ডাক্তার দেখাতে গিয়ে লাশ হল একই পরিবারের তিনজন
jugantor
ডাক্তার দেখাতে গিয়ে লাশ হল একই পরিবারের তিনজন

  মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি  

৩০ জুন ২০২০, ২৩:০১:১২  |  অনলাইন সংস্করণ

স্বজনদের খুঁজছে মানুষ

মুন্সীগঞ্জের টঙ্গিবাড়ী উপজেলার আপরকাঠি গ্রামের বিল্লাল দেওয়ানের স্ত্রী মারুফা বেগম (২৮)। বুকে ব্যথা তাই ডাক্তার দেখাতে যাচ্ছিলেন ঢাকাতে।

তিন বছরের ছেলে আবু তালহাকে নিয়ে দুলাভাই শামীম ব্যাপারীর সঙ্গে মুন্সীগঞ্জ থেকে ঢাকায় ডাক্তার দেখাতে যাচ্ছিলেন লঞ্চে করে। কিন্তু ডাক্তার আর দেখানো হল না তার।

সোমবার রাজধানীর শ্যামবাজার এলাকা সংলগ্ন বুড়িগঙ্গা নদীতে অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে লঞ্চডুবির ঘটনায় তাদের মৃত্যু হয়।

সোমবার রাত পৌনে ৮টার দিকে মারুফা এবং ছেলে আবু তালহাকে টঙ্গীবাড়ী উপজেলার আড়িয়ল কবরস্থানে দাফন করা হয়। দুলাভাই শামীম ব্যাপারীর বাড়ি সদর উপজেলার সিপাহীপাড়া এলাকায়। তাকে ওই এলাকায় দাফন করা হয়।

ডাক্তার দেখাতে গিয়ে লাশ হল একই পরিবারের তিনজন

 মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি 
৩০ জুন ২০২০, ১১:০১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
স্বজনদের খুঁজছে মানুষ
ফাইল ছবি

মুন্সীগঞ্জের টঙ্গিবাড়ী উপজেলার আপরকাঠি গ্রামের বিল্লাল দেওয়ানের স্ত্রী মারুফা বেগম (২৮)। বুকে ব্যথা তাই ডাক্তার দেখাতে যাচ্ছিলেন ঢাকাতে।

তিন বছরের ছেলে আবু তালহাকে নিয়ে দুলাভাই শামীম ব্যাপারীর সঙ্গে মুন্সীগঞ্জ থেকে ঢাকায় ডাক্তার দেখাতে যাচ্ছিলেন লঞ্চে করে। কিন্তু ডাক্তার আর দেখানো হল না তার।

সোমবার রাজধানীর শ্যামবাজার এলাকা সংলগ্ন বুড়িগঙ্গা নদীতে অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে লঞ্চডুবির ঘটনায় তাদের মৃত্যু হয়।

সোমবার রাত পৌনে ৮টার দিকে মারুফা এবং ছেলে আবু তালহাকে টঙ্গীবাড়ী উপজেলার আড়িয়ল কবরস্থানে দাফন করা হয়। দুলাভাই শামীম ব্যাপারীর বাড়ি সদর উপজেলার সিপাহীপাড়া এলাকায়। তাকে ওই এলাকায় দাফন করা হয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি ২০২০