সারা দেশে ব্যাংকের শাখা পর্যায়ে ডলার লেনদেনের সুযোগ
jugantor
সারা দেশে ব্যাংকের শাখা পর্যায়ে ডলার লেনদেনের সুযোগ

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

১২ আগস্ট ২০২২, ২২:৫৩:১২  |  অনলাইন সংস্করণ

নগদ ডলার বেচাকেনায় মানিচেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলোর ওপর নির্ভরতা কমাতে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর সাধারণ শাখায় নগদ ডলার বেচাকেনার অনুমোদন দেওয়া হবে। এ বিষয়ে ব্যাংক কোনো শাখায় ডলার বেচাকেনা করবে সে ব্যাপারে কেন্দ্রীয় ব্যাংককে তালিকা পাঠিয়ে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোকে অনুমোদন নিতে হবে।

এ বিষয়ে গত বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে একটি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

সূত্র জানায়, বর্তমানে কেবল বৈদেশিক মুদ্রা বেচাকেনার জন্য কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে লাইসেন্সপ্রাপ্ত শাখাগুলোই (এডি শাখা) কেবল ডলার বেচাকেনা করতে পারে। অন্য কোনো শাখা ডলার কেনাবেচা করতে পারে না। যে কারণে ব্যাংকে ডলার কেনাবেচা করতে হলে এডি শাখায় যেতে হয়। সর্বত্র এডি শাখাও নেই। ফলে অনেকেই নগদ ডলার বেচাকেনার জন্য মানি চেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলোতে যায়। এতে মানি চেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলো ইচ্ছেমতো ডলারের দাম বাড়ায় বা কমায়। সম্প্রতি ডলারের দাম বাড়ার নেপথ্যে অন্যতম ভূমিকা রেখে মানি চেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলো। কেননা তাদের শাখা উপশাখা দেশের সর্বত্র ছড়িয়েং ছিটিয়ে রয়েছে।

এ কারণে কেন্দ্রীয় ব্যাংক নতুন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এখন থেকে ব্যাংকের এডি শাখার পাশাপাশি সাধারণ শাখাগুলোতে নগদ ডলার বেচাকেনা হবে। একইসঙ্গে পাসপোর্টে ডলার এন্ড্রোর্সমেন্টও করা যাবে। তবে সব সাধারণ শাখায়ই ডলার বেচাকেনা করা যাবে না। ব্যাংকগুলো যেসব শাখায় নগদ ডলার বেচাকেনা করতে চায় ওইসব শাখার একটি তালিকা কেন্দ্রীয় ব্যাংকে পাঠিয়ে তার অনুমোদন নিতে হবে। তারপর থেকে ওইসব শাখায় ডলার কেনাবেচা করা যাবে। যেসব শাখায় ডলার বেচাকেনা হবে সেগুলোর নাম প্রচার করে গ্রাহকদের জানাতে হবে।

সারা দেশে ব্যাংকের শাখা পর্যায়ে ডলার লেনদেনের সুযোগ

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
১২ আগস্ট ২০২২, ১০:৫৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নগদ ডলার বেচাকেনায় মানিচেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলোর ওপর নির্ভরতা কমাতে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর সাধারণ শাখায় নগদ ডলার বেচাকেনার অনুমোদন দেওয়া হবে। এ বিষয়ে ব্যাংক কোনো শাখায় ডলার বেচাকেনা করবে সে ব্যাপারে কেন্দ্রীয় ব্যাংককে তালিকা পাঠিয়ে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোকে অনুমোদন নিতে হবে। 

এ বিষয়ে গত বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে একটি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

সূত্র জানায়, বর্তমানে কেবল বৈদেশিক মুদ্রা বেচাকেনার জন্য কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে লাইসেন্সপ্রাপ্ত শাখাগুলোই (এডি শাখা) কেবল ডলার বেচাকেনা করতে পারে। অন্য কোনো শাখা ডলার কেনাবেচা করতে পারে না। যে কারণে ব্যাংকে ডলার কেনাবেচা করতে হলে এডি শাখায় যেতে হয়। সর্বত্র এডি শাখাও নেই। ফলে অনেকেই নগদ ডলার বেচাকেনার জন্য মানি চেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলোতে যায়। এতে মানি চেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলো ইচ্ছেমতো ডলারের দাম বাড়ায় বা কমায়। সম্প্রতি ডলারের দাম বাড়ার নেপথ্যে অন্যতম ভূমিকা রেখে মানি চেঞ্জার্স প্রতিষ্ঠানগুলো। কেননা তাদের শাখা উপশাখা দেশের সর্বত্র ছড়িয়েং ছিটিয়ে রয়েছে।

এ কারণে কেন্দ্রীয় ব্যাংক নতুন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এখন থেকে ব্যাংকের এডি শাখার পাশাপাশি সাধারণ শাখাগুলোতে নগদ ডলার বেচাকেনা হবে। একইসঙ্গে পাসপোর্টে ডলার এন্ড্রোর্সমেন্টও করা যাবে। তবে সব সাধারণ শাখায়ই ডলার বেচাকেনা করা যাবে না। ব্যাংকগুলো যেসব শাখায় নগদ ডলার বেচাকেনা করতে চায় ওইসব শাখার একটি তালিকা কেন্দ্রীয় ব্যাংকে পাঠিয়ে তার অনুমোদন নিতে হবে। তারপর থেকে ওইসব শাখায় ডলার কেনাবেচা করা যাবে। যেসব শাখায় ডলার বেচাকেনা হবে সেগুলোর নাম প্রচার করে গ্রাহকদের জানাতে হবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন