মেইড ইন বাংলাদেশ উইক শুরু রোববার
jugantor
মেইড ইন বাংলাদেশ উইক শুরু রোববার

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

১২ নভেম্বর ২০২২, ২১:৩৯:৪২  |  অনলাইন সংস্করণ

পোশাক খাতের প্রদর্শনী মেইড ইন বাংলাদেশ উইক শুরু হচ্ছে আগামীকাল রোববার। সপ্তাহব্যাপী প্রদর্শনীতে বিদেশি ক্রেতারা অংশ নেবেন। আন্তর্জাতিক কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রদর্শনীর উদ্বোধন করবেন। এরপর হোটেল রেডিসনে আন্তর্জাতিক অ্যাপারেল ফোরামের (আইএএফ) বোর্ড মিটিং হবে। যেখানে বাংলাদেশের অ্যাপারেল খাত নিয়ে আলোচনা ও উদ্ভাবনীমূলক পণ্য প্রদর্শন করা হবে।

শনিবার রাজধানীর বনানীতে একটি হোটেলে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান বিজিএমইএ সভাপতি ফারুক হাসান। সংবাদ সম্মেলনে প্রদর্শনীর বিভিন্ন দিন তুলে ধরেন তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে ফারুক হাসান জানান, প্রথমবারের মতো বিজিএমইএ মেইড ইন বাংলাদেশ উইক আয়োজন করতে যাচ্ছে। বাংলাদেশকে ব্রান্ডিং করার পাশাপাশি বাংলাদেশের পোশাক খাত সম্পর্কে ক্রেতাদের স্বচ্ছ ধারণা দিতে এ আয়োজন। সোমবার ঢাকা অ্যাপারেল এক্সপোর উদ্বোধন এবং ৩৭তম ওয়ার্ল্ড ফ্যাশন কনভেনশন অনুষ্ঠিত হবে। পরের দিন মঙ্গলবার বিদেশি ক্রেতাদের বাংলাদেশের সবুজ শিল্প ভ্রমণ করানো হবে। একই দিনে ঢাকা অ্যাপারেল সামিট ও ডেনিম এক্সপোর উদ্বোধন করা হবে। শুক্রবার বিজিএমইএর ইনোভেশন সেন্টার উদ্বোধনের মাধ্যমে বাংলাদেশ উইক শেষ হবে।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ফারুক হাসান বলেন, পোশাক শিল্পে চ্যালেঞ্জ ছিল, আছে এবং থাকবে। এ দেশে শিল্পের প্রধান কাঁচামাল তুলা, রাসায়নিক কিছুই উৎপাদন হয় না। করোনা মহামারির পর রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ নতুন বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ নিয়ে এসেছে। তারপরও বাংলাদেশ বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম রপ্তানিকারক দেশ। এখন গ্যাস-বিদ্যুতের যে সংকট চলছে তা নিয়ে সরকারের সঙ্গে আলোচনা চলছে। এসব সংকটের কথা বলে ক্রেতাদের পেনিক করতে চাই না।

ডলার সংকট পোশাক শিল্পের আমদানি-রপ্তানিতে প্রভাব ফেলছে কিনা- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, পোশাক শিল্পের এলসি খুলতে সমস্যা নেই। আমদানি-রপ্তানিতেও সমস্যা হচ্ছে না। বিদেশি ক্রেতাদের পণ্য স্টক হয়ে যাওয়ায় অনেকে পণ্য ডেলিভারি নিচ্ছে না।

শ্রমিকদের মজুরি বৃদ্ধির বিষয়ে ফারুক হাসান বলেন, মজুরি বৃদ্ধির ব্যাপারে সরকার ও শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে আলোচনা হচ্ছে। শিল্পের সক্ষমতা বিবেচনায় নিয়ে মজুরি নির্ধারণ করা উচিত বলে মনে করেন তিনি।

শিল্প মালিকদের প্রতি অর্ডার ধরতে পোশাকের দাম না কমানোর আহ্বান জানিয়ে বিজিএমইএ সভাপতি বলেন, দাম কমালে অস্তিত্ব থাকবে না। একদিকে উৎপাদন খরচ বাড়ছে, অন্যদিকে পরিবহণ খরচও বাড়ছে। এখন শিল্প মালিকদের ঠিক করতে হবে ক্যাপাসিটি অনুযায়ী উৎপাদন করতে পোশাকের দাম কমিয়ে নিজের অস্তিত্ব বিলীন করা উচিত হবে কিনা। প্রাইস যুদ্ধে না নামতে শিল্প মালিকদের আহ্বান জানান তিনি।

মেইড ইন বাংলাদেশ উইক শুরু রোববার

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
১২ নভেম্বর ২০২২, ০৯:৩৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

পোশাক খাতের প্রদর্শনী মেইড ইন বাংলাদেশ উইক শুরু হচ্ছে আগামীকাল রোববার। সপ্তাহব্যাপী প্রদর্শনীতে বিদেশি ক্রেতারা অংশ নেবেন। আন্তর্জাতিক কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রদর্শনীর উদ্বোধন করবেন। এরপর হোটেল রেডিসনে আন্তর্জাতিক অ্যাপারেল ফোরামের (আইএএফ) বোর্ড মিটিং হবে। যেখানে বাংলাদেশের অ্যাপারেল খাত নিয়ে আলোচনা ও উদ্ভাবনীমূলক পণ্য প্রদর্শন করা হবে। 

শনিবার রাজধানীর বনানীতে একটি হোটেলে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান বিজিএমইএ সভাপতি ফারুক হাসান। সংবাদ সম্মেলনে প্রদর্শনীর বিভিন্ন দিন তুলে ধরেন তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে ফারুক হাসান জানান, প্রথমবারের মতো বিজিএমইএ মেইড ইন বাংলাদেশ উইক আয়োজন করতে যাচ্ছে। বাংলাদেশকে ব্রান্ডিং করার পাশাপাশি বাংলাদেশের পোশাক খাত সম্পর্কে ক্রেতাদের স্বচ্ছ ধারণা দিতে এ আয়োজন। সোমবার ঢাকা অ্যাপারেল এক্সপোর উদ্বোধন এবং ৩৭তম ওয়ার্ল্ড ফ্যাশন কনভেনশন অনুষ্ঠিত হবে। পরের দিন মঙ্গলবার বিদেশি ক্রেতাদের বাংলাদেশের সবুজ শিল্প ভ্রমণ করানো হবে। একই দিনে ঢাকা অ্যাপারেল সামিট ও ডেনিম এক্সপোর উদ্বোধন করা হবে। শুক্রবার বিজিএমইএর ইনোভেশন সেন্টার উদ্বোধনের মাধ্যমে বাংলাদেশ উইক শেষ হবে। 

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ফারুক হাসান বলেন, পোশাক শিল্পে চ্যালেঞ্জ ছিল, আছে এবং থাকবে। এ দেশে শিল্পের প্রধান কাঁচামাল তুলা, রাসায়নিক কিছুই উৎপাদন হয় না। করোনা মহামারির পর রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ নতুন বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ নিয়ে এসেছে। তারপরও বাংলাদেশ বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম রপ্তানিকারক দেশ। এখন গ্যাস-বিদ্যুতের যে সংকট চলছে তা নিয়ে সরকারের সঙ্গে আলোচনা চলছে। এসব সংকটের কথা বলে ক্রেতাদের পেনিক করতে চাই না। 

ডলার সংকট পোশাক শিল্পের আমদানি-রপ্তানিতে প্রভাব ফেলছে কিনা- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, পোশাক শিল্পের এলসি খুলতে সমস্যা নেই। আমদানি-রপ্তানিতেও সমস্যা হচ্ছে না। বিদেশি ক্রেতাদের পণ্য স্টক হয়ে যাওয়ায় অনেকে পণ্য ডেলিভারি নিচ্ছে না। 

শ্রমিকদের মজুরি বৃদ্ধির বিষয়ে ফারুক হাসান বলেন, মজুরি বৃদ্ধির ব্যাপারে সরকার ও শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে আলোচনা হচ্ছে। শিল্পের সক্ষমতা বিবেচনায় নিয়ে মজুরি নির্ধারণ করা উচিত বলে মনে করেন তিনি। 

শিল্প মালিকদের প্রতি অর্ডার ধরতে পোশাকের দাম না কমানোর আহ্বান জানিয়ে বিজিএমইএ সভাপতি বলেন, দাম কমালে অস্তিত্ব থাকবে না। একদিকে উৎপাদন খরচ বাড়ছে, অন্যদিকে পরিবহণ খরচও বাড়ছে। এখন শিল্প মালিকদের ঠিক করতে হবে ক্যাপাসিটি অনুযায়ী উৎপাদন করতে পোশাকের দাম কমিয়ে নিজের অস্তিত্ব বিলীন করা উচিত হবে কিনা। প্রাইস যুদ্ধে না নামতে শিল্প মালিকদের আহ্বান জানান তিনি। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন