, অভিযুক্ত আসামিরা মলম পার্টি, অজ্ঞান পার্টি ও জিনের বাদশা সেজে বিভিন্ন অপকর্ম করে থাকে। তারা বিভিন্ন মানুষকে নকল স্বর্ণ দেখিয়ে অর্থ হাতিয়ে নেয় বলে অভিযোগ আছে।

 

 

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter