১৪ সেপ্টেম্বর: হাসতে নেই মানা

  যুগান্তর ডেস্ক ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১০:১৬ | অনলাইন সংস্করণ

১৪ সেপ্টেম্বর: হাসতে নেই মানা

* জোকস-১

প্রেমিক তার প্রেমিকাকে বলছে-

প্রেমিক: প্রেয়সী আমার, তোমার সঙ্গে আমি আমার সব কথা শেয়ার করতে চাই। আমার সুখ-দুঃখ, হাসি-কান্না… সব!

প্রেমিকা: শুরুটা তাহলে তোমার এটিএম কার্ডের পাসওয়ার্ড দিয়েই হোক।

* জোকস-২

স্বামী: আজ আমি তোমার কাছে কিছুই গোপন রাখবো না। কী জানতে চাও বলো?

স্ত্রী: আমিও। আচ্ছা আমাদের বিয়ের আগে তোমার কি কোনো মেয়ের সঙ্গে সম্পর্ক ছিল?

স্বামী: না, তবে মাঝে মাঝে নাইট ক্লাবে যেতাম আর কী! স্ত্রী: তাই তো বলি তোমাকে এতো চেনা চেনা লাগছে কেন!

* জোকস-৩

বল্টু গেল জ্যোতিষীর কাছে, গিয়ে বলল-

বল্টু : আমার ডানহাত চুলকাচ্ছে।

জ্যোতিষী: আপনার টাকা আসবে।

বল্টু : আমার বামহাত চুলকাচ্ছে।

জ্যোতিষী: টাকা আসলে তো খরচ হবেই!

বল্টু : আমার ডানপা চুলকাচ্ছে।

জ্যোতিষী: আপনার দূরে কোথাও বেড়ানোর সম্ভাবনা আছে।

বল্টু : আমার বামপা চুলকাচ্ছে।

জ্যোতিষী: আপনার এলার্জি হয়েছে, ডাক্তারের কছে যান!

* জোকস-৪

একদিন বৃষ্টি হচ্ছিল। ঝিরঝির বৃষ্টিতে প্রেমিক-প্রেমিকা ঘুরতে বেরিয়েছে। ট্যাক্সি ক্যাব ভাড়া নিয়ে ঘুরছে তারা। ট্যাক্সি নিজ গতিতে চলছে। কিন্তু হঠাৎ ট্যাক্সি আস্তে চলতে লাগল! প্রেমিক ট্যাক্সি ড্রাইভারের কাছে জানতে চাইলো-

প্রেমিক: হঠাৎ আস্তে চালানোর কারণ কী?

ড্রাইভার: আপুমণি যে বললেন, আস্তে আস্তে। এত তাড়াহুড়ার কী আছে!

* জোকস-৫

ডেন্টিস্ট: সর্বনাশ! আপনার দাঁতের মাঝে বিরাট একটা গর্ত হয়েছে, বিরাট একটা গর্ত হয়েছে।

রোগী: দু’বার বলার দরকার নেই। একবারেই বুঝতে পেরেছি।

ডেন্টিস্ট: দু’বার বলিনি, একবারই বলেছি।

রোগী: আমি তো দু’বারই শুনলাম।

ডেন্টিস্ট: আপনার দাঁতের গর্তটা এতবড় যে, সেখান থেকে প্রতিধ্বনি হয়েছে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×