'অনুষ্কার মতো বাচ্চা মেয়েকেও ছাড়া হচ্ছে না, আমি তো বকা খাবই'
jugantor
'অনুষ্কার মতো বাচ্চা মেয়েকেও ছাড়া হচ্ছে না, আমি তো বকা খাবই'

  বিনোদন ডেস্ক  

২৩ এপ্রিল ২০২১, ০৯:৫৩:৫৩  |  অনলাইন সংস্করণ

গত রোববার জিবাংলায় প্রচারিত হয় সারেগামাপা-২০২০-২১ মৌসুমের চূড়ান্ত পর্ব। গানের দীর্ঘ লড়াইয়ে বহু প্রতিযোগীকে পেছনে ফেলে এই পর্বে জায়গা করে নেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের অর্কদীপ মিশ্র, রক্তিম চৌধুরী, বিদীপ্তা চক্রবর্তী, জ্যোতি শর্মা, নীহারিকা নাথ ও অনুষ্কা পাত্র।

শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন অর্কদীপ। দ্বিতীয় স্থান অধিকার করেছেন নীহারিকা এবং তৃতীয় হয়েছেন বিদীপ্তা।

তবে দর্শকদের ভোটে বিজয়ী হয়েছেন অনুষ্কা। অর্কদীপকে চ্যম্পিয়ন মেনে নিতে পারছেন দর্শকরা।

প্রতিযোগিতার অন্যতম সেরা শিল্পী অর্কদীপ। লোকগানের শিল্পী হিসেবে তিনি অনবদ্য, সে কথা স্বীকার করে নিয়েছেন দর্শকেরা। বাকি প্রতিযোগিরাও কেউ কারও চেয়ে যেন কম নয়। তবে চতুর্থ স্থান অধিকার করা অনুষ্কা পাত্র যেন সব ধরনের গানে বিশেষভাবে পারদর্শী। ফলে তার চ্যাম্পিয়ন না হতে পারা মেনে নিতে পারেননি দর্শকেরা।

এ নিয়ে রোববার অনুষ্ঠান শেষ হওয়ার পর থেকেই শুরু হয়েছে সমালোচনা, যা শেষ পর্যন্ত রূপ নিয়েছে কুরুচিপূর্ণ বাগ্যুদ্ধে। প্রতিযোগীদের পাশাপাশি নেটিজেনরা যখন প্রতিযোগিতার বিচারকদের কটু কথা বলতে শুরু করেছেন, তখন আর সহ্য করতে পারেননি অর্কদীপ। লাইভে প্রতিবাদ জানিয়েছেন তিনি।

তিনি বলেন, আমি সারেগামাপায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছি, সেটা তো আমার হাতে ছিল না। যারা এতে অখুশি হয়েছেন তাদের বলি, খেতাব বা পুরস্কার বা আমাকে সেটা দেওয়ার সিদ্ধান্তটা আমার হাতে ছিল না। আমার পরিবার, গুরু বা গ্রুমারদের হাতে ছিল না। তবে আপনাদের মন্তব্য দেখে এখন আমারও মনে হচ্ছে, আমাকে চ্যাম্পিয়ন না করলেই হতো। তাহলে এত অশান্ত পরিবেশ তৈরি হতো না। আমি ব্যক্তিগতভাবে অশান্তিতে নেই। কিন্তু (বিচারক) মিকা সিং, আকৃতি কক্কর, শ্রীকান্ত আচার্য, জয় সরকার, ইমন চক্রবর্তীদের গালমন্দ করা হচ্ছে। কোনো জাজকে যেখানে ছাড় দেওয়া হচ্ছে না, সেখানে আমাকে দেওয়া হবে কেন। শেষ ছয় প্রতিযোগীকেও ছাড়া হচ্ছে না। অনুষ্কার মতো বাচ্চা মেয়েকে ছাড়া হচ্ছে না, আমি তো বকা খাবই।’

'অনুষ্কার মতো বাচ্চা মেয়েকেও ছাড়া হচ্ছে না, আমি তো বকা খাবই'

 বিনোদন ডেস্ক 
২৩ এপ্রিল ২০২১, ০৯:৫৩ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

গত রোববার জিবাংলায় প্রচারিত হয় সারেগামাপা-২০২০-২১ মৌসুমের চূড়ান্ত পর্ব। গানের দীর্ঘ লড়াইয়ে বহু প্রতিযোগীকে পেছনে ফেলে এই পর্বে জায়গা করে নেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের অর্কদীপ মিশ্র, রক্তিম চৌধুরী, বিদীপ্তা চক্রবর্তী, জ্যোতি শর্মা, নীহারিকা নাথ ও অনুষ্কা পাত্র।  

শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন অর্কদীপ। দ্বিতীয় স্থান অধিকার করেছেন নীহারিকা এবং তৃতীয় হয়েছেন বিদীপ্তা। 

তবে দর্শকদের ভোটে বিজয়ী হয়েছেন অনুষ্কা।  অর্কদীপকে চ্যম্পিয়ন মেনে নিতে পারছেন দর্শকরা। 

প্রতিযোগিতার অন্যতম সেরা শিল্পী অর্কদীপ। লোকগানের শিল্পী হিসেবে তিনি অনবদ্য, সে কথা স্বীকার করে নিয়েছেন দর্শকেরা। বাকি প্রতিযোগিরাও কেউ কারও চেয়ে যেন কম নয়। তবে চতুর্থ স্থান অধিকার করা অনুষ্কা পাত্র যেন সব ধরনের গানে বিশেষভাবে পারদর্শী। ফলে তার চ্যাম্পিয়ন না হতে পারা মেনে নিতে পারেননি দর্শকেরা। 

এ নিয়ে রোববার অনুষ্ঠান শেষ হওয়ার পর থেকেই শুরু হয়েছে সমালোচনা, যা শেষ পর্যন্ত রূপ নিয়েছে কুরুচিপূর্ণ বাগ্যুদ্ধে। প্রতিযোগীদের পাশাপাশি নেটিজেনরা যখন প্রতিযোগিতার বিচারকদের কটু কথা বলতে শুরু করেছেন, তখন আর সহ্য করতে পারেননি অর্কদীপ। লাইভে প্রতিবাদ জানিয়েছেন তিনি। 

তিনি বলেন, আমি সারেগামাপায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছি, সেটা তো আমার হাতে ছিল না। যারা এতে অখুশি হয়েছেন তাদের বলি, খেতাব বা পুরস্কার বা আমাকে সেটা দেওয়ার সিদ্ধান্তটা আমার হাতে ছিল না। আমার পরিবার, গুরু বা গ্রুমারদের হাতে ছিল না। তবে আপনাদের মন্তব্য দেখে এখন আমারও মনে হচ্ছে, আমাকে চ্যাম্পিয়ন না করলেই হতো। তাহলে এত অশান্ত পরিবেশ তৈরি হতো না। আমি ব্যক্তিগতভাবে অশান্তিতে নেই। কিন্তু (বিচারক) মিকা সিং, আকৃতি কক্কর, শ্রীকান্ত আচার্য, জয় সরকার, ইমন চক্রবর্তীদের গালমন্দ করা হচ্ছে। কোনো জাজকে যেখানে ছাড় দেওয়া হচ্ছে না, সেখানে আমাকে দেওয়া হবে কেন। শেষ ছয় প্রতিযোগীকেও ছাড়া হচ্ছে না। অনুষ্কার মতো বাচ্চা মেয়েকে ছাড়া হচ্ছে না, আমি তো বকা খাবই।’

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন