আয়ারল্যান্ডে নাগরিকত্ব: অপেক্ষমানদের জন্য সুখবর
jugantor
আয়ারল্যান্ডে নাগরিকত্ব: অপেক্ষমানদের জন্য সুখবর

  এস এ রব, আয়ারল্যান্ড থেকে  

১২ এপ্রিল ২০২১, ২১:৩৫:৩০  |  অনলাইন সংস্করণ

গত কয়েক সপ্তাহে প্রায় ১২০০ বিদেশিকে নাগরিকত্ব দিয়েছে আয়ারল্যান্ড। একটি সাময়িক অনলাইন নাগরিকত্ব অর্পণ প্রক্রিয়ার অধীনে এই নাগরিকত্ব দেয়া হয়েছে। জমা হওয়া আবেদনের চাপ কমাতে গত জানুয়ারিতে এই প্রক্রিয়াটি চালু করেছিল আইরিশ সরকার।

আয়ারল্যান্ডের বিচার মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, প্রক্রিয়াটি শুরু হওয়ার পর তারা ৪ হাজার আবেদনকারীর সঙ্গে যোগাযোগ করেছে। তাদেরকে উৎসাহিত করা হয়েছে নাগরিকত্ব ও আইরিশ রাষ্ট্রের আনুগত্য বিষয়ক ফরমে স্বাক্ষর করে শর্ত পূরণের। মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এসব আবেদনকারীরা আড়াই বছরেরও বেশি সময় ধরে অপেক্ষায় ছিলেন।

এই ১২০০ জনকে নাগরিকত্ব দেয়ার মাধ্যমে আবেদনকারীর ৩০ শতাংশের আনুষ্ঠানিকতা শেষ হয়েছে। এদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ব্রিটেন, পোল্যান্ড, ভারত, রোমানিয়া ও নাইজেরিয়ার। বিচারমন্ত্রী হেলেন ম্যা কেনি বলেছেন, আরো ১১৫৯ জন ফরমে স্বাক্ষর করেছেন এবং আসছে কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই তাদের নাগরিকত্ব দেয়া হবে।

অনেক দিন ধরেই আয়ারল্যান্ডের নাগরিকত্ব লাভের আবেদনের স্তুপ জমেছিল দেশটির সংশ্লিষ্ট দফতরে। আইরিশ টাইমসের তথ্য মতে, প্রায় ২৪ হাজার আবেদন জমা রয়েছে এখনও। করোনাভাইরাস মহামারির কারণে দাফতরিক কার্যক্রম ব্যহত হওয়ায় এই জট ছাড়াতে জানুয়ারিতে অনলাইন প্রক্রিয়াটি চালু করা হয়।

আইরিশ বিচার মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, তারা এসব আবেদন ১২ মাসের মধ্যে সমাধা করার পরিকল্পনা নিলেও বিভিন্ন কারণে এতে বেশি সময় লাগছে।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাইরের যেসব দেশের নাগরিকরা আয়ারল্যান্ডের বিভিন্ন হাসপাতাল বা কেয়ার হোমে কাজ করছে তারা কয়েক মাস ধরেই আহ্বান জানিয়ে আসছে তাদের আবেদনগুলো অগ্রাধিকার ভিত্তিতে বিবেচনা করার জন্য। গত কয়েক সপ্তাহে নাগরিকত্ব পাওয়া ১২০০ জনের মাঝে স্বাস্থ্য বিভাগের লোক থাকলেও তাদের সংখ্যা স্পষ্ট করেননি বিচারমন্ত্রী।

তিনি জানান, জুনের শেষ দিকে দুই বছর ধরে অপেক্ষা করছে এমন আরো আড়াই হাজার লোককে অনলাইন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে নাগরিকত্ব দেয়া হবে। সব মিলে সাড়ে ছয় হাজার লোক নাগরিকত্ব আবেদনের জট ছাড়াতে আইরিশ সরকারের বিশেষ এই প্রক্রিয়ার সুবিধা পাবে।

এছাড়া নতুন করে যারা আবেদন করবে তাদের জন্য সব ব্যবস্থা অনলাইন নির্ভর করারও একটি ঘোষণা দেয়া হয়েছে।

নতুন নাগরিকত্ব পাওয়া লোকদের বিশেষ মুহূর্তটি উদযাপনের সুযোগ দিতে একটি ভার্চুয়াল সেলিব্রেশনের আয়োজন করা হবে বলে জানান মন্ত্রী। কারণ করোনা মহামারির কারণে এখন সব ধরনের আয়োজন বন্ধ রয়েছে।

এর আগে গত মাসে আয়ারল্যান্ডে জন্ম নেয়া বিদেশি নাগরিকদের সন্তানদের জন্য নাগরিকত্বের শর্ত শিথিল করেছে দেশটি সরকার।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন [email protected] এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

আয়ারল্যান্ডে নাগরিকত্ব: অপেক্ষমানদের জন্য সুখবর

 এস এ রব, আয়ারল্যান্ড থেকে 
১২ এপ্রিল ২০২১, ০৯:৩৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

গত কয়েক সপ্তাহে প্রায় ১২০০ বিদেশিকে নাগরিকত্ব দিয়েছে আয়ারল্যান্ড। একটি সাময়িক অনলাইন নাগরিকত্ব অর্পণ প্রক্রিয়ার অধীনে এই নাগরিকত্ব দেয়া হয়েছে। জমা হওয়া আবেদনের চাপ কমাতে গত জানুয়ারিতে এই প্রক্রিয়াটি চালু করেছিল আইরিশ সরকার।

আয়ারল্যান্ডের বিচার মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, প্রক্রিয়াটি শুরু হওয়ার পর তারা ৪ হাজার আবেদনকারীর সঙ্গে যোগাযোগ করেছে। তাদেরকে উৎসাহিত করা হয়েছে নাগরিকত্ব ও আইরিশ রাষ্ট্রের আনুগত্য বিষয়ক ফরমে স্বাক্ষর করে শর্ত পূরণের। মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এসব আবেদনকারীরা আড়াই বছরেরও বেশি সময় ধরে অপেক্ষায় ছিলেন।

এই ১২০০ জনকে নাগরিকত্ব দেয়ার মাধ্যমে আবেদনকারীর ৩০ শতাংশের আনুষ্ঠানিকতা শেষ হয়েছে। এদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ব্রিটেন, পোল্যান্ড, ভারত, রোমানিয়া ও নাইজেরিয়ার। বিচারমন্ত্রী হেলেন ম্যা কেনি বলেছেন, আরো ১১৫৯ জন ফরমে স্বাক্ষর করেছেন এবং আসছে কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই তাদের নাগরিকত্ব দেয়া হবে।

অনেক দিন ধরেই আয়ারল্যান্ডের নাগরিকত্ব লাভের আবেদনের স্তুপ জমেছিল দেশটির সংশ্লিষ্ট দফতরে। আইরিশ টাইমসের তথ্য মতে, প্রায় ২৪ হাজার আবেদন জমা রয়েছে এখনও। করোনাভাইরাস মহামারির কারণে দাফতরিক কার্যক্রম ব্যহত হওয়ায় এই জট ছাড়াতে জানুয়ারিতে অনলাইন প্রক্রিয়াটি চালু করা হয়।

আইরিশ বিচার মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, তারা এসব আবেদন ১২ মাসের মধ্যে সমাধা করার পরিকল্পনা নিলেও বিভিন্ন কারণে এতে বেশি সময় লাগছে।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাইরের যেসব দেশের নাগরিকরা আয়ারল্যান্ডের বিভিন্ন হাসপাতাল বা কেয়ার হোমে কাজ করছে তারা কয়েক মাস ধরেই আহ্বান জানিয়ে আসছে তাদের আবেদনগুলো অগ্রাধিকার ভিত্তিতে বিবেচনা করার জন্য। গত কয়েক সপ্তাহে নাগরিকত্ব পাওয়া ১২০০ জনের মাঝে স্বাস্থ্য বিভাগের লোক থাকলেও তাদের সংখ্যা স্পষ্ট করেননি বিচারমন্ত্রী।

তিনি জানান, জুনের শেষ দিকে দুই বছর ধরে অপেক্ষা করছে এমন আরো আড়াই হাজার লোককে অনলাইন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে নাগরিকত্ব দেয়া হবে। সব মিলে সাড়ে ছয় হাজার লোক নাগরিকত্ব আবেদনের জট ছাড়াতে আইরিশ সরকারের বিশেষ এই প্রক্রিয়ার সুবিধা পাবে।

এছাড়া নতুন করে যারা আবেদন করবে তাদের জন্য সব ব্যবস্থা অনলাইন নির্ভর করারও একটি ঘোষণা দেয়া হয়েছে।

নতুন নাগরিকত্ব পাওয়া লোকদের বিশেষ মুহূর্তটি উদযাপনের সুযোগ দিতে একটি ভার্চুয়াল সেলিব্রেশনের আয়োজন করা হবে বলে জানান মন্ত্রী। কারণ করোনা মহামারির কারণে এখন সব ধরনের আয়োজন বন্ধ রয়েছে।

এর আগে গত মাসে আয়ারল্যান্ডে জন্ম নেয়া বিদেশি নাগরিকদের সন্তানদের জন্য নাগরিকত্বের শর্ত শিথিল করেছে দেশটি সরকার।
 

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন [email protected] এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]
যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন