মৃত্যুপুরী যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ প্রাণহানির রেকর্ড
jugantor
মৃত্যুপুরী যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ প্রাণহানির রেকর্ড

  যুগান্তর ডেস্ক  

২১ এপ্রিল ২০২০, ১৪:০১:০২  |  অনলাইন সংস্করণ

মৃত্যুপুরী যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ প্রাণহানির রেকর্ড

করোনাভাইরাসে মৃত্যুর মিছিল কিছুতেই থামছে না। সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় অন্তত ১৯৩৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে সাড়ে ৪২ হাজার মানুষের মৃত্যু হল ট্রাম্পের দেশে।খবর আলজাজিরার।

করোনাভাইরাসের প্রাণহানি ও অসুস্থদের পরিসংখ্যান রাখা আন্তর্জাতিক সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যমতে, বৈশ্বিক করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় গত ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ডসংখ্যক মারা গেছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে একদিনেই মারা গেছে ১৯৩৯ জন। সেখানে মোট মৃত্যু ৪২ হাজার ৫১৭। নতুন আক্রান্ত হয়েছে ২৮ হাজার ১২৩।

তবে জনস হপকিনস বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্যানুযায়ী যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১,৪৩৩ জনের।

আক্রান্তের তালিকায়ও শীর্ষে অবস্থান করা যুক্তরাষ্ট্রে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৭ লাখ ৮৪ হাজার।

করোনায় সবচেয়ে বেশি ভুগছে, নিউ ইয়র্ক সিটি। শহরটিতে মৃতের সংখ্যা ১৪ হাজার ৬০০ ছাড়িয়ে গেছে। তবে সংখ্যাটা কিছুটা কমতির দিকে বলে জানিয়েছেন নিউ ইয়র্কের গভর্নর অ্যান্ড্রু কুমো। সোমবার তিনি জানান, নগরীতে ২৪ ঘণ্টায় নতুন মৃতের সংখ্যা ৪৭৮ জন, যা গত দুই সপ্তাহের বেশি সময়ের মধ্যে সর্বনিম্ন।

২৪ ঘণ্টায় সর্বাধিক মৃত্যুর দিক দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের পরেই আছে ফ্রান্স। দেশটিতে একদিনেই মারা গেছে ৫৪৭ জন। সব মিলিয়ে মারা গেছেন ২০ হাজার ২৬৫ জন। ফ্রান্সে নতুন ২ হাজার ৪৪৯ জন রোগী শনাক্তের খবর পাওয়া গেছে।

তবে, মৃত্যুর মোট সংখ্যার দিক থেকে যুক্তরাষ্ট্রের পরই রয়েছে ইতালি। দেশটিতে ২৪ হাজার ১১৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। মৃত্যুর আধিক্যের দিক দিয়ে তৃতীয় দেশ স্পেন। সেখানে মারা গেছে ২০ হাজার ৮৫২ জন। এরপর ব্রিটেনে মৃত্যু ১৬ হাজার ৫০৯ জন। ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে মৃত্যুবরণ করেছে ৪৪৯ জন।

এছাড়া গত একদিনে জার্মানিতে ২২০ জন, বেলজিয়ামে ১৪৫, তুরস্কে ১২৩, ব্রাজিলে ১২৫, কানাডা ১০৩, ইরান ৯১, নেদারল্যান্ডসে ৬৭ জন এবং সুইডেনে ৪৫, ভারতে ৪১ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা এক লাখ ৭০ হাজার ছাড়িয়েছে। বাংলাদেশ সময় ২১ এপ্রিল মঙ্গলবার সকাল সোয়া ৯টার দিকে যুক্তরাষ্ট্রের জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা এ তথ্য জানিয়েছেন।

আর ওয়াল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, সারা বিশ্বে এ পর‌্যন্ত ১ লাখ ৭০ হাজার ৪৫৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।আক্রান্ত হয়েছেন ২৪ লাখ ৮২ হাজার ৪২ জন। আক্রান্তদের মধ্যে বর্তমানে ১৬ লাখ ৫৯ হাজার ৫১৮ জন চিকিৎসাধীন এবং ৫৭ হাজার ৩৫৫ জন আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন। এ পর্যন্ত করোনাভাইরাস আক্রান্তদের মধ্যে ৬ লাখ ৫২ হাজার ১৭০ জন (৭৯ শতাংশ) সুস্থ হয়ে উঠেছেন।

বিশ্বের দুই শতাধিক দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এটিকে মহামারী ঘোষণা করেছে।

