পুলিশ পেটানো মামলায় আ’লীগের ৪৬ নেতাকর্মী কারাগারে

  গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি ২৯ আগস্ট ২০১৮, ২০:১৬ | অনলাইন সংস্করণ

পুলিশ পিটিয়ে আ’লীগের ৪৬ নেতাকর্মী কারাগারে
জামিন শুনানির আগে আদালতের সামনে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা। ছবি: যুগান্তর

পুলিশ পেটানোসহ সরকারি কাজে বাধা দেয়ার মামলায় নাটোরের গুরুদাসপুরে আওয়ামী লীগের ৪৬ নেতাকর্মীকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

বুধবার নাটোরের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে (গুরুদাসপুর) হাজির হয়ে জামিন আবেদন করেন গুরুদাসপুর উপজেলা ও পৌর আওয়ামী লীগের ৪৬ নেতাকর্মী।

শুনানি শেষে আদালতের বিচারক মো. মমিনুল ইসলাম তাদের আবেদন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

কারাগারে পাঠানো ৪৬ নেতাকর্মীদের মধ্যে রয়েছেন- গুরুদাসপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আলহাজ আব্দুল বারী, সাংগঠনিক সম্পাদক ইমরান শাহ, পৌর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আব্দুস সালাম মোল্লা, জেলা পরিষদ সদস্য মেহেদী হাসান, পৌর যুবলীগের সভাপতি তাহের সোনার, সাধারণ সম্পাদক ও প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কামরুজ্জামান মিলন, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি স.ম সেলিম, পৌর সেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি স্বাধীন মাহামুদ, উপজেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি মাসুদ সরকার।

আদালত ও সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, গত বছরের ১১ মে উপজেলা পরিষদে মাসিক সমন্বয় সভার দিন ঠিক ছিল। সভায় বিশৃঙ্খলা হতে পারে এমন সতর্কবার্তা পেয়ে সেখানে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রাখা হয়।

ওই সভায় নাটোর-৪ (গুরুদাসপুর-বড়াইগ্রাম) আসনের সংসদ সদস্য অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুসসহ দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছানোর পর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র শাহনেওয়াজ আলী এবং তার সমর্থকরা প্রায় দুই শতাধিক মোটরসাইকেল নিয়ে উপজেলা চত্বরে এসে শোডাউন দিতে থাকে।

এ সময় পুলিশের সঙ্গে তাদের ধস্তাধস্তির ঘটনা ঘটে। পরে পুলিশ লাঠিচার্জসহ ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

ওই দিন মেয়রসহ অন্তত ১০ জন আহত হন। এ ঘটনায় গুরুদাসপুর থানার তৎকালীন এসআই সাইদুজ্জামান বাদী হয়ে মেয়র শাহনেওয়াজ মোল্লাসহ আওয়ামী লীগের ৬৬ নেতাকর্মীকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

ওই ঘটনায় আদালত মেয়রসহ ৬ নেতাকর্মীদের জামিনের মেয়াদ বৃদ্ধি করেন। এছাড়া আদালতে হাজির না হওয়ায় আরও ১৪ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়।

গুরুদাসপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র শাহনেওয়াজ আলী দাবি করেন, ওই মামলা মিথ্যা ও হয়রানিমূলক। তিনিসহ সবাই হাইকোর্ট থেকে জামিন নিয়েছেন। ইতিপূর্বে হাইকোর্টের নির্দেশনা অনুযায়ী কয়েকজন নিম্ন আদালতে হাজিরা দিয়ে জামিন নিয়েছেন।

গুরুদাসপুর আদালতের (নাটোর) জিআরও পুলিশ পরিদর্শক শফিকুল ইসলাম জানান, হাইকোর্টের জামিনের মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ায় বুধবার ৪৬ জনের আবেদন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter