আশীর্বাদ অনুষ্ঠানে টানা তিন ঘণ্টা ধর্মীয় আচারে মগ্ন ছিলেন প্রিয়াংকা-নিক!

  যুগান্তর ডেস্ক    ১৮ আগস্ট ২০১৮, ১৯:২০ | অনলাইন সংস্করণ

আশীর্বাদ অনুষ্ঠানে টানা তিন ঘণ্টা ধর্মীয় আচারে মগ্ন ছিলেন প্রিয়াঙ্কা-নিক!

অবশেষে সকল জল্পনার অবসান ঘটিয়ে আজ শনিবার পাঞ্জাবী রীতিনীতি মেনে সম্পন্ন হল বলিউড অভিনেত্রী প্রিয়াংকা চোপড়া ও নিক জোনাসের আশীর্বাদ অনুষ্ঠান। শুক্রবার থেকেই যেন বধু সেজে বসে ছিল প্রিয়াংকার মুম্বাই এর জুহুর বাড়ি।

আজ সূর্য দেখা দিতে না দিতেই আশীর্বাদ অনুষ্ঠানের নানা সামগ্রী নিয়ে বহু মানুষের আনাগোনায় মূখরিত হতে থাকে প্রিয়াংকার বাড়ি। সেদিকে কড়া নজর রেখেছিলেন পাপারাজ্জিরা। বি-টাউনের অনেককেই দেখা গেছে প্রিয়াংকার এই আশীর্বাদ অনুষ্ঠানে। সকালে পুরোহিতকেও ঢুকতে দেখেন পাপারাজ্জিরা।

অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন নিক জোনাসের বাবা-মাও। ভারতীয় পোশাকে নিজেদের সাজিয়েছেন এ মার্কিন মুলুকের বাসিন্দারা। অনুষ্ঠানের কয়েকটি স্থিরচিত্র এরই মধ্যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে সেখানে দেখা যায়, নিক- প্রিয়াংকার পাশে বসে আছেন নিকের মা-বাবা। সবাই ভারতীয় পোশাক পরে আছেন। প্রিয়াংকা গায়ে জড়িয়েছেন হলুদ রঙের সেলোয়ার কামিজ আর নিক পরেছেন সাদা পাঞ্জাবি।

অনুষ্ঠানের পূজা-পার্বন সবই নাকি পাঞ্জাবী রীতি মেনে সম্পন্ন হয়েছে। অনুষ্ঠান শেষে পুরোহিত প্রদীপ কুমার দ্বিবেদী যখন প্রিয়াংকার জুহুর বাড়ি থেকে বের হচ্ছিলেন তখনই তাকে ঘিরে ধরেন ভারতের মিডিয়াকর্মীরা।

বাগদানের বিষয়ে তাকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি জানান, পাঞ্জাবী রীতিতে 'প্রিয়াঙ্কা-নিক' জুটির জন্য সৌভাগ্য কামনা করে পূজাঅর্চনা করা হয়েছে। এরপর তাদের বাগদান সম্পন্ন হয়েছে।

সত্যি কি বাগদানপর্ব হয়ে গেছে? সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে পুরোহিত বিষয়টি এড়িয়ে যান।

পুরোহিত জানান, বাগদান হয়েছে কিনা তা তিনি বলতে পারবেন না, কারণ তারা পুজা নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন। সকাল ১০ থেকে বেলা ১টা পর্যন্ত টানা ৩ ঘণ্টা ধরে চলে এ পুজার অনুষ্ঠান। নিক ও প্রিয়াংকার সামনে হিন্দুধর্মীয় দেবতা গণেশের পুজা করা হয়েছে বলে জানান পুরোহিত প্রদীপ কুমার দ্বিবেদী।

বলি সূত্রের খবর, আজ রাতে মুম্বাইয়ের একটি পাঁচতারকা হোটেলে রয়েছে প্রিয়াংকা-নিকের এনগেজমেন্ট পার্টি। এই পার্টি সংবাদমাধ্যমের নজর থেকে দূরে রাখার নির্দেশ দিয়েছে প্রিয়াংকার পরিবার।

ঘটনাপ্রবাহ : প্রিয়াংকা চোপড়ার বিয়ে

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter