সালমানের ফার্মহাউস নিয়ে প্রতিবেশীর বিস্ফোরক দাবি
jugantor
সালমানের ফার্মহাউস নিয়ে প্রতিবেশীর বিস্ফোরক দাবি

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৩ জানুয়ারি ২০২২, ২২:১৫:১৯  |  অনলাইন সংস্করণ

বলিউড তারকা সালমান খানের পানভেলের ফার্মহাউসের ভেতরে রয়েছে একাধিক তারকার কবর। শুধু তাই নয়, ওই ফার্মহাউস থেকে শিশুপাচার চক্র চলে বলে বিস্ফোরক অভিযোগ তুলেছেন সালমানের প্রতিবেশী কেতন কক্কর। ভারতীয় গণমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া রোববার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে সালমানের করা অভিনেতার মানহানির মামলা চলাকালীন আদালতে এ কথা জানিয়েছেন তার আইনজীবী প্রদীপ গান্ধী।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মুম্বাইয়ের একটি আদালতে প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেছেন সালমান খান। সেই মামলার শুনানি চলাকালে সালমানের আইনজীবী জানান, সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট এবং সাক্ষাৎকারে অভিনেতার বিরুদ্ধে এমন একাধিক মন্তব্য করেছেন তার প্রতিবেশী।

সালমানের বিরুদ্ধে আনা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন এবং এর কোনো প্রমাণ কেতনের কাছে নেই বলে জানিয়েছেন প্রদীপ গান্ধী।

জানা গেছে, কেতন কক্কর প্রবাসী। অবসরের পর ভারতে থাকার পরিকল্পনা নিয়ে এসেছেন তিনি। সালমান খানের পানভেলের ফার্ম হাউসের পেছনে একটি জমি রয়েছে। কেতনের অভিযোগ সেই জমিতে যাওয়ার রাস্তা আটকে করে দিয়েছেন সালমান। এ নিয়ে সালমানের সঙ্গে তার ঝামেলা শুরু হয়।

তবে সালমানের পক্ষ থেকে নাকি দাবি করা হয়েছে, কেতনের ওই জমি সংক্রান্ত কাগজপত্রে সমস্যা থাকায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। তারপর থেকেই কেতন সালমানের নামে আপত্তিকর মন্তব্য করে চলেছেন।

বিষয়টি সুরাহা চেয়ে আদালতের দারস্থ হন সালমান। অভিযোগে তিনি বলেন, ফেসবুক, টুইটার, ইউটিউবের মতো সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম থেকে তার সম্পর্কে কেতনের করা কুরুচিকর সব কনটেন্ট সরিয়ে ফেলতে হবে।

বোন অর্পিতার নামে করা ওই ফার্ম হাউসে প্রায় প্রতিবছরই নিজের জন্মদিন উদযাপন করেন সালমান। এমনকি ২০২০ সালে প্রথম লকডাউনের সময় ঘনিষ্ঠ বন্ধুবান্ধব এবং পরিবারের সঙ্গে দীর্ঘ সময় ধরে এই খামারবাড়িতে অবস্থান করেছিলেন বলিউড ভাইজান।

সালমানের ফার্মহাউস নিয়ে প্রতিবেশীর বিস্ফোরক দাবি

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১০:১৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বলিউড তারকা সালমান খানের পানভেলের ফার্মহাউসের ভেতরে রয়েছে একাধিক তারকার কবর।  শুধু তাই নয়, ওই ফার্মহাউস থেকে শিশুপাচার চক্র চলে বলে বিস্ফোরক অভিযোগ তুলেছেন সালমানের প্রতিবেশী কেতন কক্কর।  ভারতীয় গণমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া রোববার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে সালমানের করা অভিনেতার মানহানির মামলা চলাকালীন আদালতে এ কথা জানিয়েছেন তার আইনজীবী প্রদীপ গান্ধী। 

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মুম্বাইয়ের একটি আদালতে প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেছেন সালমান খান। সেই মামলার শুনানি চলাকালে সালমানের আইনজীবী জানান, সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট এবং সাক্ষাৎকারে অভিনেতার বিরুদ্ধে এমন একাধিক মন্তব্য করেছেন তার প্রতিবেশী। 

সালমানের বিরুদ্ধে আনা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন এবং এর কোনো প্রমাণ কেতনের কাছে নেই বলে জানিয়েছেন প্রদীপ গান্ধী। 

জানা গেছে, কেতন কক্কর প্রবাসী। অবসরের পর ভারতে থাকার পরিকল্পনা নিয়ে এসেছেন তিনি। সালমান খানের পানভেলের ফার্ম হাউসের পেছনে একটি জমি রয়েছে। কেতনের অভিযোগ সেই জমিতে যাওয়ার রাস্তা আটকে করে দিয়েছেন সালমান। এ নিয়ে সালমানের সঙ্গে তার ঝামেলা শুরু হয়। 

তবে সালমানের পক্ষ থেকে নাকি দাবি করা হয়েছে, কেতনের ওই জমি সংক্রান্ত কাগজপত্রে সমস্যা থাকায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। তারপর থেকেই কেতন সালমানের নামে আপত্তিকর মন্তব্য করে চলেছেন।

বিষয়টি সুরাহা চেয়ে আদালতের দারস্থ হন সালমান।  অভিযোগে তিনি বলেন, ফেসবুক, টুইটার, ইউটিউবের মতো সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম থেকে তার সম্পর্কে কেতনের করা কুরুচিকর সব কনটেন্ট সরিয়ে ফেলতে হবে।

বোন অর্পিতার নামে করা ওই ফার্ম হাউসে প্রায় প্রতিবছরই নিজের জন্মদিন উদযাপন করেন সালমান।  এমনকি ২০২০ সালে প্রথম লকডাউনের সময় ঘনিষ্ঠ বন্ধুবান্ধব এবং পরিবারের সঙ্গে দীর্ঘ সময় ধরে এই খামারবাড়িতে অবস্থান করেছিলেন বলিউড ভাইজান।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন