দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত ৭ প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা
jugantor
দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত ৭ প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা

  যুগান্তর প্রতিবেদন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া  

৩০ নভেম্বর ২০২১, ০৯:০৭:৪৭  |  অনলাইন সংস্করণ

করোনা

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মহামারি করোনার ভয়ঙ্কর ধরন (ভ্যারিয়েন্ট) ওমিক্রন ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কায় দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত সাত প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা টাঙানো ও তাদের হোম কোয়ারেন্টিনে রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে নতুন করে অনেকের মনে আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

সোমবার সন্ধ্যায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের হলরুমে অনুষ্ঠিত জরুরি বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক হায়াত-উদ-দৌলা-খাঁন।

বৈঠকে আখাউড়া স্থলবন্দরে কড়াকড়িভাবে স্বাস্থ্য পরীক্ষা ও যাত্রী পারাপারসহ বাড়তি নজরদারির কথা বলা হয়েছে।

জেলা প্রশাসক কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে সাত প্রবাসী ব্রাহ্মণবাড়িয়া ফিরেছেন। তাদের মধ্যে বাঞ্ছারামপুর উপজেলার একজন, কসবার তিনজন, নবীনগরের একজন ও সদর উপজেলার দুজন রয়েছেন।

সভায় উপস্থিত ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সিভিল সার্জন একরাম উল্লাহ বলেন, আমাদের সভায় করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে আলোচনা হয়। প্রবাসফেরত সবাইকে কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করার ওপর জোর দেওয়া হয়। দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত সাত প্রবাসীর হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট উপজেলার ইউএনওদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তারা ওই সাত প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা দিয়ে চিহ্নিত ও হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে।

দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত ৭ প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা

 যুগান্তর প্রতিবেদন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া 
৩০ নভেম্বর ২০২১, ০৯:০৭ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
করোনা
ফাইল ছবি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মহামারি করোনার ভয়ঙ্কর ধরন (ভ্যারিয়েন্ট) ওমিক্রন ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কায় দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত সাত প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা টাঙানো ও তাদের হোম কোয়ারেন্টিনে রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে নতুন করে অনেকের মনে আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

সোমবার সন্ধ্যায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের হলরুমে অনুষ্ঠিত জরুরি বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক হায়াত-উদ-দৌলা-খাঁন।

বৈঠকে আখাউড়া স্থলবন্দরে কড়াকড়িভাবে স্বাস্থ্য পরীক্ষা ও যাত্রী পারাপারসহ বাড়তি নজরদারির কথা বলা হয়েছে।

জেলা প্রশাসক কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে সাত প্রবাসী ব্রাহ্মণবাড়িয়া ফিরেছেন। তাদের মধ্যে বাঞ্ছারামপুর উপজেলার একজন, কসবার তিনজন, নবীনগরের একজন ও সদর উপজেলার দুজন রয়েছেন।

সভায় উপস্থিত ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সিভিল সার্জন একরাম উল্লাহ বলেন, আমাদের সভায় করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে আলোচনা হয়। প্রবাসফেরত সবাইকে কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করার ওপর জোর দেওয়া হয়। দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত সাত প্রবাসীর হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট উপজেলার ইউএনওদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তারা ওই সাত প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা দিয়ে চিহ্নিত ও হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ছড়িয়ে পড়ছে করোনাভাইরাস