কুয়েতে সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপন
jugantor
কুয়েতে সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপন

  সাদেক রিপন, কুয়েত থেকে  

২২ নভেম্বর ২০২০, ০৯:১৩:০৩  |  অনলাইন সংস্করণ

কুয়েতে বাংলাদেশ দূতাবাসে সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপিত হয়েছে। ২১ নভেম্বর সকাল ১০টায় বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রতিরক্ষা শাখার উদ্যোগে আয়োজিত হয় সশস্ত্র বাহিনী দিবস।

বিগত বছরগুলোতে নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে দিবসটি পালন করা হলেও এ বছর করোনা পরিস্থিতির কারণে স্বল্পপরিসরে দূতাবাসে দিবসটি উদযাপিত হয়।

দোয়া ও মোনাজাতের পর রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর বাণী পাঠ করে শোনানো হয়। দিবসটি উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনাসভায় বাংলাদেশ মিলিটারি কন্টিনজেন্টের কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ আবদুল মজিদ তার বক্তব্যে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করে বলেন, দেশ ও জাতির দেয়া দায়িত্ব পালনে অঙ্গীকার হচ্ছে সশস্ত্র বাহিনী দিবসের প্রতিশ্রুতি।

কুয়েতে নিযুক্ত বাংলাদেশি রাষ্ট্রদূত মেজর জেনারেল মোহাম্মদ আশিকুজ্জামান বলেন, বিশ্বের দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়ানোর মতো ক্ষমতা বাংলাদেশের আছে। তিনি কুয়েতে কর্তব্যরত সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যসহ দূতাবাসে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাথা উঁচু করে এবং দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিয়ে কাজ করার অনুরোধ করেন।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ মুক্তিযুদ্ধে জীবন উৎসর্গকারী সব বাংলাদেশির আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন।

এ সময় ডিফেন্স অ্যাটাচি ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ আবু নাসের, প্রথম সচিব ও দূতালয় প্রধান নিয়াজ মুর্শেদসহ দূতাবাসে কর্মরত সদস্য এবং বাংলাদেশ মিলিটারি কন্টিনজেন্টের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন [email protected] এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

কুয়েতে সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপন

 সাদেক রিপন, কুয়েত থেকে 
২২ নভেম্বর ২০২০, ০৯:১৩ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কুয়েতে বাংলাদেশ দূতাবাসে সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপিত হয়েছে। ২১ নভেম্বর সকাল ১০টায় বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রতিরক্ষা শাখার উদ্যোগে আয়োজিত হয় সশস্ত্র বাহিনী দিবস।

বিগত বছরগুলোতে নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে দিবসটি পালন করা হলেও এ বছর করোনা পরিস্থিতির কারণে স্বল্পপরিসরে দূতাবাসে দিবসটি উদযাপিত হয়।

দোয়া ও মোনাজাতের পর রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর বাণী পাঠ করে শোনানো হয়। দিবসটি উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনাসভায় বাংলাদেশ মিলিটারি কন্টিনজেন্টের কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ আবদুল মজিদ তার বক্তব্যে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করে বলেন, দেশ ও জাতির দেয়া দায়িত্ব পালনে অঙ্গীকার হচ্ছে সশস্ত্র বাহিনী দিবসের প্রতিশ্রুতি।

কুয়েতে নিযুক্ত বাংলাদেশি রাষ্ট্রদূত মেজর জেনারেল মোহাম্মদ আশিকুজ্জামান বলেন, বিশ্বের দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়ানোর মতো ক্ষমতা বাংলাদেশের আছে। তিনি কুয়েতে কর্তব্যরত সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যসহ দূতাবাসে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাথা উঁচু করে এবং দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিয়ে কাজ করার অনুরোধ করেন।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ মুক্তিযুদ্ধে জীবন উৎসর্গকারী সব বাংলাদেশির আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন।

এ সময় ডিফেন্স অ্যাটাচি ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ আবু নাসের, প্রথম সচিব ও দূতালয় প্রধান নিয়াজ মুর্শেদসহ দূতাবাসে কর্মরত সদস্য এবং বাংলাদেশ মিলিটারি কন্টিনজেন্টের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন [email protected] এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]