টরন্টোয় মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল শুরু ২৩ সেপ্টেম্বর
jugantor
টরন্টোয় মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল শুরু ২৩ সেপ্টেম্বর

  রাজীব আহসান, কানাডা থেকে  

২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০০:৩১:১৯  |  অনলাইন সংস্করণ

কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি চলচ্চিত্রসেবীদের সংগঠন টরন্টো ফিল্ম ফোরাম আয়োজিত ৪র্থ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল টরন্টো-২০২১ শুরু হচ্ছে ২৩ সেপ্টেম্বর। করোনা পরিস্থিতির কারণে এবারের চলচ্চিত্র উৎসব অনলাইনে অনুষ্ঠিত হবে। ৬ দিনের এ উৎসব আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি শেষ হবে।
শুক্রবার ৩০০০ ড্যানফোর্থ এভিনিউর ৪নং ইউনিটের টরন্টো ফিল্ম ফোরামের মাল্টিকালচারাল ফিল্ম স্ক্রিনিং সেন্টারে এক ‘মিট দ্য প্রেস’-এ ফোরামের সভাপাতি এনায়েত করিম বাবুল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল সম্পর্কিত বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন।

ফিল্ম ফোরামের সভাপাতি এনায়েত করিম বাবুল সাংবাদিকদের জানান, টরন্টো ফিল্ম ফোরাম প্রতি বছর কানাডার দ্বিতীয় প্রাচীনতম প্রেক্ষাগৃহ ২২৩৬ কুইন স্ট্রিট ইস্টের ‘ফক্স থিয়েটার’ এ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল আয়োজন করে। করোনাজনিত বিধি নিষেধের কারণে এবার এ উৎসব অনলাইনে করতে হচ্ছে।

তিনি জানান, এ বছর ১২৩টি দেশের প্রায় সাড়ে তিন হাজার প্রামাণ্য চলচ্চিত্র, স্বল্পদৈর্ঘ্য কাহিনী চলচ্চিত্র এবং পূর্ণদৈর্ঘ্য কাহিনী ফেস্টিভ্যালে দেখানোর জন্য জমা পড়েছে। জমাকৃত চলচ্চিত্র থেকে বাছাই করে ১১০টি দেশের ৩০০টি বিভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র দর্শকদের জন্য উৎসবের ছয় দিন উন্মুক্ত থাকবে। এনায়েত করিম বাবুল উল্লেখ করেন, ছয় দিনের উৎসবের দ্বিতীয় দিন অর্থাৎ ২৪ সেপ্টেম্বর থাকবে ‘কানাডা প্যানারোমা’ যে দিন শুধু মাত্র কানাডার ৩২টি বিভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র দেখানো হবে।

উল্লেখ্য, কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি স্বাধীন চলচ্চিত্র নির্মাতা এবং চলচ্চিত্রপ্রেমীদের উদ্যেগে ২০১৪ সালে টরন্টোতে টরন্টো ফিল্ম ফোরাম গঠিত হয়। এই ফোরাম গঠনের একটি প্রধানতম লক্ষ্য ছিল, পৃথিবীর বহুজাতিক স্বাধীন এবং বিকল্পধারার চলচ্চিত্র নির্মাতাদের চলচ্চিত্রের প্রদর্শন করা। মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল আয়োজনের মধ্য দিয়ে টরন্টো ফিল্ম ফোরামের সদস্যরা মনে করেন, বহু ভাষা ও বহু জাতির মানুষের সৌহার্দপূর্ণ সহাবস্থানই পারে আমাদের এই পৃথিবীকে আরও সুন্দর ও শান্তিময় করে তুলতে।

ফোরামের সভাপতি ছাড়াও উপস্থিত সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দেন সংগঠনটির কার্যকরী সদস্য ফয়েজ নুর ময়না, চলচ্চিত্র স্ক্রিনিং সম্পাদক রেজিনা রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক জগলুল আজিম রানা এবং সাধারণ সম্পাদক মনিস রফিক।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন jugantorporobash@gmail.com এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

টরন্টোয় মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল শুরু ২৩ সেপ্টেম্বর

 রাজীব আহসান, কানাডা থেকে 
২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:৩১ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি চলচ্চিত্রসেবীদের সংগঠন টরন্টো ফিল্ম ফোরাম আয়োজিত ৪র্থ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল টরন্টো-২০২১ শুরু হচ্ছে ২৩ সেপ্টেম্বর। করোনা পরিস্থিতির কারণে এবারের চলচ্চিত্র উৎসব অনলাইনে অনুষ্ঠিত হবে। ৬ দিনের এ উৎসব আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি শেষ হবে। 
শুক্রবার ৩০০০ ড্যানফোর্থ এভিনিউর ৪নং ইউনিটের টরন্টো ফিল্ম ফোরামের মাল্টিকালচারাল ফিল্ম স্ক্রিনিং সেন্টারে এক ‘মিট দ্য প্রেস’-এ ফোরামের সভাপাতি এনায়েত করিম বাবুল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল সম্পর্কিত বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন। 

ফিল্ম ফোরামের সভাপাতি এনায়েত করিম বাবুল সাংবাদিকদের জানান, টরন্টো ফিল্ম ফোরাম প্রতি বছর কানাডার দ্বিতীয় প্রাচীনতম প্রেক্ষাগৃহ ২২৩৬ কুইন স্ট্রিট ইস্টের ‘ফক্স থিয়েটার’ এ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল আয়োজন করে। করোনাজনিত বিধি নিষেধের কারণে এবার এ উৎসব অনলাইনে করতে হচ্ছে।

তিনি জানান, এ বছর ১২৩টি দেশের প্রায় সাড়ে তিন হাজার প্রামাণ্য চলচ্চিত্র, স্বল্পদৈর্ঘ্য কাহিনী চলচ্চিত্র এবং পূর্ণদৈর্ঘ্য কাহিনী ফেস্টিভ্যালে দেখানোর জন্য জমা পড়েছে। জমাকৃত চলচ্চিত্র থেকে বাছাই করে ১১০টি দেশের ৩০০টি বিভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র দর্শকদের জন্য উৎসবের ছয় দিন উন্মুক্ত থাকবে। এনায়েত করিম বাবুল উল্লেখ করেন, ছয় দিনের উৎসবের দ্বিতীয় দিন অর্থাৎ ২৪ সেপ্টেম্বর থাকবে ‘কানাডা প্যানারোমা’ যে দিন শুধু মাত্র কানাডার ৩২টি বিভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র দেখানো হবে। 

উল্লেখ্য, কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি স্বাধীন চলচ্চিত্র নির্মাতা এবং চলচ্চিত্রপ্রেমীদের উদ্যেগে ২০১৪ সালে টরন্টোতে টরন্টো ফিল্ম ফোরাম গঠিত হয়। এই ফোরাম গঠনের একটি প্রধানতম লক্ষ্য ছিল, পৃথিবীর বহুজাতিক স্বাধীন এবং বিকল্পধারার চলচ্চিত্র নির্মাতাদের চলচ্চিত্রের প্রদর্শন করা। মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল আয়োজনের মধ্য দিয়ে টরন্টো ফিল্ম ফোরামের সদস্যরা মনে করেন, বহু ভাষা ও বহু জাতির মানুষের সৌহার্দপূর্ণ সহাবস্থানই পারে আমাদের এই পৃথিবীকে আরও সুন্দর ও শান্তিময় করে তুলতে। 

ফোরামের সভাপতি ছাড়াও উপস্থিত সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দেন সংগঠনটির কার্যকরী সদস্য ফয়েজ নুর ময়না, চলচ্চিত্র স্ক্রিনিং সম্পাদক রেজিনা রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক জগলুল আজিম রানা এবং সাধারণ সম্পাদক মনিস রফিক। 
 

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন jugantorporobash@gmail.com এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]
যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর