ছাত্রদল নেতার লাথিতে গৃহবধূর গর্ভপাত

  বগুড়া ব্যুরো ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১:০৬ | অনলাইন সংস্করণ

ছাত্রদল নেতার লাথিতে গৃহবধূর গর্ভপাত
হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গৃহবধূ শাপলা বেগম। ছবি: সংগৃহীত

বগুড়া শহর ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক রবিউল হাসান দারুনসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে শাপলা বেগম (২৫) নামে এক অন্তঃসত্ত্বা নারীর পেটে লাথি দিয়ে তার ৩ মাসের সন্তান নষ্ট করার অভিযোগ উঠেছে।

ঋণ পরিশোধের পরও ঘরের আসবাবপত্র নিতে বাধা দেয়ায় তাকে মারধর করা হয়েছে। এ ব্যাপারে গৃহবধূর শাশুড়ি সুলতানা বেগম সদর থানায় ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

মামলা সূত্র ও পুলিশ জানায়, শহরের চেলোপাড়া এলাকার বাসিন্দা শাফি আহম্মেদ স্থানীয় অগ্রগতি বহুমুখী সমিতি থেকে ১৫ হাজার টাকা ঋণ নেন। এ সমিতির মালিক ছাত্রদল নেতা দারুনের স্ত্রী কুলসুম। শাফি সুদসহ ২০ হাজার টাকা পরিশোধ করলেও সমিতির লোকজন তার কাছে আরও ৩০ হাজার টাকা দাবি করে।

এ টাকা না দেয়ায় সমিতির লোকজন গত ১১ সেপ্টেম্বর বিকালে শাফি আহম্মেদের বাড়িতে আসে। তার অনুপস্থিতিতে বাড়ির আসবাবপত্র বের করে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করা হয়। এ সময় শাফির স্ত্রী শাপলা বেগম বাধা দিলে তাকে ছাত্রদল নেতা রবিউল হাসান দারুনের বাড়িতে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে তাকে কিলঘুষি ও লাথি মেরে মাটিতে ফেলে দেয়া হয়।

রবিউল হাসান দারুন ওই গৃহবধূর পেটে লাথি দেন। এতে প্রচুর রক্তক্ষরণ ও গর্ভের তিন মাসের সন্তান নষ্ট হয়ে যায়। গুরুতর আহত শাপলা বেগম বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের গাইনি ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ ব্যাপারে শাপলার শাশুড়ি সোমবার সদর থানায় ছাত্রদল নেতা রবিউল হাসান দারুন ও তার স্ত্রী কুলসুম, ভাই আন্দালিব ও ভগ্নিপতি বারিকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) কামরুজ্জামান মিয়া ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তদন্তকারী কর্মকর্তা নারুলী ফাঁড়ির এসআই আবদুল হাই জানান, আসামি দারুন আত্মগোপন করেছেন। এছাড়া তার স্ত্রীসহ অপর তিন আসামি আদালত থেকে জামিনে আছেন।

অভিযুক্ত দারুনের মোবাইল ফোন বন্ধ ও তিনি বাড়িতে না থাকায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×