হাসপাতালের বিল পরিশোধ করতে না পারায় নবজাতককে রেখে পালিয়ে গেলেন পিতা

  চাঁদপুর প্রতিনিধি ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০৫ | অনলাইন সংস্করণ

পুত্র সন্তানকে ফিরে পেতে মা রোকেয়া বেগমের আহাজারি
পুত্র সন্তানকে ফিরে পেতে মা রোকেয়া বেগমের আহাজারি। ছবি: যুগান্তর

হাসপাতালের বিল পরিশোধ করতে না পেরে নবজাতককে রেখে পালিয়ে গেছেন এক হতভাগ্য পিতা।

গত ২৪ আগস্ট কুমিল্লা মা ও শিশু স্পেশালাইজড হাসপাতাল থেকে মাত্র ছয় দিনের পুত্রসন্তানকে রেখেই হাজীগঞ্জে পালিয়ে আসেন শাহআলম নামের এক ব্যক্তি। শাহআলমের বাড়ি চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ উপজেলার ফুলছোঁয়া গ্রামে।

মঙ্গলবার শাহআলমের বাড়িতে যুগান্তর প্রতিনিধি গেলে তার পরিবার জানায়, গত ১৮ আগস্ট হাজীগঞ্জ মধ্যবাজরের শাহ মিরান হাসপাতালে সিজারের মাধ্যমে এক পুত্র সন্তানের জন্ম দেন শাহআলমের স্ত্রী রোকেয়া বেগম।

মাত্র ৭০০ গ্রাম ওজনের অপরিণত নবজাতককে বাঁচাতে দ্রুত কুমিল্লা মা ও শিশু স্পেশালাইজড হসপিটালে নিয়ে ভর্তি করানো হয়।

সেখানে ছয় দিন শিশুটিকে নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে (এনআইসিইউ) রাখা হলে শিশুটির জন্য চিকিৎসা খরচ গিয়ে দাড়ায় প্রায় দুই লাখ টাকা।

দরিদ্র শাহআলমের পক্ষে এ অর্থ পরিশোধ করতে না পেরে কাউকে কিছু না জানিয়েই নবজাতককে হাসপাতালের বেডে রেখে পালিয়ে যান।

এদিকে পুত্র সন্তানকে বুকে ফিরে পেতে আহাজারি থামছেই না মা রোকেয়া বেগমের।

এর আগে আরও দুই সন্তানকে হারিয়েছেন জানিয়ে কান্নারত রোকেয়া বলেন, আমার মানিকেরে টাকার লাইগা হাসপাতালে রাইখা আইছি। কেউ আমার হোলাডারে সুস্থ কইরা আমার বুকে ফিরাইয়া দেন।

এ ঘটনায় হাজীগঞ্জ উপজেলার ২ নং বাকিলা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মাহফুজুর রহমান ইউসুফ পাটওয়ারী জানান, স্থানীয়ভাবে কিছু টাকা সংগ্রহ করে শিশুটিকে তার মায়ের কাছে ফিরিয়ে দেয়ার চেষ্টা চলছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter