পল্লীচিকিৎসক রবীন্দ্রনাথ বিশ্বাস চোখ ফিরে চান

প্রকাশ : ০২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২০:১০ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর ডেস্ক

পল্লীচিকিৎসক রবীন্দ্রনাথ বিশ্বাস। ছবি: যুগান্তর

মাগুরা জেলার মহম্মদপুর উপজেলার নহাটার পরিচিত মুখ পল্লীচিকিৎসক রবীন্দ্রনাথ বিশ্বাস। যিনি জীবনের গুরুত্বপুর্ণ সময়ে মানুষের পাশে থেকে চিকিৎসা সেবা প্রদান করেছেন। রোগাক্রান্ত অনেক মানুষের সুস্থ হওয়ার পেছনে যিনি নিরলসভাবে কাজ করেছেন।

জীবনের কঠিন বাস্তবতায় আজ তিনি নিজেই স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে মহা মূল্যবান একটি চোখ হারিয়েছেন। অন্য চোখটিও অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ। চিকিৎসা কাজে নিজের সহায় সম্বল বিক্রি করে আজ তিনি একেবারে নিঃস্ব।

তাঁর বাকী জীবনটুকু স্বাভাবিকভাবে চলার জন্য চিকিৎসা বাবদ বেশ কিছু অর্থের প্রয়োজন বলে কিছুদিন আগে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে জানিয়েছিলেন একটি ব্যাংকের অফিসার শাহজাহান মিয়া। 

২৮ আগস্ট তার স্ট্যাটাস দেখে দেশ-বিদেশ থেকে অনেকেই সহায়তার হাত বাড়িয়েছেন বলে জানিয়েছেন শাহজাহান মিয়া। 

এ ব্যাপারে তিনি বলেন, রবীন্দ্রনাথ বিশ্বাসের চিকিৎসা সহায়তা চেয়ে যে মানবিক সাহায্যের আবেদন জানিয়েছিলাম; সে আবেদনে দেশে এবং প্রবাসে অবস্থিত অসংখ্য মানুষ সাড়া প্রদান করেছেন। 

অনেকে বিষয়টিকে হাইলাইট করে নতুনভাবে মাত্রা প্রদান করেছেন। তাদের মধ্যে অন্যতম হলেন সুইডেন প্রবাসী রহমান মৃধা। রহমান মৃধার প্রচারণা এবং ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় যারা নগদ অর্থ সহায়তার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তাদের প্রতি তিনি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন।

শাহজাহান বলছেন, রবীন্দ্রনাথ বিশ্বাসের চিকিৎসা সহায়তার জন্য যে অর্থ আপনারা প্রদান করেছেন বা করবেন বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, তাঁদের সকলকে বিনীতভাবে জানাতে চাই, হয়ত এ অর্থে তাঁর মোটামুটি চিকিৎসা সম্ভব, তবে তার আগের পেশায় ফিরে যাওয়ার জন্য বাকী টাকা তার চেম্বার বা সাংসারিক খরচ মেটানোর জন্য হস্তান্তর করা হবে।

রবীন্দ্রনাথ বিশ্বাস বলেন, আমার একটি চোখ ফিরে চাই। আবারও মানুষের সেবা করতে চাই। যারা আমাকে সাহায্য করার জন্য হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশের ভাষা নেই।