ঘটনার রাত থেকেই আমি বিব্রত হচ্ছি: মৌ
jugantor
ঘটনার রাত থেকেই আমি বিব্রত হচ্ছি: মৌ

  বিনোদন ডেস্ক  

০৪ আগস্ট ২০২১, ০৪:৫৮:০০  |  অনলাইন সংস্করণ

ঘটনার রাত থেকেই আমি বিব্রত হচ্ছি: মৌ

উচ্চবিত্ত পরিবারের সন্তানদের পার্টির নামে বাসায় ডেকে আপত্তিকর ভিডিও ধারণ করে ব্ল্যাকমেইল করার অভিযোগে গ্রেপ্তার হয়েছেন কথিত মডেল মরিয়ম আক্তার মৌ।

তারা বাসা থেকে বিদেশি মদ, ইয়াবা ও সিসা জব্দ করেছেন ডিবির কর্মকর্তা।

গত দুদিন ধরেই আলোচিত এই মডেলের কর্মকাণ্ড নিয়ে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হচ্ছে।

সেসব সংবাদ দেখে রীতিমতো বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়েছেন জনপ্রিয় নৃত্যশিল্পী, মডেল ও অভিনেত্রী সাদিয়া ইসলাম মৌ।

নামের মিলের কারণে তিনি এমন পরিস্থিতির শিকার বলে জানিয়েছেন এই মডেল-অভিনেত্রী।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এক গণমাধ্যমকে সাদিয়া ইসলাম মৌ বলেন, ‘ঘটনার রাত থেকেই আমি বিব্রত হচ্ছি। আমার নামের সঙ্গে মিলে গেছে এমন একজনকে পুলিশ ধরেছে। আর এতেই অনেকে আমার পরিবার, স্বজন, বন্ধুদের নিউজ লিংক পাঠাচ্ছে। অথচ তারা কিন্তু দেখছে যে এটা আমি না। শুধু আমার পরিবারকেই নয়,আমার পরিচিত মানুষদের অনেক বিরক্ত ও বিব্রত করা হচ্ছে। আমার পরিবারের লোকেরা যতই বলছে নিউজটা খুলে দেখ, এটা সাদিয়া ইসলাম মৌ না। তারপরও তারা এমন কথাও বলেছে যে, এদের তো অনেক কিছুই লুকানো থাকে।’

প্রেপ্তার হওয়া মৌ নামের ওই নারী সত্যি মডেল বা অভিনেত্রী কি না সেটা আগে যাচাই করতে বলেছেন সাদিয়া ইসলাম মৌ।

তিনি বলেন, ‘মডেল তারাই যারা নিয়মিত স্টেজ শো করেন, ফ্যাশন শো করেন। এসব থেকে নিয়মিত সম্মানি নিচ্ছেন - তাদেরকেই মডেল বলা যায়। মডেলের খোঁজে আমরা প্রথমে পোর্টফলিও দেখি। সেখানে যাদের নাম পাওয়া যায় তাদেরকে আমরা মডেল বলব। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে মডেলিংয়ে নেই বা তেমন কাজ করা হয়নি তার। এমন মানুষ যদি নিজেকে মডেল বলতে পছন্দ করেন তাহলে তো আর কারও কিছু করার নাই। অবশ্য কিছু দায়িত্ব আমাদের মতো নিয়মিত মডেল-অভিনেত্রীদেরও থাকে। যেমন ধরুন আমি যদি সংগ্রাম করে এই যুগে ফিরে না আসতাম তাহলে এখনকার বাচ্চারা আমাকে মডেল হিসেবে চিনত না। আমি যতই পরিচয় দেই ওদেরকে যে, আমি মডেল মৌ, এখনকার বাচ্চারা কিন্তু আমাকে চিনবে না। আমি এখনও মডেলিংয়ের কাজ করছি বলে এখনকার কিছু ছেলে-মেয়েরা আমাকে চেনে।’

ঘটনার রাত থেকেই আমি বিব্রত হচ্ছি: মৌ

 বিনোদন ডেস্ক 
০৪ আগস্ট ২০২১, ০৪:৫৮ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ঘটনার রাত থেকেই আমি বিব্রত হচ্ছি: মৌ
জনপ্রিয় নৃত্যশিল্পী, মডেল ও অভিনেত্রী সাদিয়া ইসলাম মৌ। ফাইল ফটো

উচ্চবিত্ত পরিবারের সন্তানদের পার্টির নামে বাসায় ডেকে আপত্তিকর ভিডিও ধারণ করে ব্ল্যাকমেইল করার অভিযোগে গ্রেপ্তার হয়েছেন কথিত মডেল মরিয়ম আক্তার মৌ।

তারা বাসা থেকে বিদেশি মদ, ইয়াবা ও সিসা জব্দ করেছেন ডিবির কর্মকর্তা।

গত দুদিন ধরেই আলোচিত এই মডেলের কর্মকাণ্ড নিয়ে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হচ্ছে।

সেসব সংবাদ দেখে রীতিমতো বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়েছেন জনপ্রিয় নৃত্যশিল্পী, মডেল ও অভিনেত্রী সাদিয়া ইসলাম মৌ।

নামের মিলের কারণে তিনি এমন পরিস্থিতির শিকার বলে জানিয়েছেন এই মডেল-অভিনেত্রী।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এক গণমাধ্যমকে সাদিয়া ইসলাম মৌ বলেন, ‘ঘটনার রাত থেকেই আমি বিব্রত হচ্ছি। আমার নামের সঙ্গে মিলে গেছে এমন একজনকে পুলিশ ধরেছে। আর এতেই অনেকে আমার পরিবার, স্বজন, বন্ধুদের নিউজ লিংক পাঠাচ্ছে। অথচ তারা কিন্তু দেখছে যে এটা আমি না। শুধু আমার পরিবারকেই নয়,আমার পরিচিত মানুষদের অনেক বিরক্ত ও বিব্রত করা হচ্ছে। আমার পরিবারের লোকেরা যতই বলছে নিউজটা খুলে দেখ, এটা সাদিয়া ইসলাম মৌ না। তারপরও তারা এমন কথাও বলেছে যে, এদের তো অনেক কিছুই লুকানো থাকে।’

প্রেপ্তার হওয়া মৌ নামের ওই নারী সত্যি মডেল বা অভিনেত্রী কি না সেটা আগে যাচাই করতে বলেছেন সাদিয়া ইসলাম মৌ।

তিনি বলেন,  ‘মডেল তারাই যারা নিয়মিত স্টেজ শো করেন, ফ্যাশন শো করেন। এসব থেকে নিয়মিত সম্মানি নিচ্ছেন - তাদেরকেই মডেল বলা যায়। মডেলের খোঁজে আমরা প্রথমে পোর্টফলিও দেখি। সেখানে যাদের নাম পাওয়া যায় তাদেরকে আমরা মডেল বলব। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে মডেলিংয়ে নেই বা তেমন কাজ করা হয়নি তার। এমন মানুষ যদি নিজেকে মডেল বলতে পছন্দ করেন তাহলে তো আর কারও কিছু করার নাই। অবশ্য কিছু দায়িত্ব আমাদের মতো নিয়মিত মডেল-অভিনেত্রীদেরও থাকে। যেমন ধরুন আমি যদি সংগ্রাম করে এই যুগে ফিরে না আসতাম তাহলে এখনকার বাচ্চারা আমাকে মডেল হিসেবে চিনত না। আমি যতই পরিচয় দেই ওদেরকে যে, আমি মডেল মৌ, এখনকার বাচ্চারা কিন্তু আমাকে চিনবে না। আমি এখনও মডেলিংয়ের কাজ করছি বলে এখনকার কিছু ছেলে-মেয়েরা আমাকে চেনে।’

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন