হাটহাজারীর মাহফিলে ভারতের আল্লামা মাদানী

  হাটহাজারী (চট্টগ্রাম)প্রতিনিধি ১৯ জানুয়ারি ২০১৮, ২১:০৩ | অনলাইন সংস্করণ

দারুল উলুম হাটহাজারী মাদ্রাসার বার্ষিক মাহফিল

হাটহাজারীর বার্ষিক মাহফিলে এবার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভারতীয় উপমহাদেশের আজাদী আন্দোলনের মহানায়ক শায়খুল ইসলাম আল্লামা হোসাইন আহমদ মাদানী রহ.-এর সুযোগ্য ছেলে আল্লামা সৈয়দ আসজাদ মাদানী।

শুক্রবার দেশের প্রাচীনতম দ্বীনি বিদ্যাপীঠ আল জামেয়াতুল আহলিয়া দারুল উলুম হাটহাজারীর বার্ষিক মাহফিল ও দস্তারবন্দি সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন তিনি।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আল্লামা সৈয়দ আসজাদ মাদানী বলেছেন, আমরা নবীজির পথ ছেড়ে দিয়েছি, তাই এত লাঞ্ছিত। নবীজি জীবনে একটি মিথ্যাও বলেননি অথচ আমরা কতশত মিথ্যা বলেছি তার কোনো হিসাব নেই।

তিনি বলেন, নবীজি জীবনে কারো মনে কষ্ট দেননি, অথচ আমরা বাবা-মা, স্ত্রী, পরিবার-পরিজনের যে কাউকে কষ্ট দিতে দ্বিধাবোধ করি না। আমরা সবাই পরকালে নবীজির সান্নিধ্য পেতে আগ্রহী কিন্ত নবীজির পথ থেকে আমরা যোজন যোজন পিছিয়ে পড়েছি। নবীজি বলেছেন, যার চরিত্র যত বেশি সুন্দর সে পরকালে আমার তত বেশি নিকটবর্তী হবে। তোমরা জিহ্বা সংযত কর এবং লজ্জাস্থান হেফাজত কর। আমি তোমাদের জন্যে জান্নাতের দায়িত্ব নিচ্ছি।

সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন হেফাজতে ইসলামের আমির ও হাটহাজারী মাদ্রাসার মহাপরিচালক আল্লামা শাহ আহমদ শফী। সভাপতির বক্তব্যে আল্লামা শাহ আহমদ শফী বলেন, মোবাইলিজম থেকে নারী-পুরুষনির্বিশেষে দূরত্ব বজায় রাখতে বিশেষভাবে নির্দেশ দিয়েছেন। মোবাইলের কারণে জাতি আজ ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে। মোবাইলের মাধ্যমে আমাদের আগামী প্রজন্মকে পঙ্গু করে দেয়ার পাশ্চাত্যবাদী ষড়যন্ত্র সম্পর্কে অবশ্যই সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে।

আল্লামা আহমদ শফী বলেন, আমি কিছুদিন আগে মোবাইল সম্পর্কে সতর্ক করায় আমাকে নিয়ে সমালোচনা করেছে অনেকে। অথচ পোপ ফ্রান্সিসও বাংলাদেশ সফরে এসে তরুণদের মোবাইলের ব্যবহারের ব্যাপারে সতর্ক করে গেছেন। মোবাইল যে যুবকদের চারিত্রিক ক্ষতি করছে তা এখন পশ্চিমারাও বলছে।

তিনি আরও বলেন, মোবাইলে ছাত্র ও যুবকরা গান, নাচ ও অশ্লীল ছবি দেখে চারিত্রিক অধঃপতনের দিকে যাচ্ছে।

আল্লামা শফী বলেন, আমি নারীদের তেঁতুলের সঙ্গে তুলনা করায় মিডিয়া ও নাস্তিকরা আমার সমালোচনা করেছে। কিন্তু তারা আমার কথার মর্মার্থ বুঝতে পারে নাই। কাউকে তেঁতুল খেতে দেখলে জিহ্বা আছে এমন মানুষের লালা আসবে এটাই স্বাভাবিক। তদ্রুপ নারী জাতি বিপরীত লিঙ্গকে আকর্ষণ করে। নারীকে অর্ধ বস্ত্র পরিহিত দেখলে পুরুষমাত্রই যৌন আকর্ষণ হবে এটাই স্বাভাবিক। এর মানে এই নয় যে নারীকে খারাপ বলা হয়েছে।

মাহফিলে বক্তব্য রাখেন- হেফাজতের কেন্দ্রীয় মহাসচিব ও হাটহাজারী মাদ্রাসার সহকারী পরিচালক আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী, আল্লামা মুহিব্বুল্লাহ বাবুনগরী, আল্লামা তফাজ্জল হক (সিলেটি), আল্লামা সালাহ উদ্দিন নানুপুরী, মুফতি জসিম উদ্দিন, মাওলানা নোমান ফয়জি,আল্লামা নুরুল ইসলাম ওলিপুরী, মাওলানা লুকমান, মাওলানা সাজেদুর রহমান (বি-বাড়িয়া), মুফতি কিফায়াত উল্লাহ, ড. আ ফ ম খালিদ হোসেন, মাওলানা সলিমুল্লাহ, মাওলানা আজিজুল হক আল মাদানী, মাওলানা ফুরকান আহমদ, মাওলানা আনাছ মাদানী এবং মাওলানা আশরাফ আলী নিজামপুরী প্রমুখ।

মাহফিলে সকাল থেকে দূর-দূরান্ত থেকে মুসল্লিরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে অংশ নেন। এতে লাখো জনতার উপস্থিতি ছিল চোখে পড়ার মতো। মাঠের কোথাও তিল ধারণের ঠাঁই ছিল না। দাওরায়ে হাদিসের ৩ হাজার ফারেগিনদের দস্তারবন্দি শেষে দেশ ও জাতির কল্যাণ কামনায় মোনাজাতের মাধ্যমে মাহফিল শেষ হয়।

 

 

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter