বাড়িতে থেকে চিকিৎসা নিয়েই করোনামুক্ত ব্যাংক কর্মকর্তা

  বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি ১৯ জুন ২০২০, ২১:১৮:৪৩ | অনলাইন সংস্করণ

বড়লেখা উপজেলা সদরের পূবালী ব্যাংক কর্মকর্তা সাদেক হোসেনের করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছিল। তিনি ২৮ দিন বাড়িতে থেকে চিকিৎসা নিয়েই করোনামুক্ত হয়েছেন।

তিনি উপজেলার দাসেরবাজার ইউনিয়নের লঘাটি গ্রামের বাসিন্দা। নমুনা পরীক্ষায় পরপর দুইবার তার করোনা নেগেটিভ এসেছে। বৃহস্পতিবার উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ তাকে ছাড়পত্র দিয়েছে।

শুক্রবার সকালে মোবাইল ফোনে পূবালী ব্যাংক কর্মকর্তা সাদেক হোসেন (৩০) জানান, করোনায় আক্রান্ত হলেও তিনি মোটেও আতঙ্কিত হননি। বরং মনোবল ধরে রেখেছেন, হোম আইসোলেশনে থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলেন। প্রতিদিনই গরম পানি দিয়ে পাঁচবার গড়গড়া করতেন, ভাপ নিতেন; পাশাপাশি পানও করেছেন। পান করেছেন রং চাও। তেমন কোনো ওষুধ খাননি। এ ছাড়া প্রচুর ভিটামিন-সি সমৃদ্ধ ফলমূল খেয়েছেন। বৃহস্পতিবার হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র পাওয়ার পর মনে হচ্ছে বন্দিজীবন থেকে মুক্তি পেয়েছেন।

জানা গেছে, ব্যাংকে দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে নিজের অজান্তেই করোনায় আক্রান্ত হন সাদেক হোসেন। এরপর তিনি স্বেচ্ছায় ২০ মে নিজের নমুনা পরীক্ষা করান। যদিও তার করোনার কোনো লক্ষণ ছিল না। ২৩ মে নমুনা পরীক্ষার প্রতিবেদন পজিটিভ আসে। সদেক যখন জানতে পারলেন তার করোনা পজিটিভ এসেছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. রত্নদীপ বিশ্বাস জানান, করোনা আক্রান্ত ব্যাংক কর্মকর্তা বাড়িতে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়েছেন। নমুনা পরীক্ষায় দু'বার তার করোনা নেগেটিভ এসেছে। বৃহস্পতিবার তাকে ছাড়পত্র দেয়া হয়েছে।

বড়লেখায় এখন পর্যন্ত ২৩ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তাদের মধ্যে ৭ জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন বলে তিনি জানান।

ঘটনাপ্রবাহ : ছড়িয়ে পড়ছে করোনাভাইরাস

আরও

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত