বিশ্বে অপরাধবিজ্ঞানে দ্বিতীয় সেরা লেখক রাজুব ভৌমিক

  অনলাইন ডেস্ক ৩০ জুলাই ২০২০, ০৩:২৪:২০ | অনলাইন সংস্করণ

শীর্ষ তালিকার বিবরণ ও বইটির কাভার (ডান দিকে)

সম্প্রতি সারা বিশ্বের অপরাধ বিজ্ঞান বইয়ের একটি র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করেছে যুক্তরাষ্ট্রের বুক অথোরিটি নামের একটি প্রতিষ্ঠান। স্বনামধন্য এই প্রতিষ্ঠানটি অপরাধ বিজ্ঞান বিষয়ে সারা বিশ্বের সেরা বারটি বইয়ের তালিকা প্রকাশ করেছে। যে বইগুলো সাধারণত ইলন মাস্ক, মার্ক জাকারবার্গ, ওয়ারেন বাফেট থেকে শুরু করে বিশ্বের খ্যাতনামা ব্যক্তিদের কাছ থেকে সুপারিশ-প্রাপ্ত হয় বলে ওয়েবসাইটটির সূত্রে জানা যায়।

এই তালিকায় ৪.০৮ নিয়ে ১২তম হয় বিখ্যাত লেখক জেফ্রি ওয়াকার এবং সন মাদানের অপরাধ বিজ্ঞানের ওপর পরিসংখ্যানের একটি বই। এই তালিকায় ৪.৫৯ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় বইটি হচ্ছে ‘লিডিং থিউরিজ অব ডেলিনকুয়েন্ট বিহেভিয়ার এন্ড ক্রিমিনোলজি’— যেটি লিখেছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত লেখক ও কবি রাজুব ভৌমিক। র‌্যাঙ্কিং এর প্রথম বইটির পয়েন্ট ৪.৬৪। মাত্র ০.৫ পয়েন্টের জন্য বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত লেখক রাজুব ভৌমিকের বইটি প্রথম স্থান পায়নি।

প্রথম স্থান না পেলেও লেখক রাজুব ভৌমিকের কোন আপসোস নেই। তিনি বলেন, “এ বইটির প্রকাশনা প্রতিষ্ঠানের একজন কর্মকর্তা ফোন করে বললো আমার লেখা একটি বই সারা বিশ্বে দ্বিতীয় হয়েছে। প্রথমে তার কথা বিশ্বাস করতে পারিনি। পরে সে আমাকে ই-মেইল করে সব তথ্য দিলো।”

তিনি আরও বলেন, “এই পাওয়া সত্যিই সম্মানের এবং এই অর্জন বাংলাদেশের সবার। আমি মনের আনন্দে লিখি। আর লিখে মানুষের ভালোবাসা অর্জন করতে পেরেছি বলে দায়িত্বটা আরও বেড়ে গেলো।”

বুক অথোরিটি বিশ্বের সেরা বইয়ের তালিকা নিয়মিত প্রকাশ করে। এই প্রতিষ্ঠানটি বিশ্বে জনমত জরিপ, বিক্রয়ের তথ্য এবং জনপ্রিয়তার ভিত্তিতে প্রতিমাসে সেরা বইয়ের তালিকা প্রকাশ করে।

উল্লেখ্য, কবি ও লেখক, অধ্যাপক ড. রাজুব ভৌমিকের জন্ম বাংলাদেশের নোয়াখালী জেলাতে। গত ছয় বছর ধরে তিনি জন জে কলেজ, সিটি ইউনিভার্সিটি নিউইয়র্ককে তিনি অপরাধবিদ্যা, আইন ও বিচার বিভাগে অধ্যাপনা করছেন।

তিনি হসটস কলেজ, সিটি ইউনিভার্সিটি নিউইয়র্কেও মনস্তাত্ত্বিক বিভাগে অধ্যাপনা করছেন। অধিকন্তু, গত আট বছর ধরে পেশায় একজন পুলিশ অফিসার হিসেবে নিউইয়র্ক সিটি পুলিশ ডিপার্টমেন্টে (এনওয়াইপিডি) একজন কাউন্টার টেরোরিজম অফিসার হিসেব কর্মরত আছেন।

কবি ড. রাজুব ভৌমিক আয়না সঙ্গীত ও আয়না সনেটের জনক। আয়না সনেট সৃষ্টির মাধ্যমে তিনি সারা বিশ্বে ব্যাপক সাড়া জাগিয়েছে। তার প্রকাশিত গ্রন্থের সংখ্যা ২৫টিরও বেশি। সিটি ইউনিভার্সিটি অব নিউইয়র্কে তার প্রকাশিত তিনটি পাঠ্যপুস্তক নিয়মিত ব্যবহৃত হয়।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন [email protected] এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত