পূবাইলে নিজ হাতে থানাহাজত বানিয়ে নিজেই হলেন প্রথম বন্দি!

  পূবাইল (গাজীপুর) প্রতিনিধি ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৯:২৩ | অনলাইন সংস্করণ

পূবাইলে নিজ হাতে থানাহাজত বানিয়ে নিজেই হলেন প্রথম বন্দি!
গাজীপুর মেট্রোপলিটনের (জিএমপি) পূবাইল থানা। ছবি: সংগৃহীত

অনেক দৌড়ঝাঁপ করে রাজধানীর পূবাইলে নিজের জমির ওপর নির্মাণ করা ভবনটি থানার জন্য ভাড়া দেন ফরিদপুরের আবদুর রশিদ। নিজ হাতে থানার হাজতখানা তৈরি করেন তিনি। কিন্তু ভাগ্যের নির্মম পরিহাস তাকেই প্রথম আসামি হয়ে ওই হাজতখানায় বন্দি হতে হলো।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভিডিও কনফারেন্সে সদ্য উদ্বোধন করা গাজীপুর মেট্রোপলিটনের (জিএমপি) আওতাভুক্ত আটটি থানার একটি হচ্ছে পূবাইল থানা।

গত রোববার থানা উদ্বোধনের দ্বিতীয় দিনে ভবনটির সামনে দেয়ালে রং করার সময় ৩৩ হাজার ভোল্টেজের তারে জড়িয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মারা যান লক্ষ্মীপুরের রংমিস্ত্রি জাহাঙ্গীর।

এ ঘটনায় নিহত জাহাঙ্গীরের চাচা মো. মমিন বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। যার এক নম্বর আসামি হলেন থানা ভবন মালিক আবদুর রশিদ ও দুই নম্বর আসামি তার কেয়ারটেকার উজ্জ্বল।

মঙ্গলবার সকালে হাসপাতালে নিহত জাহাঙ্গীরের চাচা মমিনের সঙ্গে আপসে বিষয়টি মীমাংসা করার সময় পুলিশ আবদুর রশিদকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে পাঠিয়ে দেয়। মামলার ২ নম্বর আসামি উজ্জ্বল পলাতক রয়েছেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, গত রোববার থানা উদ্বোধনের দ্বিতীয় দিনে ভবনটির সামনে দেয়ালে রং করার সময় ৩৩ হাজার ভোল্টেজের তারে জড়িয়ে বিদ্যুৎস্পর্শ হয়ে মারা যান লক্ষ্মীপুরের রংমিস্ত্রি জাহাঙ্গীর।

এ ঘটনায় নিহত জাহাঙ্গীরের চাচা মো. মমিন বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। যার এক নম্বর আসামি হলেন থানা ভবন মালিক আবদুর রশিদ ও দুই নম্বর আসামি তার কেয়ারটেকার উজ্জ্বল।

থানা ভবনটি নির্মাণে গাফিলতি, নিয়মনীতি অমান্য করা, ঝুঁকিপূর্ণ ৩৩ হাজার ভোল্ট বৈদ্যুতিক তারের নিচে এবং পল্লীবিদ্যুৎ সাবস্টেশনঘেঁষে স্থানীয় বিদ্যুৎ অফিস ও এলাকাবাসীর বাধা-নিষেধ তোয়াক্কা না করার অভিযোগে থানা ভবনের খোদ মালিক আবদুর রশিদের বিরুদ্ধে পূবাইল মেট্রোপলিটন থানার প্রথম মামলাটি দায়ের হয়।

এ মামলাটি একটি বিরল ঘটনার জন্ম দিয়েছে। কারণ অক্লান্ত পরিশ্রম করে যে জমির মালিক থানা ভবনটি নির্মাণ করেছেন সেই মালিকই হলের থানায় নথিভুক্ত হওয়া প্রথম মামলার আসামি।

কিছুদিন আগেও যিনি তালটিয়ার চেয়ারম্যানবাড়ি রোডের তার ভবনে থানা কার্যক্রম চালুর জন্য অনেক দৌড়ঝাঁপ করেন ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তাদের পেছনে। একপর্যায়ে ভবনটি ভাড়া দিতে রাজি করাতেও সফল হন তিনি। কিন্তু নিজ হাতে তৈরি করা থানাহাজতে তাকেই প্রথম আসামি হয়ে ঢুকতে হলো। বর্তমানে তাকে জেলহাজতে রাখা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়দের মাঝে ব্যাপক তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

পূবাইল থানা ওসি নাজমুল হক ভুঁইয়া যুগান্তরকে জানান, ভবন মালিক আবদুর রশিদ হাসপাতালে নিহত জাহাঙ্গীরের চাচার সঙ্গে আপস বিষয়টি মীমাংসা করার সময় তাকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। এ থানার প্রথম মামলা এটি এবং ভবন মালিক মামলার ১ নম্বর আসামি।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×