১৯ আগস্ট: হাসতে নেই মানা

  যুগান্তর ডেস্ক ১৯ আগস্ট ২০১৯, ১০:১০ | অনলাইন সংস্করণ

১৯ আগস্ট: হাসতে নেই মানা

* জোকস-১

একটি এনজিও শহরের ডোনারদের লিস্ট পরীক্ষা করতে গিয়ে দেখল, শহরের কোটিপতি উকিল একটি পয়সাও এনজিওকে দান করেননি।

কর্মী তখন উকিলকে ফোন করে বলল, ‘আপনি এ শহরের সবচেয়ে বড়লোক, অথচ আমাদের সংস্থাকে আজ পর্যন্ত এক পয়সাও দান করেননি।’

উকিল বললেন, ‘তুমি তো অনেক খবর নিয়েছো দেখছি। তুমি কি জানো, আমার মা দশ বছর ধরে শয্যাশায়ী। নিজের চিকিৎসার বিল মেটানোর কোন ক্ষমতা তার নেই। আমার ছোটভাইয়ের অ্যাকসিডেন্টে পা কাটা গেছে, একটা পয়সা রোজগার করার ক্ষমতা তার নেই। আমার বোনের স্বামী মারা গেছে, পাঁচ ছেলে রেখে। তার একটি পয়সা ব্যাংকে নেই।’

কর্মী বলেন, ‘সত্যি, এর কিছুই আমি জানতাম না। আমি দুঃখিত।’

উকিল বলেন, ‘তাহলে শোন, তাদের কাউকেই আমি একটি পয়সা দেইনি। তাহলে কেন আমি তোমাকে টাকা দেব!’

* জোকস-২

এক সৈন্য ভুল করে তার মগ উল্টে রেখে গেল টেবিলে। এমন সময় জেনারেলের তৃষ্ণা পেয়েছে।

তিনি পেয়াদাকে হুকুম করলেন পানি আনার জন্য।

পেয়াদা অনেকক্ষণ দেখে ফিরে এসে রিপোর্ট করলো, ‘স্যার পানি আনতে পারবো না, মগের কোনো মুখ নেই।’

জেনারেল গেলেন টেবিলের কাছে।

তিনিও অনেকক্ষণ গবেষণা করে বললেন, ‘কী আশ্চর্য, এটার তো তলাও নেই।’

* জোকস-৩

মশার বাচ্চা প্রথমবারের মতো উড়তে বের হয়েছে। সারারাত উড়ে সকালের দিকে বাসায় আসার পর মশার বাবা জিজ্ঞেস করল—

বাবা: তো বাবা, উড়ে কেমন মজা পেলে?

বাচ্চা: উড়ে অনেক মজা বাবা। কী বলব আর সে কথা।

বাবা: কী হয়েছে, বল?

বাচ্চা: যত মানুষের সঙ্গে দেখা হয়েছে, সবাই কত হাততালি দিলো!

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×