আদালতে স্বীকারোক্তি দেয়নি যুবলীগ নেতার সেই ছেলে

  বগুড়া ব্যুরো ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৮:২০ | অনলাইন সংস্করণ

আদালতে স্বীকারোক্তি দেয়নি যুবলীগ নেতার সেই ছেলে
বগুড়া শহর যুবলীগ সভাপতির ছেলে কাওসার আলম অভি। ছবি: সংগৃহীত

কলেজছাত্রীকে তুলে নিয়ে মারপিট ও ছুরিকাঘাতের কথা দুদিন আগে রিমান্ডে পুলিশের কাছে স্বীকার করলেও আদালতে স্বীকারোক্তি দেয়নি বগুড়া শহর যুবলীগ সভাপতির ছেলে কাওসার আলম অভি (২২)।

বুধবার দুপুরে তাকে আদালতে হাজির করার পর স্বীকারোক্তি না দিলে অভিকে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শ্যামসুন্দর রায়।

সূত্র জানায়, অভি বগুড়া শহর যুবলীগের সভাপতি মাহফুজুল আলম জয়ের দ্বিতীয় স্ত্রীর সন্তান। মাদকাসক্ত বাবা ও প্রভাবশালী পরিবারের প্রশ্রয়েই সে বখে যায়।

বগুড়া শহরতলির সরকারি মুজিবুর রহমান মহিলা কলেজে একাদশ শ্রেণিতে পড়েন নির্যাতিতা ওই ছাত্রী। লেখাপড়ার পাশাপাশি শহরের বাদুড়তলায় একটি বিউটি পার্লারে কাজ শেখেন তিনি।

কলেজ ও পার্লারে যাতায়াতের পথে অভি তাকে উত্ত্যক্ত করে আসছে। প্রেমের প্রস্তাবে সাড়া না পেয়ে অভি ও তার তিন সহযোগী গত ৩০ আগস্ট বিকালে বাদুড়তলায় পার্লার থেকে ওই ছাত্রীকে ধরে কাটনারপাড়ার একটি বাড়িতে আনে।

সেখানে আবারো প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলে অভি ক্ষিপ্ত হয়ে ছাত্রীর উরু ও হাতে ছুরিকাঘাত করে। এরপর হুমকি দিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দেয়।

স্থানীয়রা ছাত্রীকে উদ্ধার করে একটি ক্লিনিকে ভর্তি করে দেন। পরে তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

পরে অভির মা নাসরীন আলম কাকলী হাসপাতালে গিয়ে মীমাংসার প্রস্তাব দেন। অভিভাবকরা প্রভাবশালী পরিবারের ভয়ে রিলিজ ছাড়াই মেয়েকে হাসপাতাল থেকে বাড়িতে নিয়ে আসেন।

গত ১ সেপ্টেম্বর বিকালে ছাত্রীর বাবা সদর থানায় অভিসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। পুলিশের ব্যাপক তৎপরতার মুখে মা নাসরিন আলম কাকলী ২ সেপ্টেম্বর রাতে ছেলেকে সদর থানা পুলিশে সোপর্দ করেন।

অপরদিকে ছাত্রীকে ছুরিকাঘাতের ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে এলাকাবাসী তিনমাথা রেলগেট এলাকায় মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ইন্সপেক্টর শেখ ফরিদ ৩ সেপ্টেম্বর অভিকে আদালতে হাজির করে ৫ দিনের রিমান্ড চাইলে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট দু’দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

তদন্তকারী কর্মকর্তা জানান, রিমান্ডে অভি ওই ছাত্রীকে তুলে এনে ছুরিকাঘাতের কথা স্বীকার করে। ৫ সেপ্টেম্বর বুধবার দুপুরে তাকে অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করলে সে স্বীকারোক্তি দেয়নি। পরে আদালত তাকে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter