কলাম্বিয়ায় করোনায় আক্রান্ত এক কারাগারের ৮৫৯ জন কয়েদি

  যুগান্তর ডেস্ক ১২ মে ২০২০, ২৩:২৭:১৮ | অনলাইন সংস্করণ

লাতিন আমেরিকার দেশ কলাম্বিয়ায় মেটা প্রদেশে অবস্থিত ভিলাভেসেন্সি শহরের একটি কারাগার মহামারী করোনাভাইরাসের হটস্পটে পরিণত হয়েছে।

কারাগারটিতে খুব অল্প সময়ে কয়েদি ও জেলকর্মী মিলিয়ে ৮৫৯ জন প্রাণঘাতী করোনায় আক্রান্ত হয়েছে বলে খবর জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

বিবিসি জানিয়েছে, বিপুল সংখ্যক কয়েদি ও জেলকর্মী করোনায় আক্রান্তের ঘটনায় সম্প্রতি ওই কারাগার পরিচালককে এক ভার্চুয়াল অধিবেশনে তলব করে দেশটির প্রাদেশিক পরিষদ।

সেখানে জবাবে পরিচালক মিগুয়েল অ্যাঞ্জেল রদ্রিগেজ কারাগারের পরিবেশ ও ব্যবস্থাপনাকে দায়ী করেন। এর জন্য সরকারের ওপর দোষ চাপান।

তিনি বলেন, এই কারাগারে কয়েদির সংখ্যা ধারণ ক্ষমতার অনেক বেশি। যে কারণে মাটিতে এমনকি বাথরুমে রাত্রী যাপন করতে হয় কয়েদিদের। তাই মহামারীর নির্দেশনা মানা সেখানে অসম্ভব। তবুও যতটুকু সম্ভব আমরা তা করেছি।

তিনি আরও বলেন, কয়েদিদের আইসোলেশন করে রাখার ব্যবস্থা এখানে নেই বললেই চলে। বর্তমানে এখানে ১ হাজার ৭৫০ জন কয়েদি রয়েছে। যা ধারণ ক্ষমতার চেয়ে দ্বিগুণ। তাই ভাইরাসের বিস্তার রোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা আপাতত অসম্ভব।

কলাম্বিয়ায় করোনা প্রাদুর্ভাবের শুরুতে কারাগারে ১ হাজার ৮৩৫ জন কয়েদি ছিল বলে জানিয়ে রদ্রিগেজ বলেন, সরকারের পক্ষ থেকেও কোনো সহযোগিতা করা হয়নি।

গত সপ্তাহে কলম্বিয়ার কারা মহাপরিদর্শক লিসেট সার্ভেন্টেস জানিয়েছিলেন, মহামারী প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে জেনে ভিলাভেসেন্সির ওই কারাগারে একদল চিকিৎসক পাঠানো হয়েছিল। কিন্তু প্রয়োজনীয় সুরক্ষাসামগ্রী না পাওয়ায় তারা সেখান থেকে চলে আসেন।

আন্তর্জাতিক জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডওমিটারে দেয়া সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী, কলাম্বিয়ায় এ পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছে ১১ হাজার ৬১৩ জন। এর মধ্যে মারা গেছেন ৪৭৯ জন। সুস্থ হয়েছেন ২ হাজার ৮২৫ জন। হাসপাতালে ও কোয়ারেন্টিনে চিকিৎসাধীন ৮ হাজার ৩০৯ জন। এদের মধ্যে ১৩০ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত