বহু জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে নির্বাচনী মাঠে কনকচাঁপা

  জেহাদুল ইসলাম, সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি ২১ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৮:৫৪ | অনলাইন সংস্করণ

বহু জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে নির্বাচনী মাঠে কনকচাঁপা
বহু জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে নির্বাচনী মাঠে কনকচাঁপা। ফাইল ছবি

বহু জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে নির্বাচনী মাঠে নামলেন সিরাজগঞ্জ-১ (কাজিপুর-সদরের একাংশ) আসনের ধানের শীষের প্রার্থী জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত কণ্ঠশিল্পী রুমানা মোর্শেদ কনকচাঁপা।

তিনি শুক্রবার সকাল থেকে তার নির্বাচনী এলাকা কাজিপুর উপজেলার সোনামুখী ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে গণসংযোগ করেছেন। এ সময় তিনি বাড়িবাড়ি গিয়ে ধানের শীষে ভোট প্রার্থনা করেন। তবে তার এ গণসংযোগের সময় বিএনপির দায়িত্বশীল কোনো নেতা সঙ্গে না থাকলেও স্থানীয় কিছু গণ্যমান্য ব্যক্তি ও সমর্থকরা সঙ্গে ছিলেন।

এ সময় কনকচাঁপাকে একনজর দেখার জন্য উৎসুক জনতা ভিড় জমান। উল্লেখ্য, সিরাজগঞ্জ-১ (কাজিপুর-সদরের একাংশ) আসনে ধানের শীষের একাধিক ত্যাগী ও নির্যাতিত নেতা মনোনয়ন চাইলেও জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত কণ্ঠশিল্পী রুমানা মোর্শেদ কনকচাঁপাকে বিএনপির পক্ষ থেকে মনোনয়ন দেয়া হয়। তার ব্যক্তিগত ইমেজকে কাজে লাগিয়ে আওয়ামী লীগের হেভিওয়েট প্রার্থী মোহাম্মদ নাসিমের বিরুদ্ধে শক্ত অবস্থান নিয়ে ধানের শীষের পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি করতে পারবেন এমন বিশ্বাসেই নির্ধারকরা তাকে মনোনয়ন দেন।

অথচ মনোনয়ন পাওয়ার পর বৃহস্পতিবার পর্যন্ত তার নির্বাচনী এলাকায় কোনো সভা-সমাবেশ বা গণসংযোগ আসেননি তিনি।

গত ১৪ ডিসেম্বর কনকচাঁপা সিরাজগঞ্জ শহরের হোসেনপুরে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকুর বাসায় অবস্থান করে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রচারণায় নামার পূর্বপ্রস্তুতি হিসেবে কাজিপুরের বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন।

মতবিনিময় সভায় আরেক মনোনয়নপ্রত্যাশী জেলা বিএনপির সহসভাপতি নাজমুল হাসান রানা কনকচাঁপার হাতে ফুলের তোড়া তুলে দিয়ে তার সমর্থকদের নিয়ে ধানের শীষের পক্ষে কাজ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করে বক্তব্য রাখেন।

মতবিনিময় সভায় কনকচাঁপা অভিযোগ করেন, নির্বাচনে প্রচারের নামার আগেই আমাকে নানাভাবে ভয়ভীতি ও হুমকি দেয়া হচ্ছে। তাই বলে ঘরে বসে থাকলে চলবে না। সব বাধা অতিক্রম করে ভোটের মাধ্যমে গণতন্ত্রকে বিজয় করতে হবে, খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে।

এরপর দলের কোনো নেতাকর্মী বা ভোটাররা তার কোনো সন্ধান পাননি। হঠাৎ গত ১৭ ডিসেম্বর দুপুরে বগুড়া পর্যটন মোটেলে সিরাজগঞ্জের কয়েকজন সাংবাদিককে আমন্ত্রণ জানিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন। সেখানে তিনি লিখিত বক্তব্যে তার নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে কনকচাঁপা অভিযোগ করে বলেন, তাকে ফোনে এবং বিভিন্নভাবে তার নেতাকর্মীদের হুমকি দেয়া হচ্ছে। এসব বিষয়ে যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে অভিযোগ দেয়া হলেও কোনো প্রতিকার পাননি।

‘কারা হুমকি দিচ্ছে’ সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে কনকচাঁপা সুনির্দিষ্টভাবে কারও নাম উল্লেখ করেননি।

তিনি আরও বলেন, গত ১৬ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় শহরে আসার পথে হাটিকুমরুল রোড থেকে কালো রঙের একটি জিপ আমার গাড়িকে অনুসরণ করতে থাকে। নলকা এলাকায় আসার পর সন্দেহ হলে আমি গাড়ি থামাই। এ সময় ওই জিপও আমার গাড়ির সামনে দাঁড়িয়ে পড়ে। এমন পরিস্থিতিতে গুমের আশঙ্কায় দ্রুত আমি আমার গাড়ি ঘুরিয়ে কৌশলে আত্মগোপনে চলে যাই।

তিনি অভিযোগ করেন, এতদিন নেতাকর্মীদের ভয়ভীতি দেখানো হয়েছে। এখন আমার গাড়ি অনুসরণ করা হচ্ছে।

এরপরও প্রশাসনের পক্ষ থেকে তার নিরাপত্তায় কোনো ব্যবস্থা না নেয়ায় তিনি রিটার্নিং কর্মকর্তার ওপর আস্থা না পেয়ে জীবননাশের ভয়ে পার্শ্ববর্তী বগুড়া জেলায় আশ্রয় নেন বলে সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করেন।

শুক্রবার বিকালে রুমানা মোর্শেদ কনকচাঁপা বলেন, আজ থেকে আমি আমার নির্বাচনী এলাকা কাজিপুর উপজেলায় গণসংযোগ শুরু করেছি। গণসংযোগ বিষয়ে স্থানীয় প্রশাসনের সহায়তা চাওয়া হলে প্রশাসন সহায়তা করছে। আপাতত কোনো সমস্যা নেই। তবে কিছুটা শঙ্কা তো থেকেই যায়।

ঘটনাপ্রবাহ : সিরাজগঞ্জ-১: জাতীয় সংসদ নির্বাচন

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×