পর্তুগালে অভিবাসীদের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ১৭তম
jugantor
পর্তুগালে অভিবাসীদের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ১৭তম

  ফরিদ আহমেদ পাটোয়ারী, পর্তুগাল থেকে  

২৭ জুন ২০২২, ২৩:০৪:২৮  |  অনলাইন সংস্করণ

পর্তুগালে ২০২১ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত বৈধভাবে ১০ হাজার ৯৩৬ জন বাংলাদেশি বসবাস করছেন; যা দেশটিতে ১৮৭টি দেশের বসবাসকারী নিয়মিত নাগরিকদের মধ্যে বাংলাদেশের নাগরিকদের সংখ্যা ১৭তম অবস্থান নির্দেশ করে । পর্তুগালের ইমিগ্রেশন কর্তৃপক্ষ (এসইএফ) গতকাল এ তথ্য জানিয়েছে।

পর্তুগালে বর্তমানে ৬ লাখ ৯৮ হাজার ৮৮৭ জন বিদেশি নাগরিক রয়েছেন; যা গত বছরের তুলনায় ৫.৬ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে এই অভিবাসীদের বেশিরভাগ নাগরিক দক্ষিণ আমেরিকা এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ ইউরোপের বিভিন্ন দেশগুলোর। মোট অভিবাসীদের ৭৪.৪ শতাংশের বয়স ২৪ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে যা দেশটির কর্ম ক্ষেত্রে খুবই গুরুত্ব বহন করে।

পর্তুগালে বিদেশি নাগরিকদের প্রতিনিধিত্বকারী দেশগুলো হচ্ছে- ব্রাজিল ২ লাখ ৪ হাজার ৬৯৪ জন, যুক্তরাজ্যের ৪১,৯৩২ জন, কাবু ভেরদে ৩৪.০৯৩ জন, ইতালি ৩০,৮১৯ জন, ভারত ৩০,২৫১ জন, রোমানিয়া ২৮,৯১১ জন, ইউক্রেন ২৭,১৯৫ জন, ফ্রান্স ২৬,৭১৯ জন, অ্যাঙ্গোলা ২৫,৮০০ জন এবং চীনের ২২,৭৮২ জন নাগরিক পর্তুগালে নিয়মিতভাবে বসবাস করছেন।

এশিয়া মহাদেশের প্রায় ১ লাখ ৬ হাজার ৮৭৭ জন অভিবাসী দেশটিতে বসবাস করছেন। আমাদের দক্ষিণ এশিয়াতে সব দেশেরই ২০২১ তালের হিসাব অনুযায়ী অভিবাসীর সংখ্যা বেড়েছে ভারতের সর্বোচ্চ ৩০,২৫১ নাগরিক হিসেবে প্রথম স্থানে রয়েছে; তারপর নেপাল ২১,৫৪৫, বাংলাদেশের অবস্থান তৃতীয়, পাকিস্তানের ৭,৪৯৯ জন নাগরিক পর্তুগালে নিয়মিতভাবে বসবাস করছেন।

তবে পর্তুগালে বসবাসকারী বাংলাদেশিদের সংখ্যা বিষয়ে বাংলাদেশ দূতাবাস লিসবনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা জানিয়েছেন যে, নিয়মিত এবং অনিয়মিত মিলিয়ে কমপক্ষে ২০ হাজার বাংলাদেশি বসবাস করছেন। বলতে গেলে সমানসংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি নিয়মিত হবার অপেক্ষায় রয়েছেন। গত ২০২১ সালে ১ হাজার ২০ জন বাংলাদেশি নাগরিক পর্তুগালে রেসিডেন্ট কার্ড পেয়েছেন। বর্তমানে সর্বমোট ১০ হাজার ৯৩৬ জন বাংলাদেশির মধ্যে পুরুষ ৮,৫৪৬ এবং মহিলা ২,৩৯০ জন রয়েছেন।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন jugantorporobash@gmail.com এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

পর্তুগালে অভিবাসীদের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ১৭তম

 ফরিদ আহমেদ পাটোয়ারী, পর্তুগাল থেকে 
২৭ জুন ২০২২, ১১:০৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

পর্তুগালে ২০২১ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত বৈধভাবে ১০ হাজার ৯৩৬ জন বাংলাদেশি বসবাস করছেন; যা দেশটিতে ১৮৭টি দেশের বসবাসকারী নিয়মিত নাগরিকদের মধ্যে বাংলাদেশের  নাগরিকদের সংখ্যা ১৭তম অবস্থান নির্দেশ করে । পর্তুগালের ইমিগ্রেশন কর্তৃপক্ষ (এসইএফ) গতকাল এ তথ্য জানিয়েছে।

পর্তুগালে বর্তমানে ৬ লাখ ৯৮ হাজার ৮৮৭ জন বিদেশি নাগরিক রয়েছেন; যা গত বছরের তুলনায় ৫.৬ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে এই অভিবাসীদের বেশিরভাগ নাগরিক দক্ষিণ আমেরিকা এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ ইউরোপের বিভিন্ন দেশগুলোর। মোট অভিবাসীদের ৭৪.৪ শতাংশের বয়স ২৪ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে যা দেশটির কর্ম ক্ষেত্রে খুবই গুরুত্ব বহন করে।

পর্তুগালে বিদেশি নাগরিকদের প্রতিনিধিত্বকারী দেশগুলো হচ্ছে- ব্রাজিল ২ লাখ ৪ হাজার ৬৯৪ জন, যুক্তরাজ্যের  ৪১,৯৩২ জন, কাবু ভেরদে ৩৪.০৯৩ জন, ইতালি ৩০,৮১৯ জন, ভারত ৩০,২৫১ জন, রোমানিয়া ২৮,৯১১ জন, ইউক্রেন ২৭,১৯৫ জন, ফ্রান্স ২৬,৭১৯ জন, অ্যাঙ্গোলা ২৫,৮০০ জন এবং চীনের ২২,৭৮২ জন নাগরিক পর্তুগালে নিয়মিতভাবে বসবাস করছেন।

এশিয়া মহাদেশের প্রায় ১ লাখ ৬ হাজার ৮৭৭ জন অভিবাসী দেশটিতে বসবাস করছেন। আমাদের দক্ষিণ এশিয়াতে সব দেশেরই ২০২১ তালের হিসাব অনুযায়ী অভিবাসীর সংখ্যা বেড়েছে  ভারতের সর্বোচ্চ ৩০,২৫১ নাগরিক হিসেবে প্রথম স্থানে রয়েছে; তারপর নেপাল ২১,৫৪৫, বাংলাদেশের অবস্থান তৃতীয়, পাকিস্তানের ৭,৪৯৯ জন নাগরিক পর্তুগালে নিয়মিতভাবে বসবাস করছেন।

তবে পর্তুগালে বসবাসকারী বাংলাদেশিদের সংখ্যা  বিষয়ে বাংলাদেশ দূতাবাস লিসবনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা জানিয়েছেন  যে, নিয়মিত এবং অনিয়মিত মিলিয়ে কমপক্ষে ২০ হাজার বাংলাদেশি বসবাস করছেন। বলতে গেলে সমানসংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি নিয়মিত হবার অপেক্ষায় রয়েছেন। গত ২০২১ সালে ১ হাজার ২০  জন বাংলাদেশি নাগরিক পর্তুগালে রেসিডেন্ট কার্ড পেয়েছেন। বর্তমানে সর্বমোট ১০ হাজার ৯৩৬ জন বাংলাদেশির মধ্যে পুরুষ ৮,৫৪৬ এবং মহিলা ২,৩৯০ জন রয়েছেন।
 

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন jugantorporobash@gmail.com এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]
যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন