বড়লেখায় বালক বরের বালিকা বধূকে ফেরত পাঠাল প্রশাসন!

  বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি ১৪ আগস্ট ২০১৮, ১৮:৫৮ | অনলাইন সংস্করণ

বাল্যবিয়ে

মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার দাসেরবাজার ইউপির পানিশাইল গ্রামের আশু বিশ্বাসের দ্বিতীয় ছেলে রিংকু বিশ্বাসের (১৮) সঙ্গে বিয়ানীবাজারের দক্ষিণ দুবাগ গ্রামের শৈলেন্দ্র বিশ্বাসের কিশোরী মেয়ে (১৪) মাম্পী রানী বিশ্বাসের বিয়ে বন্ধ করে দেয় বিয়ানীবাজার উপজেলা প্রশাসন।

গত ১২ জুলাই প্রশাসন বিয়ে বন্ধ করে দিলেও মাত্র এক মাসের মাথায় ১২ আগস্ট বালিকা বধূকে বড়লেখায় বালক বরের বাড়িতে পাঠিয়ে দেয়া হয়। অবশেষে বড়লেখা উপজেলা প্রশাসন মঙ্গলবার বর ও কনে পক্ষের কাছ থেকে মুচলেকা আদায় করে বালিকা বধূকে পিত্রালয়ে ফেরত পাঠিয়ে দিয়েছে।

বড়লেখা ইউএনও মোহাম্মদ সোহেল মাহমুদ জানান, মাত্র ১ মাস আগে বিয়ানীবাজার উপজেলা প্রশাসনের বন্ধ করে দেয়া বাল্যবিয়ের অপ্রাপ্তবয়স্ক বধূ বড়লেখায় বরের বাড়িতে অবস্থানের খবর পেয়ে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নিতে তিনি সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোহাম্মদ শরীফ উদ্দিন ও উপজেলা মহিলাবিষয়ক অধিদফতরের কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেন।

তিনি জানান, সংশ্লিষ্টরা ঘটনার সত্যতা পেয়ে স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বার কৌশিক বিশ্বাস ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য দিবান্তি রানী দাসের উপস্থিতিতে মঙ্গলবার বর ও কনেপক্ষের কাছ থেকে মুচলেকা আদায় করে বালিকা বধূকে বিয়ানীবাজার পিত্রালয়ে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

 

 

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.