বর্ণনার সঙ্গে ভিডিওর মিল নেই, যা বললেন পরীমনি
jugantor
বর্ণনার সঙ্গে ভিডিওর মিল নেই, যা বললেন পরীমনি

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

২৩ জুন ২০২১, ১৯:৫২:৪৪  |  অনলাইন সংস্করণ

বোট ক্লাবে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ এনে আবাসন ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন ঢাকাই ছবির নায়িকা পরীমনি। এ মামলায় নাসির ও অপর আসামি তুহিন সিদ্দিকী অমিকে রিমান্ডে পাঠিয়েছেন আদালত। পরীমনির অভিযোগের সত্যতা যাচাই-বাছাই করছে তদন্ত সংশ্লিষ্টরা। এরইমধ্যে সেই রাতের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। সেই ভিডিওটি ঘিরে বিতর্কের মুখে পড়েছেন পরীমনি।

নতুন পাওয়া ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, পরীমনি ক্লাবে ঢুকেই বারের সামনে চেয়ারে বসে তার সঙ্গীদের নিয়ে মদ পান করছেন। এসময় দূর থেকে বোট ক্লাবের পরিচালনা পরিষদের সদস্য নাসির ইউ মাহমুদ তাকে মদ পান করতে বারণ করেন। তখন পরীমণি একটি বোতল নিতে চাইলে নাসির ইউ মাহমুদ বলেন, আপনি কোনো বিদেশি মদ নিতে পারবেন না। এখানেও তাকে নিবৃত করার চেষ্টা করেন নাসির উদ্দিন।

ভিডিওটি ভাইরালের পর তা পর্যালোচনা করে দেখছে আইন-শৃংঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

তদন্ত সূত্র আরও জানায়, তারা ইতোমধ্যে ওই রাতের ঘটনার সময়ের খণ্ডিত কয়েকটি ভিডিও ফুটেজ সংগ্রহ করেছেন। এর মধ্যে একটিতে খোদ পরীমনি নাসিরকে গালাগাল করছেন এমন দৃশ্য দেখা গেছে।
আবার আরেকটি ভিডিওতে উত্তেজিত হয়ে পরীমনিকে গালাগাল করছেন নাসির উদ্দিন মাহমুদ।

এ বিষয়ে পরীমনি গণমাধ্যমকে বলেছেন, ‘কয়েক সেকেন্ডের বিভ্রান্তিকর অস্পষ্ট ক্লিপ নয়, আমি পুরো ভিডিওটি চাই। শুরু থেকেই বলে আসছি, ক্লাবের ভেতরের সিসিটিভি ফুটেজ প্রকাশ করার জন্য। যদিও কয়েক সেকেন্ড পাওয়া যায়, তাহলে নিশ্চয়ই পুরো ফুটেজই আছে। আমি সংশ্লিষ্টদের অনুরোধ করে আবারও বলছি, দয়া করে পুরো ফুটেজ প্রকাশ করুন। সবাই সত্যটা জানুক কী ঘটেছে সেই রাতে।’

তদন্ত সংশ্লিষ্ট একজন কর্মকর্তা গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, গত ৯ জুনের ঘটনায় ঢাকা বোট ক্লাবের সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করা হয়েছে। সেই রাতে বোট ক্লাবে দায়িত্বপালনকারী সব স্টাফদের সঙ্গে কথা বলা হয়েছে। সিসিটিভি ফুটেজ বিশ্লেষণ ও স্টাফদের বক্তব্যের সঙ্গে পরীমনির অভিযোগের কোনো সাদৃশ্য পাওয়া যায়নি।

বরং ক্লাবের স্টাফরা তদন্ত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের জানিয়েছেন, পরীমনি তার সঙ্গীরাসহ রাতে ওই ক্লাবে গিয়ে স্বেচ্ছায় টেবিলে বসে খোশগল্প করতে করতে মদ পান করেন। প্রায় ঘণ্টা খানেক পর একটি ব্লু-লেভেল বিদেশি মদের বোতল নেওয়া নিয়ে সেখানে প্রথমে উচ্চবাচ্য হয়। পরে সেটি হাতাহাতিতে রূপ নেয়।

এর আগে গত ১৩ জুন নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এক স্ট্যাটাসে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ করেন অভিনেত্রী পরীমনি। বিষয়টি নিয়ে তোলপাড় শুরু হলে পরদিনই সাভার থানায় শুধু ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে একটি মামলা দায়ের করেন তিনি। ১৪ জুন উত্তরার একটি বাসা থেকে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ অভিযুক্ত নাসির ইউ মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী অমিকে মাদকসহ গ্রেফতার করে।

এদিকে পরীমনি তার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে মঙ্গলবার (২২ জুন) ইয়োগা করার কয়েকটি স্থিরচিত্র আপলোড করেছেন। সেখানে নিজের করা ভুল থেকে শিক্ষা নিয়ে সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়া নিয়ে লেখক ডেভ পেলজারের একটি উক্তি যুক্ত করেছেন।

বর্ণনার সঙ্গে ভিডিওর মিল নেই, যা বললেন পরীমনি

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
২৩ জুন ২০২১, ০৭:৫২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বোট ক্লাবে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ এনে আবাসন ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন ঢাকাই ছবির নায়িকা পরীমনি। এ মামলায় নাসির ও অপর আসামি তুহিন সিদ্দিকী অমিকে রিমান্ডে পাঠিয়েছেন আদালত। পরীমনির অভিযোগের সত্যতা যাচাই-বাছাই করছে তদন্ত সংশ্লিষ্টরা। এরইমধ্যে সেই রাতের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। সেই ভিডিওটি ঘিরে বিতর্কের মুখে পড়েছেন পরীমনি। 
 
নতুন পাওয়া ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, পরীমনি ক্লাবে ঢুকেই বারের সামনে চেয়ারে বসে তার সঙ্গীদের নিয়ে মদ পান করছেন। এসময় দূর থেকে বোট ক্লাবের পরিচালনা পরিষদের সদস্য নাসির ইউ মাহমুদ তাকে মদ পান করতে বারণ করেন। তখন পরীমণি একটি বোতল নিতে চাইলে নাসির ইউ মাহমুদ বলেন, আপনি কোনো বিদেশি মদ নিতে পারবেন না। এখানেও তাকে নিবৃত করার চেষ্টা করেন নাসির উদ্দিন।

ভিডিওটি ভাইরালের পর তা পর্যালোচনা করে দেখছে আইন-শৃংঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। 

তদন্ত সূত্র আরও জানায়, তারা ইতোমধ্যে ওই রাতের ঘটনার সময়ের খণ্ডিত কয়েকটি ভিডিও ফুটেজ সংগ্রহ করেছেন। এর মধ্যে একটিতে খোদ পরীমনি নাসিরকে গালাগাল করছেন এমন দৃশ্য দেখা গেছে।
আবার আরেকটি ভিডিওতে উত্তেজিত হয়ে পরীমনিকে গালাগাল করছেন নাসির উদ্দিন মাহমুদ।

এ বিষয়ে পরীমনি গণমাধ্যমকে বলেছেন, ‘কয়েক সেকেন্ডের বিভ্রান্তিকর অস্পষ্ট ক্লিপ নয়, আমি পুরো ভিডিওটি চাই। শুরু থেকেই বলে আসছি, ক্লাবের ভেতরের সিসিটিভি ফুটেজ প্রকাশ করার জন্য। যদিও কয়েক সেকেন্ড পাওয়া যায়, তাহলে নিশ্চয়ই পুরো ফুটেজই আছে। আমি সংশ্লিষ্টদের অনুরোধ করে আবারও বলছি, দয়া করে পুরো ফুটেজ প্রকাশ করুন। সবাই সত্যটা জানুক কী ঘটেছে সেই রাতে।’

তদন্ত সংশ্লিষ্ট একজন কর্মকর্তা গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, গত ৯ জুনের ঘটনায় ঢাকা বোট ক্লাবের সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করা হয়েছে। সেই রাতে বোট ক্লাবে দায়িত্বপালনকারী সব স্টাফদের সঙ্গে কথা বলা হয়েছে। সিসিটিভি ফুটেজ বিশ্লেষণ ও স্টাফদের বক্তব্যের সঙ্গে পরীমনির অভিযোগের কোনো সাদৃশ্য পাওয়া যায়নি।

বরং ক্লাবের স্টাফরা তদন্ত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের জানিয়েছেন, পরীমনি তার সঙ্গীরাসহ রাতে ওই ক্লাবে গিয়ে স্বেচ্ছায় টেবিলে বসে খোশগল্প করতে করতে মদ পান করেন। প্রায় ঘণ্টা খানেক পর একটি ব্লু-লেভেল বিদেশি মদের বোতল নেওয়া নিয়ে সেখানে প্রথমে উচ্চবাচ্য হয়। পরে সেটি হাতাহাতিতে রূপ নেয়।

এর আগে গত ১৩ জুন নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এক স্ট্যাটাসে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ করেন অভিনেত্রী পরীমনি। বিষয়টি নিয়ে তোলপাড় শুরু হলে পরদিনই সাভার থানায় শুধু ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে একটি মামলা দায়ের করেন তিনি। ১৪ জুন উত্তরার একটি বাসা থেকে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ অভিযুক্ত নাসির ইউ মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী অমিকে মাদকসহ গ্রেফতার করে।

এদিকে পরীমনি তার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে মঙ্গলবার (২২ জুন) ইয়োগা করার কয়েকটি স্থিরচিত্র আপলোড করেছেন। সেখানে নিজের করা ভুল থেকে শিক্ষা নিয়ে সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়া নিয়ে লেখক ডেভ পেলজারের একটি উক্তি যুক্ত করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা