জাহিদ হাসানের নতুন পরিকল্পনা
jugantor
জাহিদ হাসানের নতুন পরিকল্পনা

  বিনোদন প্রতিবেদন  

১৬ আগস্ট ২০২১, ০২:২৩:২৩  |  অনলাইন সংস্করণ

জনপ্রিয় অভিনেতা জাহিদ হাসান করোনাকালেও নিয়মিত অভিনয় করে যাচ্ছেন। তবে শুধু অভিনয়েই এখন আর নিজেকে আটকে রাখেন না এই খ্যাতিমান অভিনেতা, নাটক পরিচালনাতেও রয়েছে তার ধারাবাহিকতা। কাছাকাছি সময়ে এ অভিনেতার পরিচালনায় দুটি ধারাবাহিক নাটক প্রচার হয়েছে ভিন্ন দুটি টিভিতে।

বিটিভিতে প্রচার হয়েছে ‘পিছুটান’ এবং আরটিভিতে প্রচার হয়েছে ‘হুলস্থুল টিভি’। করোনার লকডাউন শেষ হলেও এখন অভিনয় কিংবা পরিচালনা- কোনোটাতেই কাজ শুরু করেননি এই তারকা। তবে দুই মাধ্যমেই ফেরার পরিকল্পনা করছেন তিনি।

আগামী ২৭ আগস্ট থেকে ‘একশতে একশ’ নামের প্রচার চলতি একটি ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় শুরু করবেন তিনি। অভিনয়ের ব্যস্ততার ফাঁকেই তিনি নতুন একটি ধারাবাহিক নাটক নির্মাণ করার পরিকল্পনা করছেন।

এ প্রসঙ্গে জাহিদ হাসান বলেন, অভিনয় কিংবা পরিচালনা দুটোই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে করোনার কারণে। তাছাড়া সংক্রমণের ভয় তো থাকেই। এসব শঙ্কা মাথায় নিয়েই কাজ করছি। করোনাকাল যে কবে শেষ হবে তা আমরা কেউই জানি না। তবে দিনের পর দিন তো আর কর্মহীন থাকা যায় না। তাই জীবনের ঝুঁকি নিয়েই কাজ করে যাচ্ছি। চলতি বছরেই একটি ধারাবাহিক নাটক নির্মাণের পরিকল্পনা আছে আমার। এজন্য মানসিকভাবে প্রস্তুতিও নিচ্ছি। এখন গল্প লেখার কাজ চলছে। অপেক্ষায় আছি সুন্দর সময়ের।

নাটকে নিয়মিত অভিনয় করলেও আপাতত ছবিতে অভিনয়ের সম্ভাবনা নেই এই অভিনেতার।

জাহিদ হাসানের নতুন পরিকল্পনা

 বিনোদন প্রতিবেদন 
১৬ আগস্ট ২০২১, ০২:২৩ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

জনপ্রিয় অভিনেতা জাহিদ হাসান করোনাকালেও নিয়মিত অভিনয় করে যাচ্ছেন। তবে শুধু অভিনয়েই এখন আর নিজেকে আটকে রাখেন না এই খ্যাতিমান অভিনেতা, নাটক পরিচালনাতেও রয়েছে তার ধারাবাহিকতা। কাছাকাছি সময়ে এ অভিনেতার পরিচালনায় দুটি ধারাবাহিক নাটক প্রচার হয়েছে ভিন্ন দুটি টিভিতে।

বিটিভিতে প্রচার হয়েছে ‘পিছুটান’ এবং আরটিভিতে প্রচার হয়েছে ‘হুলস্থুল টিভি’। করোনার লকডাউন শেষ হলেও এখন অভিনয় কিংবা পরিচালনা- কোনোটাতেই কাজ শুরু করেননি এই তারকা। তবে দুই মাধ্যমেই ফেরার পরিকল্পনা করছেন তিনি।

আগামী ২৭ আগস্ট থেকে ‘একশতে একশ’ নামের প্রচার চলতি একটি ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় শুরু করবেন তিনি। অভিনয়ের ব্যস্ততার ফাঁকেই তিনি নতুন একটি ধারাবাহিক নাটক নির্মাণ করার পরিকল্পনা করছেন।

এ প্রসঙ্গে জাহিদ হাসান বলেন, অভিনয় কিংবা পরিচালনা দুটোই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে করোনার কারণে। তাছাড়া সংক্রমণের ভয় তো থাকেই। এসব শঙ্কা মাথায় নিয়েই কাজ করছি। করোনাকাল যে কবে শেষ হবে তা আমরা কেউই জানি না। তবে দিনের পর দিন তো আর কর্মহীন থাকা যায় না। তাই জীবনের ঝুঁকি নিয়েই কাজ করে যাচ্ছি। চলতি বছরেই একটি ধারাবাহিক নাটক নির্মাণের পরিকল্পনা আছে আমার। এজন্য মানসিকভাবে প্রস্তুতিও নিচ্ছি। এখন গল্প লেখার কাজ চলছে। অপেক্ষায় আছি সুন্দর সময়ের।

নাটকে নিয়মিত অভিনয় করলেও আপাতত ছবিতে অভিনয়ের সম্ভাবনা নেই এই অভিনেতার।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন