১২ সেপ্টেম্বর : আজকের জোকস

প্রকাশ : ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১২:১৯ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর ডেস্ক   

১। শিক্ষক : আই লাভ ইউ কথাটি কোন দেশ আবিষ্কার করেছে?  ছাত্র : স্যার, চায়না।  শিক্ষক : কীভাবে!  ছাত্র : এর কোনো গ্যারান্টি নেই, কোয়ালিটিও নেই। টিকলে সারাজীবন টিকে যায়, না টিকলে দুই দিনও টিকে না!


২। পঁচাত্তর বছরের বৃদ্ধা, আশি বছর বয়েসের বৃদ্ধ স্বামীর ওপর ডিভোর্সের মামলা করেছেন। কোর্টে কেস শুনানি চলছে।

বৃদ্ধা : আমি ডিভোর্স চাই

ম্যাজিস্ট্রেট : আপনি আমার শ্রদ্ধেয়া, কিন্তু তবুও আমার কর্তব্য হিসেবে বলছি। এই বয়েসে এসে আপনি স্বামীকে ডিভোর্স দিতে কেন চাইছেন? এই বয়েসেই তো আপনাদের একে অন্যকে সবচাইতে বেশি প্রয়োজন।

বৃদ্ধা : আমি ওনার মানসিক নিপীড়নের শিকার।

ম্যাজিস্ট্রেট : সেটা কি ভাবে?

বৃদ্ধা : মুড ভালো না থাকলে যখন তখন আমায় যা তা কথা শুনিয়ে দেন!

ম্যাজিস্ট্রেট : ওহ.. এই ব্যাপার। তা, আপনিও পাল্টা কথা শুনিয়ে দিলেই তো হয়ে গেল।

বৃদ্ধা : সেটাই তো আমার মানসিক চাপের কারণ!

ম্যাজিস্ট্রেট : বুঝতে পারলাম না।

বৃদ্ধা : আমি যখনই পাল্টা কোন জবাব দিতে যাই, কানে শোনার মেশিনটা উনি খুলে ফেলেন!


৩। এক রিকশাচালকের হাত কেটে গেছে। পরোপকারী মন্টুর বাপ তাকে এলাকার ক্লিনিকে নিয়ে গেল। ডাক্তার প্রথমেই বললেন: বড় ধরনের কাটা, সেলাই লাগবে কিন্তু? অনেক ওষুধও লাগবে?

কাতরাতে থাকা রিকশাচালক: স্যার, কতো টাকা লাগতে পারে?

ডাক্তার: দুই হাজারের কম না।

মন্টুর বাপ: ডাক্তার সাব, আপনারে এমব্রয়ডারি করতে কে বলছে, শুধু সেলাই দিলেই তো হয়