গাড়িতে ধাক্কা লাগায় জনপ্রতিনিধির কাণ্ড, ফেসবুকে ভাইরাল

  যুগান্তর ডেস্ক    ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৭:১২ | অনলাইন সংস্করণ

গাড়িতে ধাক্কা লাগায় জনপ্রতিনিধির কাণ্ড, ফেসবুকে ভাইরাল
গাড়িতে ধাক্কা লাগায় জনপ্রতিনিধির কাণ্ড, ফেসবুকে ভাইরাল। ছবি: ফেসবুক ভিডিও থেকে সংগৃহীত

নিজের গাড়িতে ধাক্কা লাগায় এক নসিমন চালককে প্রকাশ্যে মারধর করে আলোচনায় এসেছেন নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ পৌরসভার মেয়র সাদেকুর রহমান।

শনিবার বিকালে সোনারগাঁয়ের বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনের প্রধান ফটকের সামনে লাঠি হাতে তার সেই পিটুনির ভিডিও ফেইসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। আর এমন ভিডিও ভাইরাল হয়েছে।

সাদেকুর রহমান বাংলাদেশ কেমিস্ট অ্যান্ড ড্রাগিস্ট সমিতির (বিসিডিএস) কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি।

শনিবার নারায়ণগঞ্জ-৩ আসনে মহাজোটের মনোনীত জাতীয় পার্টির প্রার্থী লিয়াকত হোসেন খোকার পক্ষে জনসংযোগ শেষে নিজের প্রাইভেট কারে করে বাড়ি ফেরার পথে তিনি ওই ঘটনা ঘটান। ভিডিওতে দেখা যায় তিনি তিনি প্রকাশ্যে নসিমন চালককে মারধর করছেন। নিজের হাতে থাকা লাঠি দিয়ে বারবার তাকে আঘাত করছেন। ওই চালক ক্ষমা চেয়েও নিস্তার পাচ্ছেন না। পরে স্থানীয়দের কয়েকজন এগিয়ে এসে মেয়রকে বুঝিয়ে শান্ত করার চেষ্টা করেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সোনারগাঁও জাদুঘর এলাকায় বাঁশবোঝাই একটি নসিমনের সঙ্গে মেয়রের গাড়ির সংঘর্ষ হয়। এতে তার প্রাইভেট কারের এক পাশে আঁচড় লেগে রঙ উঠে যায়। আর এতেই ক্ষিপ্ত হন তিনি।

এ সময় একজন প্রত্যক্ষদর্শী মোবাইল ফোনে ঘটনাটি ধারণ করে ফেইসবুকে তুলে দিলে তা ভাইরাল হয়ে যায়।

এ নিয়ে সাদেকুর রহমান বলেন, 'আমি আমার গাড়ি খুব যত্ন করে রাখি। কিন্তু ওই ছেলে বাঁশ বোঝাই নসিমন লাগিয়ে দিয়ে আমার গাড়ি দুমড়ে মুচড়ে ফেলে।তাই রাগে হাতের লাঠি দিয়ে তাকে কয়েকটা আঘাত করেছি।' পরে স্থানীয়রা ওই নসিমন চালককে গাড়িসহ আটকে রাখে বলে দাবি করেন মেয়র।

তিনি বলেন, 'রাগ করে ওই ছেলেকে মারধর করেছি।কিন্তু সেটা আমি ভুল করেছি।তাই পরে ক্ষমা চেয়ে ওই ছেলেকে ছাড়িয়ে দিয়েছি।'

সোনারগাঁ থানার ওসি মোরশেদ আলম বলেন, ওই ঘটনা নিয়ে কেউ থানায় কোনো অভিযোগ করেননি।

'তবে আমরা খোঁজ খবর নেব। কেউ অন্যায় করে থাকলে আইন নিজের হাতে তুলে নেওয়া উচিত নয়।'

ঘটনাপ্রবাহ : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×