মাগুরায় অন্তঃকোন্দলের জেরে ২ ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম

প্রকাশ : ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২৩:৪৯ | অনলাইন সংস্করণ

  মাগুরা প্রতিনিধি

ছবি: যুগান্তর

মাগুরায় অভ্যন্তরীণ কোন্দলের জেরে ছাত্রলীগের দুই নেতাকে কুপিয়ে জখম করেছেন প্রতিপক্ষ। রোববার দিবাগত রাত ৯টার দিকে জেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ের সামনে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, রাত ৯টার দিকে সদর উপজেলার হাজরাপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন ও যুগ্ম সম্পাদক তিতাস উদ্দিন জেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক পঙ্কজ কুন্ডুর সঙ্গে দেখা করার জন্যে শহরের জামরুল তলায় আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে যান।

এ সময় পৌর সভার ৫নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগ সভাপতি রথি মোল্যা দলীয় কার্যালয়ের সামনে বসে হালিম খাচ্ছিলেন। কিন্তু ছাত্রলীগ নেতা রথি তার গায়ে ধাক্কা দিয়েছে এমন অভিযোগ তুলে ওই দুই ছাত্রলীগ নেতার সঙ্গে বাক বিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েন। এক পর্যায়ে সঙ্গে থাকা ধারালো অস্ত্র বের করে তাদের ওপর এলোপাতাড়ি হামলা চালান রথি।

এতে গিয়াস এবং তিতাস মারাত্মকভাবে জখম হয়েছেন। তাদের স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। জেলা ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক আলি হোসেন মুক্তা বলেন, অল্প বয়সী ছেলেদের মধ্যে সামান্য বিষয় নিয়ে ঘটনাটি ঘটেছে। এখানে দলীয় কোন্দলের কোন বিষয় নেই।

ছাত্রলীগ সভাপতি সভাপতি মীর মেহেদি হাসান রুবেল বলেন, হামলাকারী রথি জেলা ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক আলি হোসেন মুক্তার চাচাতো ভাই। তবে এটি রাজনৈতিক কোন বিষয় নয় বা দলীয় কোন্দলও নয়।

মাগুরা ২৫০ শয্যা হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ফারুক হোসেন বলেন, আহত দুজনের মাথা, গলা এবং হাতে ধারালো অস্ত্রের অনেকগুলো আঘাত রয়েছে। তারা এখন আশঙ্কামুক্ত।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সিরাজুল ইসলাম বলেন, হামলাকারী রথি ছাত্রলীগ নেতা কিনা জানিনা। তবে সে একজন সন্ত্রাসী। মাতাল অবস্থায় সে দুজনের ওপর হামলা চালিয়েছে। ইতোমধ্যেই রক্তাক্ত চাকুসহ তাকে আটক করা হয়েছে।