মৃত্যুপুরী যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ প্রাণহানির রেকর্ড

 যুগান্তর ডেস্ক 
২১ এপ্রিল ২০২০, ০২:০১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
মৃত্যুপুরী যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ প্রাণহানির রেকর্ড
মৃত্যুপুরী যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ প্রাণহানির রেকর্ড

করোনাভাইরাসে মৃত্যুর মিছিল কিছুতেই থামছে না। সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় অন্তত ১৯৩৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে সাড়ে ৪২ হাজার মানুষের মৃত্যু হল ট্রাম্পের দেশে।খবর আলজাজিরার।

করোনাভাইরাসের প্রাণহানি ও অসুস্থদের পরিসংখ্যান রাখা আন্তর্জাতিক সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যমতে, বৈশ্বিক করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় গত ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ডসংখ্যক মারা গেছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে একদিনেই মারা গেছে ১৯৩৯ জন। সেখানে মোট মৃত্যু ৪২ হাজার ৫১৭। নতুন আক্রান্ত হয়েছে ২৮ হাজার ১২৩।

তবে জনস হপকিনস বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্যানুযায়ী যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১,৪৩৩ জনের।

আক্রান্তের তালিকায়ও শীর্ষে অবস্থান করা যুক্তরাষ্ট্রে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৭ লাখ ৮৪ হাজার।

করোনায় সবচেয়ে বেশি ভুগছে, নিউ ইয়র্ক সিটি। শহরটিতে মৃতের সংখ্যা ১৪ হাজার ৬০০ ছাড়িয়ে গেছে। তবে সংখ্যাটা কিছুটা কমতির দিকে বলে জানিয়েছেন নিউ ইয়র্কের গভর্নর অ্যান্ড্রু কুমো। সোমবার তিনি জানান, নগরীতে ২৪ ঘণ্টায় নতুন মৃতের সংখ্যা ৪৭৮ জন, যা গত দুই সপ্তাহের বেশি সময়ের মধ্যে সর্বনিম্ন।

২৪ ঘণ্টায় সর্বাধিক মৃত্যুর দিক দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের পরেই আছে ফ্রান্স। দেশটিতে একদিনেই মারা গেছে ৫৪৭ জন। সব মিলিয়ে মারা গেছেন ২০ হাজার ২৬৫ জন। ফ্রান্সে নতুন ২ হাজার ৪৪৯ জন রোগী শনাক্তের খবর পাওয়া গেছে।

তবে, মৃত্যুর মোট সংখ্যার দিক থেকে যুক্তরাষ্ট্রের পরই রয়েছে ইতালি। দেশটিতে ২৪ হাজার ১১৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। মৃত্যুর আধিক্যের দিক দিয়ে তৃতীয় দেশ স্পেন। সেখানে মারা গেছে ২০ হাজার ৮৫২ জন। এরপর ব্রিটেনে মৃত্যু ১৬ হাজার ৫০৯ জন। ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে মৃত্যুবরণ করেছে ৪৪৯ জন।

এছাড়া গত একদিনে জার্মানিতে ২২০ জন, বেলজিয়ামে ১৪৫, তুরস্কে ১২৩, ব্রাজিলে ১২৫, কানাডা ১০৩, ইরান ৯১, নেদারল্যান্ডসে ৬৭ জন এবং সুইডেনে ৪৫, ভারতে ৪১ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা এক লাখ ৭০ হাজার ছাড়িয়েছে। বাংলাদেশ সময় ২১ এপ্রিল মঙ্গলবার সকাল সোয়া ৯টার দিকে যুক্তরাষ্ট্রের জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা এ তথ্য জানিয়েছেন।

আর ওয়াল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, সারা বিশ্বে এ পর‌্যন্ত ১ লাখ ৭০ হাজার ৪৫৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।আক্রান্ত হয়েছেন ২৪ লাখ ৮২ হাজার ৪২ জন। আক্রান্তদের মধ্যে বর্তমানে ১৬ লাখ ৫৯ হাজার ৫১৮ জন চিকিৎসাধীন এবং ৫৭ হাজার ৩৫৫ জন আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন। এ পর্যন্ত করোনাভাইরাস আক্রান্তদের মধ্যে ৬ লাখ ৫২ হাজার ১৭০ জন (৭৯ শতাংশ) সুস্থ হয়ে উঠেছেন।

বিশ্বের দুই শতাধিক দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এটিকে মহামারী ঘোষণা করেছে।

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ছড়িয়ে পড়ছে করোনাভাইরাস