ফোক গানেই নিবেদিত রোকসানা রূপসা
jugantor
ফোক গানেই নিবেদিত রোকসানা রূপসা

  বিনোদন প্রতিবেদন  

২৯ জুন ২০২২, ০৬:২৩:০৬  |  অনলাইন সংস্করণ

নানা জাহিদুল ইসলামের স্বপ্নপূরণ করতেই এই প্রজন্মে ফোকে অনবদ্য সংগীতশিল্পী রোকসানা রূপসা নিজেকে মূলত একজন ফোক গানের শিল্পী হিসেবে গড়ে তুলেছেন। মামা শাহীনের কাছে তার গানে হাতেখড়ি।

গাইবান্ধার ফাঁসিতলা’তেই এসএসসি ও এইচএসসি সম্পন্ন করে ২০১০ সালে রাজধানীর মিউজিক কলেজে ভর্তি হন। সেখান থেকে তিন বছরে বিমিউজ সম্পন্ন করেন। আর এর পর পরই ২০১৭ সালে তিনি বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে সিনিয়র কণ্ঠশিল্পী হিসেবে যোগ দেন।

রূপসার প্রথম মৌলিক গান ছিল ২০১৮ সালে দ্রুব মিউজিক স্টেশনে প্রকাশিত ‘মায়া বাড়াইসে’। গানটি লেখা ও সুর করা কে জিয়ার। মিউজিক ভিডিও নির্মাণ করেছেন মাহিন আওলাদ। এতে মডেল ছিলেন চিত্রনায়ক কায়েস আরজু ও রূপসা। প্রথম মৌলিক গানেই বেশ সাড়া ফেলেন রূপসা। এখন পর্যন্ত গানটি ৪০ লাখ ভিউয়ার্স উপভোগ করেছেন।

এর পর তার কণ্ঠে ‘বলরে পাখি’, ‘অন্তরেতে পিরিত’, ‘তুই বিহনে’ গান প্রকাশ হয়।

জামাল হোসেনের লেখায় আরও তিনটি গান শিগগিরই প্রকাশ পাবে বলেও জানান রূপসা।

রূপসার স্বপ্ন- আজীবন গান গেয়ে যাওয়া।

গান গাওয়া এবং প্রিয় শিল্পী প্রসঙ্গে রূপসা বলেন, ‘সব ধরনের গান গাইতে পারি। তবে ফোক গান গাইতে আমি সবচেয়ে বেশি ভালোবাসি, স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। মনের সুখ-দুঃখ ফোক গানে বেশি তুলে ধরা যায়। আর আমার প্রিয় শিল্পী শ্রদ্ধেয় সাবিনা ইয়াসমিন। অথচ আমি সবচেয়ে বেশি গান শুনি শ্রদ্ধেয় রুনা লায়লা ম্যাডামের। কিন্তু গাইতে পারি না। কেন যেন রুনা ম্যাডামের গান আমার কাছে কঠিন মনে হয়। আজীবন গান গেয়ে যেতে চাইÑ চাই সবার দোয়া ও ভালোবাসা।’

রূপসা জানান, এরই মধ্যে শেখ সাদী খান, মকসুদ জামিল মিন্টু, রূপতনুর সুর ও সংগীতে পদ্মা সেতু নিয়ে তিনটি গান গেয়েছেন।

ফোক গানেই নিবেদিত রোকসানা রূপসা

 বিনোদন প্রতিবেদন 
২৯ জুন ২০২২, ০৬:২৩ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নানা জাহিদুল ইসলামের স্বপ্নপূরণ করতেই এই প্রজন্মে ফোকে অনবদ্য সংগীতশিল্পী রোকসানা রূপসা নিজেকে মূলত একজন ফোক গানের শিল্পী হিসেবে গড়ে তুলেছেন। মামা শাহীনের কাছে তার গানে হাতেখড়ি।

গাইবান্ধার ফাঁসিতলা’তেই এসএসসি ও এইচএসসি সম্পন্ন করে ২০১০ সালে রাজধানীর মিউজিক কলেজে ভর্তি হন। সেখান থেকে তিন বছরে বিমিউজ সম্পন্ন করেন। আর এর পর পরই ২০১৭ সালে তিনি বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে সিনিয়র কণ্ঠশিল্পী হিসেবে যোগ দেন।

রূপসার প্রথম মৌলিক গান ছিল ২০১৮ সালে দ্রুব মিউজিক স্টেশনে প্রকাশিত ‘মায়া বাড়াইসে’। গানটি লেখা ও সুর করা কে জিয়ার। মিউজিক ভিডিও নির্মাণ করেছেন মাহিন আওলাদ। এতে মডেল ছিলেন চিত্রনায়ক কায়েস আরজু ও রূপসা। প্রথম মৌলিক গানেই বেশ সাড়া ফেলেন রূপসা। এখন পর্যন্ত গানটি ৪০ লাখ ভিউয়ার্স উপভোগ করেছেন।

এর পর তার কণ্ঠে ‘বলরে পাখি’, ‘অন্তরেতে পিরিত’, ‘তুই বিহনে’ গান প্রকাশ হয়।

জামাল হোসেনের লেখায় আরও তিনটি গান শিগগিরই প্রকাশ পাবে বলেও জানান রূপসা।

রূপসার স্বপ্ন- আজীবন গান গেয়ে যাওয়া।

গান গাওয়া এবং প্রিয় শিল্পী প্রসঙ্গে রূপসা বলেন, ‘সব ধরনের গান গাইতে পারি। তবে ফোক গান গাইতে আমি সবচেয়ে বেশি ভালোবাসি, স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। মনের সুখ-দুঃখ ফোক গানে বেশি তুলে ধরা যায়। আর আমার প্রিয় শিল্পী শ্রদ্ধেয় সাবিনা ইয়াসমিন। অথচ আমি সবচেয়ে বেশি গান শুনি শ্রদ্ধেয় রুনা লায়লা ম্যাডামের। কিন্তু গাইতে পারি না। কেন যেন রুনা ম্যাডামের গান আমার কাছে কঠিন মনে হয়। আজীবন গান গেয়ে যেতে চাইÑ চাই সবার দোয়া ও ভালোবাসা।’

রূপসা জানান, এরই মধ্যে শেখ সাদী খান, মকসুদ জামিল মিন্টু, রূপতনুর সুর ও সংগীতে পদ্মা সেতু নিয়ে তিনটি গান গেয়েছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন