অটোরিকশার ছাদে কৃষিকাজ!

  যুগান্তর ডেস্ক    ০৫ জুলাই ২০১৮, ১৩:২৭ | অনলাইন সংস্করণ

শাইখ সিরাজের পরিচালনায় ছাদকৃষি অনুষ্ঠানে সিএনজি অটোরিকশা চালক তপন চন্দ্র
শাইখ সিরাজের পরিচালনায় ছাদকৃষি অনুষ্ঠানে সিএনজি অটোরিকশা চালক তপন চন্দ্র

চ্যানেল আইতে প্রচারিত হৃদয়ে মাটি ও মানুষের ডাক অনুষ্ঠানের বিশেষ আয়োজন ‘ছাদকৃষি’।

শাইখ সিরাজের পরিচালনা ও উপস্থাপনায় এবারের পর্বে দেখা যাবে, ছাদকৃষিতে উদ্বুদ্ধ হয়ে সিএনজিচালিত অটোরিকশাচালক তপন চন্দ্র ভৌমিক তার অটোরিকশার ছাদের ৩ ফুট প্রস্থ ও ৪ ফুট দৈর্ঘ্যরে ক্ষুদ্রায়তনে গড়ে তুলেছেন ছাদকৃষি।

অভিনব এ সেগমেন্টটি প্রচার হবে আজ হৃদয়ে মাটি ও মানুষের ডাক অনুষ্ঠানের ছাদকৃষি পর্বে। এটি ছাদকৃষি আয়োজনের শততম পর্ব।

তপন চন্দ্র ভৌমিকের অটোরিকশা দেখলে মনে হবে ছোট্ট একটি বাগান নিয়ে অটোরিকশাটি ঘুরে বেড়াচ্ছে! তিন চাকার এই সিএনজি অটোরিকশার ছাদের ওপরে প্রায় দেড়শ জাতের ফুল ও বিভিন্ন গাছের চারা রোপন করে বাগানটি তৈরি করেছেন অটোরিকশা চালক তপন চন্দ্র ভৌমিক।

তার গ্রামের বাড়ি ব্রাম্মণবাড়িয়া। অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত পড়ালেখা করেছেন তিনি। বর্তমানে পরিবার নিয়ে ঢাকার খিলগাঁওয়ে থাকেন। খিলগাঁয়ের একটি গ্যারেজের সিএনজি ভাড়ায় চালিয়ে সংসার চালান তিনি। এ সিএনজিটি তিনি গত ছয় বছর ধরে চালাচ্ছেন।

ভাড়া করা একটি অটোরিকশাকে পরিবেশবান্ধব এবং যাত্রীবান্ধব করে গড়ে তুলেছেন তিনি। সেখানে গাছের চারা রোপনের পাশাপাশি ফ্রি ওয়াই-ফাইয়ের ব্যবস্থা করেছেন।

গরমে যাতে যাত্রীদের কষ্ট না হয় সেজন্য করেছেন মিনি ফ্যানের ব্যবস্থা। এছাড়াও রেখেছেন বিনোদনের জন্য সিডি প্লেয়ার ও ছোট্ট একটি মনিটর। রেখেছেন প্রাত্যহিক জীবনে জরুরি প্রাথমিক চিকিৎসার ফাস্ট এইড বক্স।

তপনের অটোরিকশায় আরও আছে বেশ কিছু গল্প-উপন্যাসের বই, আছে নখ কাটার মেশিন, ফেসিয়াল টিস্যুও রেখেছেন। যাত্রীদের জন্য তপন প্রতিদিন তিনটি দৈনিক পত্রিকাও রাখেন অটোরিকশায়। তপন রেখেছেন অগ্নিনিরাপত্তার জন্য ছোট্ট একটি ফায়ার এক্সটিংগুইশারও!

সিএনজির মূল মালিক তিনি না হলেও সাজসজ্জা করেছেন নিজেই। এ জন্য তাকে গুনতে হয়েছে ৫০ হাজার টাকা। প্রায় ৪০টি ফুল গাছ নিয়ে ছাদের ওপর গড়ে তুলেছেন বাগান। সিএনজির ভেতরেও রয়েছে ডেকোরেশন ব্যবস্থা।

এগুলো শখের বসে নাকি বিনোদনের জন্য করেছেন জানতে চাইলে তপন চন্দ্র বলেন, মানুষকে বিনোদন দেওয়ার পাশাপাশি বাগান গড়তে উৎসাহ দিতেই এটা করা।

তিনি বলেন, বর্তমানে উবার, পাঠাওয়ের মাধ্যমে মোটর সাইকেল ভাড়া পাওয়া যায়। এ কারণে সিএনজির প্রতি মানুষ অনেকটাই মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে। তাই ক্রেতা টানার সঙ্গে সঙ্গে তাদের একটু বিনোদনের ব্যবস্থা করতেই পুরো সিএনজি অটোরিকশা ফুলের গাছ দিয়ে সাজানো হয়েছে।

প্রসাধনির ব্যবস্থা করার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, অনেক যাত্রীই আছে যারা রাস্তায় বের হলেই তাদের চুলগুলো এলোমেলো হয়ে যায়, ঠোট শুকিয়ে যায়। তাই তাদের চাহিদার কথা ভেবে সিএনজির ভেতরে আয়না চিরনি, লিপজেল রাখা হয়েছে। যাতে ওই যাত্রী সিএনজির ভেতর থেকেই নিজেকে সুন্দর রাখতে পারেন।

প্রতিদিন মালিককে এক হাজার টাকা পরিশোধ করার পর যে টাকা থাকে তা দিয়ে চার সদস্যের সংসার চালান তিনি। তাদের সংসারে রয়েছে এক ছেলে ও এক মেয়ে। ছেলেটি আগামীতে এসএসসি পরীক্ষা দেবে, মেয়েটি এখনও ছোট রয়েছে

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×